পাতা:চয়নিকা-রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.pdf/৩৪২

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


\L8'•’ চয়নিক প্রতিদশ পাখিরে দিয়েছ গান, গায় সেই গান, তার বেশি করে না সে দান । । অামারে দিয়েছ স্বর, আমি তার বেশি করি দণন, । অামি গাই গান । বাতাসেরে করেছ স্বাধীন, সহজে সে ভূত্য তব বন্ধন-বিহীন । অামারে দিয়েছ যত বোঝ", তাই নিয়ে চলি পথে কণ্ডু বাকী কন্তু সোজা । একে একে ফেলে ভার মরণে মরণে " নিয়ে যাই তোমার চরণে একদিন রিক্তহস্ত সেবায় স্বাধীন ; বন্ধন যা দিলে মোরে করি তারে যুক্তিতে বিলীন । । পূর্ণিমারে দিলে হাসি; মুখস্বপ্ন-রসরাশি ঢালে তাই, ধরণীর করপুট স্বধায় উচ্ছসি । দুঃখখানি দিলে মোর তপ্ত ভালে খুয়ে, । অশ্রুজলে তারে ধুয়ে ধুয়ে আনন্দ করিয়া তারে ফিরায়ে অগনিয়া দিই হাতে

-*- r: দিন-শেষে মিলনের রাতে । ro

তুমি তো গড়েছ শুধু এ মাটির ধরণী তোমার মিলাইয়া অণলোকে আঁধার । শূন্ত হাতে সেথা মোরে রেখে হাসিছ আপনি সেই শূন্তের আড়ালে গুপ্ত থেকে ।