পাতা:নেতাজীর জীবনী ও বাণী - নৃপেন্দ্রনাথ সিংহ.pdf/৭৮

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে চলুন অনুসন্ধানে চলুন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা হয়েছে, কিন্তু বৈধকরণ করা হয়নি।

৬৮

সুভাষচন্দ্রের জীবনী ও বাণী

করিতেছেন এবং চতুর্থ ভ্রাতা ডেপুটি-ফরেষ্ট রেঞ্জারের পদে নিযুক্ত আছেন।


আজাদ হিন্দ ফৌজের বিচার

 বিচাৱালয়—দিল্লীর ইতিহাস-প্রসিদ্ধ লাল কেল্লার দ্বিতল হল ঘরে গত ৫ই নভেম্বর প্রথম সামরিক আদালত বসে। কেল্লার দক্ষিণ প্রান্তে ইহা অবস্থিত। নিম্নতলে একটি অংশে সাংবাদিকগণের কক্ষ (Press room) নির্দ্দিষ্ট হইয়াছিল। হলটির দৈর্ঘ্য ৬০ ফুট ও বিস্তৃতি ২৫ ফুট। হলটির তিন দিকে প্রশস্ত বারান্দা আছে।

 মঞ্চে বিচারকগণের আসন নির্দ্দিষ্ট হইয়াছিল। আসামী পক্ষের কৌসুলিগণ মঞ্চের সম্মুখে বসেন। দড়ি দ্বারা ঘেরা স্থানে সংবাদিকগণ বসেন। হলের বাকি অংশ দর্শকগণের জন্য বন্দোবস্ত করা হইয়াছিল। কেল্লায় প্রবেশাধিকার সীমাবদ্ধ ছিল।

 পাশ ব্যতীত বিচারের সহিত সংশ্লিষ্ট স্পেশাল ব্যক্তিদের ছাড়া অন্য কেহ কেল্লায় প্রবেশ করিতে পারিবেন না। বাহিরের লোকের জন্য দুই শত আসনের ব্যবস্থা করা হইয়াছে। একটি এমপ্লিফায়ারের ব্যবস্থা করা হইয়াছিল। প্রথম দিন সকলের ফটো নিয়া হয়।

 বিচারক ও উকিল—কংগ্রেস কর্ত্তৃক যে আসামী পক্ষসমর্থন-