পাতা:তাসের দেশ - রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.pdf/২৬

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


রাজা রানী টেক্কা গোলাম প্রভৃতির যথারীতি যথাভঙ্গীতে প্রবেশ । রাজপুত্র। ওহে ভাই, স্তবগান করে রাজাকে খুশি করে দিই। তুমি ভুঁইকুমড়োর ডালটা দোলাও । গান জয় জয় তাসবংশ-অবতংস ! ক্রীড়াসরসীনীরে রাজহংস । তাম্রকুটম্বনধুমবিলাসী । তন্দ্রাতৗরনিবাসী । সব-অবকাশ-ধ্বংস । যমরাজেরই অংশ ॥ ভাসের দল। ভ্যাস্ত ভ্যাস্তা ভ্যাস্তা ! অকালে সভা দিলে ভেঙে, বর্বর । রাজা । শাস্ত হও । এরা কারা । ছক্কা । বিদেশী । রাজা। বিদেশী ! তা হলে নিয়ম খাটবে না। একবার সকলে ঠাই-বদল করে নাও, তা হলেই দোষ যাবে কেটে । সর্বাগ্রে তাস-মহাসভার জাতীয় সংগীত । গান সকলে । চি ড়েতন, হর্তন, ইস্কাবন— অতি সনাতন ছন্দে করতেছে নর্তন । কেউ-ব ওঠে, কেউ পড়ে, কেউ-বা একটু নাহি নড়ে, কেউ শুয়ে শুয়ে জুয়ে করে কালকর্তন । নাছি কহে কথা কিছু, একটু না হাসে, সামনে যে আসে চলে তারি পিছু পিছু । বাধা তার পুরাতন চালটা— QC