পাতা:পণ্ডিত শিবনাথ শাস্ত্রীর জীবনচরিত.pdf/২৯১

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


উনবিংশ অধ্যায়। 88ዓ ছিল। ভগবানের উপর নির্ভর করিয়া থাকিলে কোন অভাব থাকিবে না, এই তার দৃঢ় বিশ্বাস ছিল। যে আলস্যবিহীন হইয়া নিঃস্বাৰ্থভাবে কাৰ্য্য করিবে সে কি কখন ভগবানের রাজ্যে অদ্ভুক্ত থাকিতে পারে ? এই তার হৃদয়ের বিশ্বাস ছিল । সেই বিশ্বাস কাৰ্য্যে পরিণত করিয়া দেখাইলেন । এই আশ্রম প্ৰতিষ্ঠা করিয়া, কি দায়িত্ব কি ব্যয়ভার মস্তক BBBDBD SDDBDSYqDB BBD S YD DBDBS DBD DDD BBBS শিবনাথের ভয় নাই তিনি অকুতোভয়ে, নূতন ভাবে, নূতন উৎসাহে এই কাৰ্য্যে ব্ৰতী হইলেন । স্বতঃই একটী প্রশ্ন মনে উদিত হয় যে, কৰ্ম্মের আবর্তের ভিতর ডুবিয়াও কি জন্য তার মনে অকস্মাৎ দারুণ অতৃপ্তি উপস্থিত হইল ? তিনি যখন “সাধনাশ্রম” প্ৰতিষ্ঠা করেন, তখন ১৪ বৎসর ধরিয়া তিনি কাৰ্য্যনিৰ্বাহক সভার অধীন থাকিয়া ব্ৰাহ্মসমাজের সেবা করিয়াছেন। অন্যান্য সমুদয় প্রচারকের প্রায় কাৰ্য্যনিৰ্বাহক সভার সহিত সংঘর্ষ উপস্থিত হইয়াছে, শিবনাথের অল্প বিস্তর যে হয় নাই, তাহা নহে। কতবার সাধারণ ব্ৰাহ্মসমাজের প্রচার ফাণ্ড হইতে যে যৎসামান্য অর্থ সাহায্য গ্ৰহণ করিতেন, তাহাও ফেলিয়া দিয়াছেন । কাৰ্য্যনিৰ্বাহক সভার সভ্যদিগের সহিত অনেক ঘর্ষণের দৃষ্টান্ত তার ডায়েরির ভিতরই দেখিতে পাই । প্রথমতঃ-ব্ৰাহ্মমিশন প্রেস লইয়া সংঘর্ষ । শিবনাথ বলিলেন সমাজের একটী নিজের প্রেস না হইলে চলিবে না। পূৰ্ব্বে একটা প্রেস করিয়া সুফল হয় নাই, অতএব কাৰ্য্যনিৰ্বাহক সভা কিছুতেই সে প্রস্তাবে রাজি হইলেন না। শিবনাথ