পাতা:প্রবাসী (ঊনত্রিংশ ভাগ, দ্বিতীয় খণ্ড).djvu/৫৭১

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


&8 মতই অজস্র প্রচুর ধারায় প্রবাহিত হইয়াছে; রাসমণির ভালবাসার মধ্যে পিতৃশাসনের দৃঢ়তা ও কঠোর নিয়মান্থবত্তিতা প্রবেশলাভ করিয়াছে। ‘কৰ্ম্মফল গল্পটিতে একদিকে পিতার কঠোর শাসন ও অন্যদিকে মাসীর অস্বাভাবিক ও অচিরস্থায়ী স্নেহাতিশয্য সতীশের জীবনের সমস্ত ছদৈব স্বষ্টি করিয়াছে। অবঙ্গ এই গল্পটি ঠিক বাস্তব অবস্থার অনুগামী বলিয়া ইহার মধ্যে রোমান্সের বৈচিত্র্য ততটা ফুটিয়া উঠে নাই ; আর ইহার শেষ ফল ও চরম পরিণতিও ঠিক প্রাকৃতিক নিয়মের অঙ্কবত্তী । এই শ্রেণীর গল্পের মধ্যে “দিদি"ই সৰ্ব্বাপেক্ষা উল্লেখযোগ্য। ছোট ভাইটিকে লষ্টয় শশিমুখীর স্বামীর সহিত যে "নীরব দ্বন্দ্বের গোপন ঘাত-প্রতিঘাত চলিয়াছে’, তাছা ঘটনাচক্রে একেবারে বিরোধের চরম সীমায় গিয়া পৌঁছিয়া অত্যন্ত তীব্র ও সাংঘাতিক আকার ধারণ করিয়াছে । আবার এই বিরোধ তাহার নবজাগ্রত প্রেমের স্বপ্নের মধ্যে অদৃষ্টের ক্রর পরিহাসের মতই জাসিয়া পড়িয়াছে ও তাহার শাস্ত নীরব সহিষ্ণুতার মধ্যে একটি দারুণ ছব্বিষহত লাভ করিয়াছে । আমাদের সমাজ ও পরিবারের আর একটা দিক আছে যাহা ঔপন্যাসিকের বৈচিত্র্যস্তষ্টির কাজে বিশেষ সহায়তা করিতে পারে—তাহ সাধারণ ব্যবস্থার বিরুদ্ধে ব্যক্তিত্বের বিদ্রোহ। হালদার গোষ্ঠী’ গল্পটিতে এই ব্যক্তিত্বের বিদ্রোহুই প্রধান বর্ণনীয় বস্তু। বনোয়ারীলালের বৃহৎ ব্যক্তিত্ব তাহার পারিবারিক গণ্ডী ছাড়াইয়া অত্যন্ত অসজতরুপ বাড়িয়া উঠিয়াছে, সেইজন্ত তাহার সছিত তাহার পরিবারের সংঘর্ষ অবশুম্ভাবী। কিন্তু ইহার বিশেষত্ব এই যে, এখানে গ্রেমের নিগুঢ় দাবীই বনোয়ারীলালের বিদ্রোহাপ্লিতে ইন্ধন জোগাইয়াছে। সে জমিদার-বংশের বড় ছেলে বলিয়া নহে, তাহার পুরুষকারের স্বাধীন অধিকারের দ্বারাই নিজ স্ত্রী কিরণলেখার চিত্ত জয় করিয়া লইতে চাহে—তাহার বাড়ীর অতি নিয়মিত ব্যবস্থা তাহার প্রেমিক হৃদয়ের পক্ষে যথেষ্ট খোলা ও উদার নহে বলিয়াই বংশপরম্পরাগত প্রথার সহিত তাহার বিরোধের সূত্রপাত। আর তাহার সবচেয়ে বড় ছঃখ এই যে, কিরণও তাহার এই বিশাল প্রেমিক হৃদয়ের কোন সম্মান না রাখিয়া তাহার শক্রদলে যোগ দিয়াছে, তাহার বিরুদ্ধাচারী পরিবারবর্গের সহিত একাত্ম হইয়া মিশিয়া গিয়াছে— প্রেমের স্নিগ্ধরশ্মি পরিবৃত কিরণলেখা হালদার-গোষ্ঠীর बफ़रबो-4ब्र स्प्षा चांचादिनञ्चन निब्राप्इ । oहे शूछ বিরোধ ও অসঙ্গতির কাহিনীটি যেমন স্বল্প অন্তৰ্দ্দটির সহিত বর্ণিত হইয়াছে, বনোয়ারীর চরিত্র-বিশ্লেষণ ও সেইরূপ স্বন্দর হুইয়াছে। প্রবাসী—মাঘ, లిలిమ్రి [ ২৯শ ভাগ, ২য় খণ্ড । ७हे दरलट्ञोब्र¢बङ्ग निcर्कांब, निन्नैौश् निद्रकब्र छिड़ “ঠাকুরদা" গল্পে দেওয়া হইয়াছে। নয়নজোড়ের বাৰু-বংশের শেষ প্রতিনিধি ঠাকুরদাদার বংশাভিমানে এমন একটি করুশ জাত্মপ্রতারণ, মধুর হুষম ও সহজ ভদ্রত আছে যে, ইহা আমাদের বিরোধ ভাবকে মাথা তুলিতে দেয় না। "ঠাকুরদা" গল্পটি কোন, সত্যান্বেষী বাস্তবতাপ্রবণ লেখকের হাতে পড়িলে Thackerayর "Book: of Snohs" একতম অধ্যায়ে পরিণত হইতে পারিত— রবীন্দ্রনাথের গভীর সহকুভূতি ইহাকে একটি করু৭ হস্তিরসে অভিসিঞ্চিত করিয়া স্বন্দর ও রমণীয় করিয়া তুলিয়াছে। কতকগুলি গল্পে আমাদের সমাজের প্রধান কলঙ্ক— বিবাহের অত্যাচার আলোচিত হইয়াছে, যথা, "দেনাপাওনা’, ‘ধজ্ঞেশ্বরের যজ্ঞ’, ‘হৈমন্তী” ইত্যাদি । এই বিষয়ের আলোচনা বাংলা উপন্যাসের একটি অপরিহার্ষ্য অঙ্গ হইয় দাড়াইয়াছে, স্বতরাং এই গল্পগুলিতে রবীন্দ্রনাথ বঙ্গীয় উপন্যাস-সাহিত্যের খুব সাধারণ পথেরই অনুসরণ করিয়াছেন । এখানে লেখক কেবল অবিমিশ্র করুণ রসেরই উদ্রেক করিয়াছেন, কেবল ‘হৈমন্তী" গল্পে হৈমন্তীর চরিত্রাঙ্কনে একটু বিশেষত্ব আছে। মোট কথা . এই শেষোক্ত শ্রেণীর গল্পগুলিতে রবীন্দ্রনাথের মৌলিকত বিশেয বিকশিত হইয়া উঠে নাই । ৩) তৃতীয় পৰ্য্যায়ের গল্পগুলিতে লেখক রোমান্সস্বষ্টির এক অভিনব পন্থা আবিষ্কার করিয়াছেন । ইহাতে রবীন্দ্রনাথের কবিপ্রতিভা ও কৰিমুলভ স্বল্প অস্তুর্গ ষ্টি ঔপস্কাসিকের সহায়তাবিধানে অগ্রসর হইয়াছে। তিনি স্বভাবসিদ্ধ কবিত্ব-শক্তির বলে তাহার স্বই চরিত্রগুলি কাৰ্য্যকলাপ বা চিন্তাধারার সহিত বিশাল বহিঃপ্রকৃতির একটি নিগূঢ় সম্বন্ধ স্থাপন করিয়া অতি সাধারণ তুচ্ছ ঘটনাবলীরও আশ্চর্ধ্যরূপ রূপান্তর সাধন করিয়াছেন। নিতান্ত অনায়াসে সামান্ত গুই একটি রেখাপাতের স্বারা তিনি মানব-মনের সহিত বহিঃপ্রকৃতির অন্তরঙ্গ পরিচয়ের সিংহদ্বারটি খুলিয়া দিয়াছেন–র্তাহার তুচ্ছ গ্রাম্য কাহিনীগুলি ও প্রকৃতির স্বৰ্য্যচন্দ্রনক্ষত্রখচিত চন্দ্রাতপের তলে, তাহার আভাস ইঞ্জিত আহবান বিজড়িত রহস্যময় আকাশ-বাতাসের মধ্যে এক অপরূপ গৌরবমণ্ডিত হইয়। উঠিয়াছে । - আমরা পূর্বেই কতকগুলি গল্পের মধ্যে এই বিশেষত্ব লক্ষ্য করিয়াছি । কিন্তু কতকগুলি গল্প একেবারে আদ্যোপান্ত প্রকৃতির সহিত এই নিগুঢ় সম্পর্কের উপর প্রতিষ্ঠিত । “স্বভা’ নামক গল্পটি মূক বালিকার সহিত মৌন বিরাট প্রকৃতির নিগূঢ় ঐক্যের পরিচয়ে আগাগোড় পরিপূর্ণ। অতিথি’ গল্পটি রবীন্দ্রনাথের এই ক্ষমতার