পাতা:দুই বোন - রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.pdf/৯৫

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


দুই বোন ৮৯ ঠিক এমন সময়ে শশাঙ্ক ঘরে ঢুকে জিজ্ঞাসা করলে, “ব্যাপারখানা কী। বিয়ের দিন স্থির হয়ে গেল বুঝি?” “হঁ। শশাঙ্কদা, স্থির হয়ে গেছে।” “কিছুতেই নড়াচড় হবে না?” “কিছুতেই না।” “তাহলে এইবেলা সানাই বায়না দিই, অর ভীমনাগের সন্দেশ?” “তোমাকে কোনো চেষ্টা করতে হবে না।” “নিজেই সব করবে? ধন্য বীরাঙ্গনা। আর কনেকে আশীৰ্বাদ?” “সে-অাশীৰ্বাদের টাকাটা অামার নিজের পকেট থেকেই গেছে।” “মাছের তেলেই মাছ ভাজা? ভালো বোঝা গেল না। ” “এই নাও বুঝে দেখো।” ব’লে চিঠিখানা ওর হাতে দিলে। প’ড়ে শশাঙ্ক হো হো করে হেসে উঠল। লিখছে, যে-রিসার্চের দুরুহ কাজে নীরদ আত্ম নিবেদন করতে চায়, ভারতবর্ষে তা সম্ভব নয়। সেই-জন্যেই ওর জীবনে আর একটা মস্ত স্যাক্ৰিফাইস মেনে