পাতা:চিঠিপত্র (ত্রয়োদশ খণ্ড)-রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.pdf/২৪৮

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


সংস্কৃত শৰ লে উচ্চারণই করিতে পারে নী— ৰায় বার বিফল হইয়াও সে হতোদ্যম হয় না । মধ্যে তাহার শরীর অসুস্থ হইয়াছিল কিন্তু তাহার উৎসাহ হ্রাস হয় নাই ।” কুঞ্জলাল ঘোষকে লেখা চিঠিতে ( দ্রষ্টব্য, বর্তমান গ্রন্থের ১৭৯ পৃষ্ঠা ) হোরির প্রতি রবীন্দ্রনাথের বিশেষ মনোযোগের পরিচয় পাওয়া যায় । পত্র ৪ । তারিখহীন । রবীন্দ্রনাথ তার গুরুতর অস্বস্থ সহধর্মিনীর চিকিৎসা উপলক্ষে ঐ সময় কলকাতায় ছিলেন । পরবর্তী ৫-সংখ্যক চিঠি কালীপুজোর আগে লেখা। আলোচ্য চিঠির শেষে বৃহস্পতিৰারের উল্লেখ আছে। ঐ বছর কালীপুজোর আগের বৃহস্পতিবার ও কার্তিক 3 \డిe S জগদানন্দ । জগদানন্দ রায় ( ১৮৬৯-১৯৩৩ ) । শাস্তিনিকেতন ব্ৰহ্মচর্যাশ্রম বিদ্যালয়ের স্বচনাপর্ব থেকে আরম্ভ করে ১৯৩২ খৃস্টাকে অবসর গ্রহণের কাল পর্যন্ত অধ্যাপনায় নিযুক্ত ছিলেন । বিভিন্ন সময়ে তিনি বিদ্যালয়ের পরিচালন-দায়িত্বও নিষ্ঠা এবং কৃতিত্বের সঙ্গে পালন করেছেন । বাংলাভাষায় বৈজ্ঞানিক প্রসঙ্গের আলোচনার অন্ততম পথিকৃৎ জগদানন্দ সম্বন্ধে বিশদ পরিচয়ের জন্ত দ্রষ্টব্য, শাস্তিনিকেতন পুস্তকপ্রকাশ সমিতি-প্রকাশিত পুলিনবিহারী সেন -সম্পাদিত 'জগদানন্দ রায়' ( প্রকাশ ১৩৭৬) গ্রন্থ, এবং বঙ্গীয় সাহিত্য পরিষৎ-প্রকাশিত সাহিত্যসাধক চরিতমালার অন্তর্গত ঐনিরঙ্কন সরকার-লিখিত 'জগদানন্দ রায়’ গ্রন্থ ( প্রকাশ ১৩৮৩)। বিশ্বভারতী পত্রিকা, মাঘ-চৈত্র ১৩৭৬ সংখ্যায় তাকে লেখা রবীন্দ্রনাথের পত্রাবলী প্রকাশিত হয়েছে । পণ্ডিতমহাশয় । শিবধন বিদ্যার্ণব । দেবেন্দ্রনাথ তাকে কলকাতায় ३देé 2 303 *