পাতা:প্রবাসী (পঞ্চম ভাগ).djvu/৩৭২

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


P

s q€షి -- - SSMSSSMSSSMSSSMSSSMSSSMSSSMSS S S S ------ আজ্ঞায় অকাতরে জীবনদান, সৌন্দৰ্য্যজ্ঞান, শিল্প এই জাতির বিশেষত্ব-প্রকৃতির পূজা সকলেরই মূলে । জগতে যদি কোন জাতি প্রকৃত প্রকৃতির উপাসক থাকে তবে সেই জাতি জাপানী জাতি । জাপালুর বসন্তোৎসব যিনি দেখিয়াছেন তিনি ধন্ত হইয়াছেন এবং জানিয়াছেন লীলাময়ী প্রকৃতির হাস্তবদন কত মধুর, কত মুন্দর। জ্বনৈক জাপান-প্রবাসী ভারতবাসী । - গোয়ালিয়রে চাষের সুবিধা | মাপ্তবরেষু—

  • ১) “প্রবাসীর সম্পাদক মহাশয়! গত অগ্রহারণ মাসে আমার প্রবন্ধটা প্রকাশিত হওয়ার পর আমি অনেক ভদ্রলোকের চিঠির উত্তর দেওয়া সত্ত্বেও সমস্ত কথা বলিয়া উঠতে পারি নাই। সেই জন্তই আপনাকে পুনরায় বিরক্ত করিতে সাহসী হইয়াছি। আশা করি আপনার পত্রিকায় নিম্নলিখিত বিষয় কয়েকটা প্রকাশ করিয়া বাধিত করিবেন। আমার আস্তরিক বিশ্বাস যে আমি অনেকের উপকারের জল্পই লিখিব, কেন না আমি তাছাদের ভালবাসি ও শ্রদ্ধা করি। কিন্তু দুই একটী কটু কথাও বন্ধুবান্ধবকে সময় সময় বলিতে হয় । ভজষ্ঠ পুনরায় প্রথমেষ্ট ক্ষমা চাহিতেছি। (২) আমাদের"প্রবাসীতে”গত বৎসর পৌষমাসে“লাহেন্দ্র যোগ” নামক প্রবন্ধ প্রকাশিত হওয়ার পর হইতে আঞ্জ পৰ্য্যস্ত আমি ৪৩৭ খানি চিঠি পাইয়াছি। এক এক পানি পত্র ৩৪ পৃষ্ঠা ব্যাপীও ছিল। কিন্তু সেগুলি এত নিরাশজনক যে তদ্রুপ দু’তিন খানি চিঠি আমি পড়িয়া পাছে আমিও কধ্যে পশ্চাৎপদ হই,এই আশঙ্কায় সেগুলি পডিবমার ছিড়িয়া ফেলিয়াছি। অনেক চিঠির আভাস বোধ হয় পূৰ্ব্ব পদেষ্ট পাইয়াছেন। কিন্তু অনেকগুলি প্রশ্ন থাগ “আমি কখনও সংগত মনে করি নাই এখন অনেকে সেই এক প্রশ্ন জিজ্ঞাস করায় সংক্ষেপে তাঁহাদের এবং অন্যান্ত প্রশ্নের উত্তর দিতে চেষ্টা করিব । - Af (৩) ধূলিয়া রাখা ভাল আজ কয়দিন হইল ঐ ৫৩৭ জন পরপ্রেরকের মধ্যে মোটে একজন ভদ্রলোক ত্রযুক্ত বাবু রবীন্দ্রনাথ য়ার মহাশয় আমার এখানে আসিয়া স্বচক্ষে এখীন

প্রবাসী ।


৫ম ভাগ । --- -- - - -------> --Info-farmerBot (আলাপ) ১৪:৩৪, ২১ মে ২০১৬ (ইউটিসি)" যাহাই কার সমস্ত ব্যাপার দেখিয়া গিয়াছেন ও তিনি সমস্ত fಇಡ್ಮ এরূপ সন্তোষলাভ করিয়াছেন যে ‘আমার লিখিত একটা প্রবন্ধ বেঙ্গলীতে ছাপাইবার জন্ত বসিয়া থাকিয় লিথিয়া লষ্টয়াছেন ও এখানকার আটর নমুনা (sample of soil) ও বিন জল সিঞ্চলে এখানে যেরূপ উৎকৃষ্ট গোধু হইয়াছে তাহার নমুনাও সঙ্গে লইয়া গিয়াছেন ও তিনি ১৭নং কলেজ ষ্ট্রীট, কলিকাতায় গোয়ালঘরে চাষের সুবিধ বিষয়ে প্রশ্নকর্তাদিগের সহিত সাক্ষাৎ করিয়া তাহাদিগকে বুঝাইয়া দিতে প্রতিশ্রত হইয়াছেন। সুতরাং আমাদের দেশবাসী বুদ্ধগণ তাহার নিকট হইতে বিস্তর বিষয়ের সৎপরামর্শ পাইবেল বলিয়া আমার বিশ্বাস । - (৪) দুইবার আপনার পত্রিকায় প্রবন্ধ বাহ্য়ি হওয়ায় অনেকেই মনে করিয়াছেন যে এখানে যোধ হয় আর স্থানাভাবের বেশী দেরী নাই, বোধ হয় তাহাদের পত্র আমার নিকট আদিতে মা আসিতেই আমাদের প্রশ্নকারী বন্ধুগণ সমস্ত জমি বঁটিয়া লইয়াছেন। আমি বিবেচনা করি তাহাদিগের এই ভ্রম দূর করাই আমার প্রধান কৰ্ত্তব্য কৰ্ম্ম। এ বিষয়ে আসি বলিতে চাই যে এই জেলায় পনের লক্ষ বিঘা জৰ্মা আবাদের নিমিত্ত ছিল, এখন মোটে একলক্ষ বিবাৰিলি হইয়াছে। চতুর্দশ লক্ষ বিঘা বাকী আছে। সুতরাং তাহাদিগকে নিরাশ হইতে হইবে না। তবে সৎকার্য শীঘ্র করাই ভাল। মধ্য প্রদেশের মালনীয় জি, এম, চিটুলবাস হাশয় এখানে আসিয়L১ লক্ষ বিঘা জমী লষ্টতে চাহিতেছেন। তিনি যদি দয়া করেন, তাহা হইলে আমরা অনেক ভাল ভাল স্থান আর অত সুবিধামত পাইব না। ইচা আমাদের চিন্তার বিষয় বটে। এক চকে (plot) ১•• হইতে দশ সহস্ৰ বিঘা পৰ্যন্ত পাইতে পারা বায় । - এখানে নদীতীরবর্তী ও তালাবের (natural tanks or lakes) অথবা রেলওয়ে ষ্টেসনের নিকটবর্তী স্থানও অনেক পাওয়া যাইতে পালে । পয়ঃপ্রণালী দ্বারা জল অনায়াসে সেচল করিতে পারা যায়। এক জোড় বলম্বে ১৫ হইতে ২৫ বিঘা পর্যাস্ত আবাপ হইতে পারে ( অবশ্ব জুই ফসলে) ; তবে নুতন মৃত্তিকায় অন্ত হয় না। জবির পত্তন জন্ত কোনরূপ সেলাগি বা নজরান দিতে হর না। তবে গ্রাম অর্থাৎ যেখানে লোকের বসতি সে স্থানে ইঞ্জিল দ্বারা ও t 3. ১২শ সংখ্যা । ] SS S SSSM MM MM S বিদ্যমান আছে ঐন্ধুপ লাভজনক স্থান লইতে হইলে নজর দিতে হয়। সাড়োরার রাজকর ১,৩৪৪ টাকা, আয় ২,১০০ টাকা। সুতরাং g টাকা বাৎসরিক আয়ের সম্পত্তিতে আমাকে মোট ১,১২৮ টাকা দিতে হইবে। অবশ্ব ইচ্ছামত এরূপ গ্রাম পাওয়া যায় না সত্য, কিন্তু কিছু টাকা ব্যয় করিলে অমুপাতিক লাভ হইতে পারে তাহাতে আর সন্দেহ নাই। যতদিন রাজকর (revenue) বন্ধ না করিবেন ততদিন বংশানুক্রমে সেই সমস্ত স্থান মুখে ভোগদখল করিতে পাইবেন । এমন কি রাজকর বন্ধ করিলেও কিছুদিন স্বত্ব হইতে বঞ্চিত হইতে হয় না এবং বন্দোবস্তের সময়ে প্রারই পুরাতন জমিদারকে পদচ্যুত করা হয় না ও তাহার বিক্রর ও রেহেনের সম্পূর্ণ অধিকার থাকে । সে বনোবস্ত অনুযায়ী মোট গ্রামের আমদানির শতকরা ৪০ হইতে ৫ • তাহারলাভাংশ স্বরূপ সরকার হইতেই পায়; তবে খাজনার শতকরা ২৫এর কম কখনও পায় না । এক বন্দোবস্ত ও অন্ত বন্দোবস্তের মধ্যে যদি কেহ পতিত জৰ্মা আবাদ করে তাহাতে শেষোক্ত বন্দোবস্তেও বেশ হারে মাপ পার এবং ঐ মধ্যবৰ্ত্তী সময়ে তাহাকে ঐ আবাদি জমীৰ জন্য কিছুই দিতে হয় না। ইহা সমস্তই জীদারের লাভ। সুতরাং যে গ্রামখানির রাজকর ১,৫০০ টাকা তাহার জমাদারের নিতান্ত কম পক্ষেও ৫•• শত টাকা অীয়। আমরা চাষা, ও এখানে চাষ ੋਡ আসিয়াড়ি। আমাদের কৃষিজনিত লাভ ব্যতীত ঐক্লপ বৎসরে একটা আমদানি নেহাৎ অগ্রাহ করিযায় বিষয় নহে । অনেক গ্রামে এখন লোকসানা আছে যাহাতে সামান্য অর্থব্যয় করিলে সমস্ত আবাদ হইতে পারে ও একটা একটি চিরস্থায়ী লাভজনক সম্পত্ত্বি হইতে পারে। আমার একান্ত বাসন৷ যে আমাদের দেশয় ভদ্রসস্তানগণ এবিষয়ে যথার্থ মনোযোগ করিয়া দেশের স্ত্রীবৃদ্ধি করিতে ঋতুপর হইবেন । তাহদের । যদি "চাষ" বলিয়া পরিচয় দিতে লজ্জা হয়, না হয় তাহার আমার নিৰ্দ্দিষ্ট উপায়ে জমাদার ( বা Landlord ) বলিয়া • পরিচয় দিবেন ; ও ইহাতে বোধ হয় আপত্তি করিবেন না। এখানকার সমস্ত বিষয় জ্ঞাত হইলে বুঝিবেন যে, আমি পাঠককে চাকরিচ্যুত করিয়া বিপন্ন কঝুিতছি না। কোন বন্ধুবর প্রকারান্তরে জানিতে চাহিয়াছেন আমি দালাল কি না। তদুত্তরে আমি লিখিতে পারি যে আমি দালাল নহি এবং - i __ - গোয়ালিয়রে চাষের সুবিধা । SMMS MSMSMMS SMMMS SSSSSSS SSAAAS - SAAAAAA S ভরসা করি প্রবাসীর সম্পাদক মহাশয় আমায় এতদ্বিষয়ে জামিন হইতে প্রস্তুত আছেন । তবে এই মাত্র দালালি । লষ্টৰ বলিয়া আমার সংকল্প যে অন্ততঃ এ ধর ਕਸੀਜਾ এখানে আনিয় তাহদের সংস্পর্শে থাকিয়া জীবন স্বথে অতিবাহিত করব। পাঠক শুনিয়া সুখী হইবেন যে এখন এখানে আমরা ছয় ঘর বাঙ্গালী হইয়াছি। . জামিন দিয়া টাকার বিষয়ে এই মাত্র বলা যাইতে পারে যে দ্ব চারি জন বিশিষ্ট ভদ্রসন্তান পরস্পর পরস্পরের জামিনও । হইতে পারেন। তবে ত্যহাদের বলদ ইত্যাদি ক্রর কিম্বা অদ্য উপায় দ্বারা প্রমাণ করিতে হুইবে যে তাহারা টাকা কোন প্রকারে আত্মসাৎ করিবেল না। জী আবাদ করিয়া প্রজাবিলি করিতে পারেন। তাহাতে কাহারও আপত্তি নাই। বৎসরে দ্বট ফসল জমীতে হইতে পারে কিন্তু ইহা জলের সাপেক্ষ । উৎপন্ন দ্রব্যের কাটতির জন্য কিছু মাত্র চিস্তা করিতে হইবে মা। সহস্ৰ সহস্ৰ গোপকটে মাল ক্রর করিয়া ব্যবসাগরের - প্রত্যেক পল্লি হইতে সহরে মাল সরবরাহ করিতেছে। હ সব বিষয় দেখিলে আরো ভাল ধারণা হইবে। অনেকেই কত মূলধনু লইয়া কার্যে প্রবৃত্ত হইতে পারেন এ বিষয় প্রশ্ন করিয়াছেন । প্রশ্নটি অত্যন্ত প্রয়োজনীয় বটে কিন্তু ইহা কিছু অনিশ্চিত অর্থাৎ বিলি যত ধন চাহেন, - তাহাকে তত বেশ অর্থ মূলধন স্বরূপ লইতে হইবে। তবে । সাধারণের অবগতির নিমিত্ত এষ্টিমেন্টু দিলাম। যদি নিতান্ত । পুরাতন প্রথানুসারে ৪ কেহ সাধারণ শস্ত অর্থাৎ গোধুম ইত্যাদি অ্যবাদ করেন তবে আমার মতে ১•• বিঘাম্ব { অর্থাৎ বাঙ্গালার ১৫• বিঘায় ) ৬•• টকা খরচ হর এবং প্রার ৮৫০ টাকা উৎপন্ন হইতে পারে অর্থাৎ মাসিক প্রায় । ২২ আয় হইতে পারে। কিম্বা ২৫. টাকা ব্যয় করিলে । প্রায় মাসিক ১০০ টাকা আয় হইতে পারে। তবে ইহা সমস্তই শ্রমসাপেক্ষ। শ্রম করলে নিশ্চয় অধিক উৎপন্ন - হইবে। চাকরি অপেক্ষ ৰুবিকায্যে কম পরিশ্রম ইহা যেন কদাচ কেহ মনে করেন না। তবে এই জন্তই চাকরি হইতে কুবি শ্রেষ্ঠ যে ইহা স্বাধীন এবং বুদ্ধি বিবেচনাপূর্বক" যেক্ট খাটিলে তৎক্ষণাৎ বেশ লাভ হইবে । চাকরিতে প্রায় রাত্রি দশটা পৰ্য্যন্ত খাটিলেও ২-২ টাকা হইতে ২১ টাকা - ৭৩৩ - -