পাতা:ডিশ্‌মিস্‌ - অমৃতলাল বসু.pdf/৭

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


ডিস্মিশ । জোরেই, আমার ধন আমার একলার অাছে ; নইলে গামছা পর গোবর নেদি দেওয়া, তামাক পোড়াগাগি ঠটোর বাদরটি হয়ে থাকলে হয়েছিল আর কি ! এদিন কোন অবাগী আমার বরগা-গণার বন্দোদস্ত করে দিত । শুনেছি সীন আমার লজ্জায় ঘরে শুতে যেতেন না, তেমি নিজে জলে পুড়ে খাক হয়ে গিয়েছেন, তার স্বামীকেও একটি জানোয়ার বানিয়ে গিয়েছিলেন; বাবারে । সে কথা মনে হলে, আমার আজও গা কেঁপে উঠে । ফুলশয্যা হলো বিয়ের সঙ্গে—প্রথম ঘরবসত করতে এসে দেড় মাস রইলুম, খাৰু ধরে শুলেন তিনদিন—থাটের তলায় বমিতে মুখ গুজ ড়ে—এখন গাইলে ওর নিন্দ হয় ! একদিন নেশার চট্ৰক ভঙ্গে না উঠে, “জাড় গাও, পিয়া পিয়া গাও”— আমি বুঝলেম এই বিয়ের এই মন্তর, রসো বাপের বাড়ী থেকে ফরে আসি—চারমাস বাদে জাহ্নু ফিরে এলেন, জাতু গাইলেন, জাদু ও ক্রমে জাদু হলেন--- ( বিয়ের প্রবেশ ) ঝি। বোমা ! প্রম। তুই এলি বাছা! বাঁচলুম, আমি আবার তোকে চিঠি পাঠাব মনে কচ্ছিলেম । ঝি। ( সহাস্যে ) ওমা ! সেকি গো ! চিঠি কিসের ? আমি দেশের কুড় রাজ্যির কুড় গেছলুম নাকি ? প্রম । না, স্থলে পাড়ায় ; তবুত কিছু না হোক আধ পোয়৷ পথ হবে, গেছিস এক ঘণ্টার উপর, উদ্দেশট নাই, মর ছাই একটা লোকও কি পাঠাতে নেই ?