পাতা:চিঠিপত্র (ত্রয়োদশ খণ্ড)-রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.pdf/২৩৭

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


ও শিলাইদহে আসার জন্ত বার বার আমন্ত্রণ জানিয়েছেন । স্থযোগ করতে পারলে মনোরঞ্জনও জোড়াসাকোয় গিয়ে রবীন্দ্রনাথের সঙ্গে দেখা করেছেন কিংবা শাস্তিনিকেতনে এসে রবীন্দ্রসান্নিধ্যে দু-চারদিন কাটিয়ে গিয়েছেন । ১৯৩৭-৩৮ খৃস্টাব্দ পর্যন্ত তার শাস্তিনিকেতনে আসা-যাওয়া অব্যাহত ছিল । রবীন্দ্রনাথের জীবনের প্রত্যস্তকাল পর্যন্ত র্তাদের পত্রালাপ অক্ষুণ্ণ ছিল । রবীন্দ্রনাথের মৃত্যুর মাত্র দেড় মাস আগে তাকে লেখা মনোরঞ্জনের পত্রে উভয়ের সম্বন্ধ যে কত গভীর ছিল তার পরিচয় পাওয়া যায়। পত্রটি সম্পূর্ণ মুদ্রিত হল – હે Sambalpur, B N. R. 20. 6. 41 পরম শ্রদ্ধাস্পদ ঐযুক্ত রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর মহাশয় সমীপেষু | মহাশয়, ক’দিন থেকে কেন যেন ঘুরতে ফিরতে বারবার আপনার কথাই মনে হচ্ছিল । মাঝখানকার প্রায় অৰ্দ্ধশতাব্দী ডিঙ্গিয়ে গিয়ে শাস্তিনিকেতনে সেই আপনার সঙ্গে আমার প্রথম পরিচয়ের দিনের কথা । সহসা বহুদূর অতীতের আকস্মিক পুনরাবৃত্তি মনটাকে চঞ্চল কোরে তুলছিল, কেন জানি না। তার মাঝে আজ সন্ধ্যার সময় a FGTR a Fofal gramaphoneta” stoffq recitation CH3I gofal record নিয়ে আমাকে শোনাতে এলো । অত কাছে থেকে আপনার ভাষা আজ কত বর্ষ যে শুনিনি তা মনে নাহ। একে মনটা কেমন ঘুলিয়েই ছিল তাতে এত কাছে থেকে ঘরে বসে আপনার ভাষা যেন মনটার ভিতরে একটা বেদনার স্বষ্টি করছিল । তাই আপনাকে চিন্তা একখানা না লিখে থাকতে পারলুম না । মনে হচ্ছে আপনার সঙ্গে 2- Gramophone இ

  • } @