পাতা:পলাতকা-রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.djvu/৯

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


পলাতক। ফাগুন মাসে জাগল পাগল দখিন-হাওয়া, শিউরে ওঠে আকাশ যেন কোন-প্রেমিকের-রঙিন-চিঠি-পাওয়া। শালের বনে ফুলের মাতন হল শুরু, পাতায় পাতায় ঘাসে ঘাসে লাগল কাপন কুরুক্কুরু । হরিণ যে কার উদাস-করা বাণী হঠাৎ কখন শুনতে পেলে আমরা তা কি জানি ! তাই যে কালো চোখের কোণে চাউনি তাহার উতল হল অকারণে ; তাই সে থেকে থেকে হঠাৎ আপন ছায়া দেখে চমকে দাড়ায় বেঁকে । একদা এক বিকাল বেলায় আমলকীবন অধীর যখন ঝিকিমিকি আলোর খেলায়, তপ্ত হাওয়া ব্যথিয়ে ওঠে আমের বোলের বাসে, মাঠের পরে মাঠ হয়ে পার ছুটল হরিণ নিরুদ্দেশের আশে— সম্মুখে তার জীবন মরণ সকল একাকার, অজানিতের ভয় কিছু নেই আর । ভেবেছিলেম, আধার হলে পরে ফিরবে ঘরে Ե