পাতা:চিঠিপত্র (চতুর্থ খণ্ড)-রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.pdf/২২৪

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


2 > & চিঠিপত্র আমি ভাবি, এইবা কি কম, প্রাণে ত ঢেউ তোলে, ওর মনেতে যা হয় তা হোক আমার ত মন দোলে । হৃদয় না হয় নাই বা পেলেম, মাধুরী পাই নাচে, ভাবের অভাব রইল না হয়, ছন্দটা ত আছে ৷ বন্দী হ’তে চাই যে কোমল ঐ বাহুবন্ধনে তিন বছরের প্রিয়ার আমার নাই সে খেয়াল মনে শরৎ প্রভাত দিয়েছে ওর সবর দেহে মেলে’ শিউলি ফুলের তিন বছরের পরশখানি ঢেলে’ ৷ বুঝতে নারি তবু কেন আমার বেলায় ফাকি ভরা নদীর জোয়ার জলে কলস ভরে না কি ? তবু ভাবি, বিধি আমায় নিতান্ত নয় বাম, মাঝে মাঝে দেয় সে দেখা, তার ত আছে দাম । পরশ না পাই, হরষ পাব চোখের চাওয়! চেয়ে, রূপের ঝোরা বইবে আমার বুকের পাহাড় বেয়ে কবি বলে’ লোকসমাজে অাছে আমার ঠাই, fতম বছরের প্রিয়ার কাছে কবির অাদর নাই । যাই হোক মোর কীর্তিকলাপ ওর কাছে নাই মান, আজ বসেছি তারি দিতে উচিত প্রতিদান ।