পাতা:চয়নিকা-রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.pdf/২১৫

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


চয়নিক কোথা হতে আচম্বিতে মুহূর্তেকে দিক দিগন্তর করি' অন্তরাল স্নিগ্ধ কৃষ্ণ ভয়ংকর তোমার সঘন অন্ধকারে রক্ত ক্ষণকাল ॥ তোমার ইঙ্গিত যেন ঘনগৃঢ় ভ্ৰকুটির তলে বিদ্যুতে প্রকাশে,— তোমার সংগীত যেন গগনের শত ছিদ্রমুখে বায়ুগর্জে আসে,— তোমার বর্ষণ যেন পিপাসারে তীব্র তীক্ষুবেগে বিদ্ধ করি’ হানে, তোমার প্রশাস্তি যেন সুপ্ত শু্যাম ব্যাপ্ত সুগম্ভীর স্তব্ধ রাত্রি আনে ॥ এবার আসে নি তুমি বসস্তের আবেশ-হিল্লোলে পুষ্পদল চুমি', এবার আসে নি তুমি মর্মরিত কুজনে গুঞ্জনে,— 鱷 ধন্য ধন্য তুমি । রথচক্র ঘর্ঘরিয়া এসেছ বিজয়ী রাজসম গবিত নির্ভয়,— বজমস্ত্রে কী ঘোষিলে বুঝিলাম, নাহি বুঝিলাম,— জয়, তব জয় ॥ হে দুৰ্দম, হে নিশ্চিত, হে নূতন নিষ্ঠুর নূতন, সহজ প্রবল । জীর্ণ পুষ্পদল যথা ধ্বংস ভ্রংশ করি চতুর্দিকে বাহিরায় ফল—