পাতা:নবজাতক-রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.djvu/২৯

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


নবজাতক ওরা কভু আধামিথ্যা রূপে সত্যেরে তো হানে না বিক্রপে । ওরা আছে নিজ স্থান পেয়ে, দারিদ্র্যের মূল্য বেশি লুপ্ত মূল্য ঐশ্বর্যের চেয়ে এদিকে চাহিয়া দেখো টিটাগড় । লোষ্ট্রে লোহে বন্দী হেথা কালবৈশাখীর পণ্য ঝড় । বণিকের দন্তে নাই বাধা, আসমূদ্র পৃথুিতলে দৃপ্ত তার অক্ষুণ্ণ মর্যাদা । প্রয়োজন নাহি জানে ওরা ভূষণে সাজায়ে হাতিঘোড়া সম্মানের ভান করিবার, ভুলাইতে ছদ্মবেশী সমুচ্চ তুচ্ছতা আপনার । শেষের পংক্তিতে যবে থামিবে ওদের ভাগ্যলিখা, নামিবে অন্তিম যবনিকা, উত্তাল রজতপিণ্ড উদ্ধারের শেষ হবে পাল৷ যন্ত্রের কিংকর গুলো নিয়ে ভস্মডালা লুপ্ত হবে নেপথ্যে যখন পশ্চাতে যাবে না রেখে প্রেতের প্রগলভ প্রহসন । উদাত্ত যুগের রথে বল্লাধর। সে রাজপুতান মরু প্রস্তরের স্তরে একদিন দিল মুষ্টি হানা, তুলিল উদ্ভেদ করি কলোল্লোলে মহা ইতিহাস প্রাণে উচ্ছসিত, মৃত্যুতে ফেনিল ; তারি তপ্তশ্বাস さ>