পাতা:পণ্ডিত শিবনাথ শাস্ত্রীর জীবনচরিত.pdf/১২৫

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


ਠਹ বিধবা বিবাহের আন্দোলন । ঈশ্বরচন্দ্র বিদ্যাসাগর দ্বারকানাথ বিদ্যাভূষণের বিশেষ বন্ধু ছিলেন। শিবনাথের পিতা হরানন্দ ভট্টাচায্যের সহিতও তাহার অত্যন্ত হৃদ্যতা ছিল। হরানন্দ পুত্ৰকে ইংরাজি শিক্ষা দিবার সংকল্প করিয়া অতি শৈশবে কলিকাতায় আনিয়াছিলেন, কিন্তু ঈশ্বরচন্দ্ৰ বিদ্যাসাগর মহাশয়ের পরামর্শানুসারে শিবনাথকে হেয়ার স্কুলে ভৰ্ত্তি না করিয়া সংস্কৃত কলেজে ভৰ্ত্তি করিয়া দেওয়া হইল। শিবনাথ আশৈশুবে ঈশ্বরচন্দ্রকে দেখিয়াছেন, এবং বাল্যকাল হইতে বিদ্যাসাগরের বিশেষ প্ৰিয়পাত্র ছিলেন । শিবনাথেরও জ্ঞানোদয় হইতে না হইতে বিদ্যাসাগর তঁহার নিকট এক আদর্শ পুৰুষ হইয়া দাড়াইলেন । যখন বিধবা বিবাহের প্রতিবাদের তুফান বঙ্গদেশে উঠিল তখন শিবনাথের বাসায় লোকেরা বিদ্যাসাগরের সহিত বন্ধুতার খাতিরে অন্তরে বিধবা বিবাহের সমর্থনা করিতে লাগিলেন, শিবনাথও অজ্ঞাতসারে ঐ ভাবাপন্ন হইয়া উঠিলেন। নারী জাতির পরম সুহৃদ শিবনাথ কি বিধবার দুঃখ নিবারণে উদাসীন হইতে পারেন ? সংস্কারক হইবার সাধ শিবনাথের ছিল না । প্ৰাণের আবেগে তিনি বিধবা বিবাহের পৃষ্ঠপোষক হইয়া দাড়াইলেন। ঘটনা চক্ৰে তাহারই বিশেষ চেষ্টা ও আগ্ৰহে। ১৮৬৮ সালে তঁাহার বন্ধু যোগেন্দ্রনাথ বিদ্যাভূষণ বিধবা বিবাহ করিলেন।