পাতা:পণ্ডিত শিবনাথ শাস্ত্রীর জীবনচরিত.pdf/২২৫

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


চতুৰ্দশ অধ্যায়। Sኳ'ጫ আসিয়া কত যুবার জীবনের গতি ফিরিয়া গিয়াছে। তখনকার ছাত্রসমাজের ক্যত সভ্য আজ আমাদের দেশেবা জ্ঞানীগুণী সত্যব্রত লোকদিগেব। অগ্রণী-ক’ত মহামূল্য জীবন ছাত্রসমাজের সংশ্রবে। আসিয়া ব্ৰাহ্মসমাজের কাৰ্য্যে লাগিয়াছে । ছাত্রসমাজের সংশ্রবে। শিবনাথ যে কাৰ্য্য কবিয়াছেন, তব মূল্য নিৰূপণ করা দুৰূহ। র্তাব সেই সময়কণব বক্তৃতা সকল বাঙ্গালাভাষার অমূল্য নিধি। ছাত্রসমাজেব বক্তৃতা-স্থলে শিবনাথ যে সকল বক্তৃতা দিতেন, তাব তুলনা নাই, তাহাতে ভাষা, চিন্তা, ওজস্বিতা, সবস তা, মাধুৰ্য্য যে কত ছিল, তা যাবা না শুনিয়াছেন BBD DB DOLO BBB DBDB DDD S SDDD DDD বক্তৃতায্য শ্ৰোতৃবন্দকে মন্ত্ৰমুগ্ধ করিষা বখিতেন, তারা কখন প্ৰাণে বৈদ্যুতিক শক্তির সঞ্চার অনুভব করিত, কখন চক্ষের জল ফেলিত, কখন অট্টহাসো বিশাল গৃহ নিনাদিত কবিত। আর অনবরত করতালিবনি আব্ব hear hear শব্দ শ্রুত হইত। আজও মনে হয় যেন সেই প্ৰাণ-উন্মাদিনী আবেগময়ী বাণী শুনিতেছি। ছাত্রসমাজেব বক্তৃতামঞ্চে শিবনাথ প্ৰমাণ কবিয়া দিলেন যে তিনি বাঙ্গালা ভাষায় সর্বশ্ৰেষ্ট বক্তা । এমন সারবান DDBBD D DBBDB BDBDB BDB BDBBDBDB S SBDD D DDDBDS শিবনাথ প্রতি সপ্তাহে বক্তৃতা দিতেন বটে। কিন্তু তার জন্য বিশেষভাবে প্ৰস্তুত হইতেন, গভীর চিন্তা কবিয়া মন্তব্য লিখিতেন । এমন সুসংবদ্ধ চিন্তাপুর্ণ বক্তৃতা কি সাময়িক উত্তেজনায় হইতে পারে ? শিবনাথের দায়িত্বজ্ঞান অতিশয় প্রখর ছিল, তিনি লঘুভাবে কোন কাজ করিতে পারিতেন না। কাজেই তার পরিশ্রমের আর অন্তু ছিল না। ছাত্রসমাজ এখনও আছে