পাতা:চিঠিপত্র (ত্রয়োদশ খণ্ড)-রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.pdf/৩৭৩

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


ব্যক্তিপরিচিতি

  • গ্রন্থপরিচয়’ অংশের বিভিন্ন স্থানে যে-সমস্ত ব্যক্তিপ্রসঙ্গ আছে, এখানে পৃষ্ঠাসংখ্যা-সহ সেগুলির নির্দেশ এবং যথাস্থানে কয়েকজনের পরিচয় দেওয়া ষায় নি ব'লে সেগুলি এখানে দেওয়া হল । গ্রন্থে উল্লিখিত কোনো কোনো ব্যক্তির পরিচয় সংগ্রহ করা সম্ভব হয় নি ।

অক্ষয় । অক্ষয়কুমার বস্থ । দ্রষ্টব্য পৃষ্ঠা ৩২৪ অক্ষয়বাৰু । অক্ষয়চন্দ্র সরকার । পৃ. ২৩৪-৩৫ অচ্যুত। অচ্যুতচন্দ্র সরকার। পৃ. ২২৮, ৩২১-২২ অজিত । অজিতকুমার চক্রবর্তী ( ১৮৮৬-১৯১৮ ) । তরুণবয়সে রবীন্দ্রসাহিত্য পাঠ করে এবং রবীন্দ্রসান্নিধ্যে এসে রবীন্দ্রনাথের প্রতি অজিতকুমারের যে গভীর শ্রদ্ধা জন্মে, তার ফলে বি. এ পাস করবার পরই তিনি শাস্তিনিকেতন বিদ্যালয়ে শিক্ষকরূপে যোগ দেন । সমস্ত দিক থেকে ছাত্রদের হৃদয় উজবোধিত করার ক্ষমতা অজিতকুমারের যেমন ছিল তার সঙ্গে একমাত্র তার স্বহৃদ সতীশচন্দ্র রায়ের তুলনা করা চলে। রবীন্দ্রনাথ অজিতকুমারের প্রতিভার কথা নানাভাবে স্মরণ করেছেন । তাকে লেখা রবীন্দ্রনাথের চিঠিপত্র গ্রন্থাকারে প্রকাশিত হলে উভয়ের মধ্যে নিবিড় যোগের বিবরণ পাওয়া যাবে । অজিতকুমার রবীন্দ্রসাহিত্যের অন্যতম প্রধান ৰ্যাখ্যাত রূপে স্বীকৃত । তার সম্বন্ধে পরিচয়ের জন্ত ‘ভারতকোষ’ প্রথম খণ্ডে পুলিনবিহারী সেন লিখিত অজিতকুমার চক্রবর্তী *নিবন্ধ' এবং ১৩৭৬ বঙ্গাব্দের সাহিত্যসংখ্যা 'দেশ' পত্রে ‘ভক্ত ও कवि' अहेवT । অরু। অরুণেন্দ্রনাথ ঠাকুর । দ্বিজেন্দ্রনাথ ঠাকুরের দ্বিতীয় পুত্ৰ । অরুণ। অরুণচন্দ্র সেন । পৃ. ৩২২

  • こ8切*