পাতা:প্রবাসী (সপ্তদশ ভাগ, প্রথম খণ্ড).pdf/৩০

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


মহিমা প্রভৃতির ও আপনার দীনতা নিকৃষ্টতা ত্তির অনুভব, তিনি ভিন্ন আমার গতি নাই এই বিশ্বাস, উহার চরণে আত্মসমর্পণ,-এই সকল লক্ষণযুক্ত লঙ্ক মনুরাগ শ্ৰীমদ্ভাগৰতাদি ভক্তিশাস্ত্রে ভক্তি কথাটি এই অর্থে ব্যবহৃত হইয়াছে ও বর্তমান বাংলা তওঁ এই অর্থই প্রচলিত। ই একান্ত অনুরাগ, যখন সাধকের আত্মদানের কুলভাও ভগবানের স্পৰ্শলাভের জন্ত কাতরতার পনাকে প্রকাশ করে, তখন ইঙ্গ মানবহৃদয়ের স্বীয় কি পুঞ্জ বস্তু বলিয়া প্রতিভাত হয় ! রয়ে সকল উক্তিতে এই কাতরতার আভাস ৰায়, পাঠকের চিত্ত্বকে তাই থিত, | ಸ বৃদ্ধিৰ প্রেমের ফাগি, 鐵1、* - सिंक४श्लम प्रभो। तिप्लाष्ट्रिशझि यठिन छूवप्न জার মোর কেছ আছে; স্বাধী বলিকেই --মুধাইতে নাই

  • াড়াৰ কাহার কাছে ?

গভীর আবার গোবিন্দদাদের একটি পদে গ্ৰাহ পন্থ অরুণচরণ চলি যাত। ক্টাহা ওঁহো ধরণী হইএমধু গাত । . পশু য়ে সরোবরে পন্থ নির্তি নিতি নাহ। স্থমভরি সলিল হেই তথি মাছ ? - گستے ফুটিয়া উঠিয়াছে ! এই উক্তির মধ্যে আত্মদানের ব্যাকুলত৷ BB BBBBB BB BBBB BB BB BB BB BBB TTTBBB BBBB BBBB BBB BBB চলিয়া যাইতেছে, আমার দেহ সেই সেই স্থানের মৃত্তিকায় করিয়াছিলেন। পরিণত হউক ; যে সরোবরে প্রভু প্রতিদিন স্নান করেন, ঃ - DBB BBB BBB SBB BBBBS BBB BBB BB BBBBBB BBBB BBBBB কথোপকথনে ভক্তিসাধনে হইতে উত্তীর্ণ হয়, ও আমাতে পর ভক্তি লাভ করে। এ কল্পি-প্রস্তুর পর্ণলাভের কাতরত DD BBBB BBBS BBBB BBSBBBB BB BBB BB BB BBBS এত যে ব্যাকুলত, এত g কাতরত, ইহাও ভক্তির নির্দেশ করিয়া বল ;– ' s [ ১৭শ ভাগ, ১ম খণ্ড ১ম সংখ্যা] se छोंद 6£छ ബ - - o יי יייה శ్రీ ാ ഹാ :تعلنهايتين للاتينية リ。 so ব্যৱহৃত ইইয়াছে। দ্বিতীয় অর্থ, ওঁগার্সের সাধককে তৃপ্ত করিতে পারিল না! ঐচৈতন্যদেব ও তাহার :*##: ಙ ಇಳ್ದ সদিগণ ভক্তির সাধনায় ইহার অতিরিক্ত আরও কিছু রার কহেশ্বধৰ্ম্মাচরণে বিষ্ণুভক্তি হয়। চাহিয়াছেন। তাছাদের মতে ভক্তির পরিণতি প্রেমে। ভক্তিতে শুধু উপাসক ব্যাকুল, গ্রেমেতে উপাসক ও উপাসা উভয়ে পরপরের জন্য ব্যাকুল। ভক্তি আপনাকে দিয়াই ; তৃপ্তিলাভ করে ; কিন্তু প্রেমের স্বভাব এই যে, সে বুঝিতে চায়, সে তার প্রেমাপদের জন্য যত আকুল, তার প্রেমাম্পদও তার জন্য ততই আকুল। প্রেম যদি বুঝিতে । পারে, যে, তার প্রেমাম্পদের তাহাকে ন হইলেও চলে, তবে সে ক্ষুণ্ণ হয় ; কিন্তু ভক্তি তাহার আরাধকে ন পাইলেক্ট্র অভিমান করে না, পুনরায় তপস্তায় নিযুক্ত হয়। বাংলার আধুনিক কবিদের মধ্যে একজন দেখাইয়াছেন, আসক্তি o বিহীন সংযত বিশুদ্ধ মানবীয় প্রেম ভক্তির আকার ধারণ করে, ও জীবনকে দেবপূজায় পরিণত করে "পবিত্র পরশে যায়, মলিন হৃদয় আপনাতে-প্রতিষ্ঠিত করে দেবালয়, ভকতি-বিহ্বল, প্রিয় দেব-প্রতিমারে সন্তোযুসাধন হয়। এ আদর্শ বিষ্ণুপুরাণ ও গীতা উভয় গ্রন্থেই দেখিতে পাওয়া যায়। চৈতন্তদেব বলিলেন, এ বড় ৰাছিরের কথা বলা হইল, ইহার অপেক্ষ শ্রেষ্ঠ কিছু বল :প্রভু কহে, এই বাঞ্চ, আগে কহু অ্যর ; -- রায় কহে, কৃষ্ণে কৰ্ম্মার্পণ সৰ্ব্বসাধাসার। এখাধে বলা হইল, বর্ণাশ্রমবিহিত কৰ্ম্ম করিয়াই চল ; কিন্তু গীতার উপদেশ অনুসরণ করিয়া সকল কৰ্ম্ম ভগ্নবাকে অর্পণ কর। চৈতন্যদেব এই আদর্শেও তৃপ্ত হইলেন না - প্রভু কহে, এই বাহ, আগে কহ আর ; রায় কহে, স্বধৰ্ম্মত্যাগ এই সাধাসায় । গীতায় শ্ৰীকৃষ্ণ অর্জুনকে বলিতেছেন, শাস্ত্রাদিতে তোমার জন্য ধৰ্ম্ম বলিয়া যাহা যাহা নির্দিষ্ট রহিয়াছে, সেসকলের চিন্ত পরিত্যাগ করিয়া শুধু আমার শরণ লও ; সে প্ৰণমিয়া দূরে রহে, মারে দুইবারে। , স্বৰূল পরিত্যাগ করার যে পাপ, তা হইতে আমি তোমাকে { জালো ও ছায় ] মুক্ত করিয়া দিব, তুমি পরিতাপ করিও না। রায় রামাননা SBBBBBBBBBB BBBB BBBB BBS BS BBS BBB BBBB BBBB DB uBBB DDD DD S DDBB BB BBBB BB BBBB BB BBB BBS BBB BBBBBS DDD পূৰ্ব্বে যে দুই সাধা নির্দেশ করিয়াতত্ত্বটি কবি রবীন্দ্রনাথের ‘গীতাঞ্জলির অনেক সঙ্গীতেই মুর ছিলেন, তাহাতে ভগবানের শরণ লওরাও ছিল না; তাই দিয়াছে,— জুই অপেক্ষা এই আদর্শ উচ্চ। কিন্তু ইহাতেও অন্য উদেঙ্গ রহিয়াছে, সে উদেখা পাপমুক্তি, অর্থাৎ বেদবিহিত ও বর্ণাশ্রমবিহিত স্বধৰ্ম্ম ত্যাগ করার অপরাধ হইতে মুক্তি। অহৈতুক অনুরাগ এখনও অনেক দূরে। তাই চৈতন্তদেব স্বলিলেন, এখনও বাহিরের কথাই বলিতেছ : প্রভু কহে, এই বাহ, আগে কহ আর ; রার কছে জ্ঞানমিস্র ভক্তি সাধাগার। এখানে জ্ঞান অর্থে 'সৰ্ব্বং খন্বিদং ব্ৰহ্ম’ এই জ্ঞান বুঝিতে হইবে। গীতার শ্ৰীকৃষ্ণ বলিতেছেন, জ্ঞানের দ্বারা, অর্থাৎ BBBBS BBB BB BBBBB BBS BBBS BBB BB তাই ত তুমি রাজার রাজা হয়ে তবু আমার হৃদয় লাগি ক্ৰিয়চ কত মনোহরণ লেশে, - এছু নিত্য জাছ জাগি।', ভক্তিকে এই প্রেমের পদবীতে পৌঁছিয়া দিবার জন্যই বৈষ্ণবশাস্ত্রে নারী ও পুরুষের প্রীতির রূপক ব্যবহার করা হইয়াছে। এ সম্বন্ধে উভয়ে উভয়ের জন্ত সমান আকুল । চৈতন্যচরিতামৃতের~প্রধালীলার অষ্টম সাধনার লক্ষস্থানে পাপমুক্তি না থাকিলেও রাগদ্বেষাদির ক্ত হইবার জন্ত যত্ন রহিয়াছে; ইহাও অহৈতুক নয়। প্তাক্ট চৈতন্যদেব বলিলেন, ইছাও বাহিরের কথা হইল – চৈতন্যদেব রায় রামানন্দকে বলিলেন, কি সাধনীয়, তাহ вантамі цінамву3 і 43 а এখানে রায় রামানন্দ বলিলেন, বর্ণাশ্রম-ধৰ্ম্মানু্যায়ী নিজ । নিজ নির্দিষ্ট কৰ্ম্ম করিয়া গেলেই বিষ্ণুভক্তি অর্থাৎ ভগবানের রায় কহে, জ্ঞানশূঙ্গ হুক্তি সাধ্যগায়। - এই আদর্শটি জীবভাগবত হইতে গৃহীত। জ্ঞানঃ যাহার লক্ষ্য নয়, যে শুধু শ্রবণ ও কায়মনোবাক্যের প্রক্তি দ্বারা ভগৱানকে চায়, সে নিশ্চয়ই তাহকে লাভ করে। এ সাধনে অল্প কোনও উদেহ নাই, এসার অহৈতুকীঃ এবার চৈতন্তদেব বলিলেন, ইহাকে সাধা বলির স্বীকার যায়, কিন্তু এ বিষয়ে আরওৱলঃ- _o -- প্রভু কহে, এছ হয়, আল্প কছু জাক্স : রাষ্ট্র কছে, প্রেয়ভক্তি সূৰ্ব্বসাধ্যগায়। প্রেমভক্তি অর্থাৎ অনুরাগপূৰ্ব্বক ভজন রায় নিজেই স্বরচিত একটি শ্লোকে এ মাদর্শকে আজও করিয়াছেন। তিনি বলিয়াছেন, ভগব্যক্তিরসে সৰ্বদ ক্রর কর, যদি পার। তাই ক্রয় করিবার পক্ষে এ প্রেমই মূল্য।’ এবারকার উত্তরে রায় রামানন্দ অজুরাগের কথা স্পষ্ট করিয়া বলিয়াছেন । ঐ সাধনে ক্ষম্ভ কোনও লক্ষ নাই, অহৈতুক অনুরাগই সাধন। কিন্তু অহৈতুক বলিলে ঃে একটি অভাবাত্মক লক্ষণমাত্র নির্দেশ করা হয় । প্রেশ্নের লক্ষণ আরও শুনিতে চান বলিয়া চৈতন্যদেব রামানজকে বলিতেছেন, আরো কিছু বল :- o প্রভু কছে, এছোঁ ছয় জাগোন্ধস্থ স্থা ; রায় কছে, স্বাস্তপ্রেম সৰ্ব্বগাথাগার। o প্রেমের একটি লক্ষণ এই যে সে প্রেমাম্পদের সম্বন্ধের মধ্য দিয়া আপনাকে চরিতার্থ কল্লিতে চায় রামান রায়, তাই বলিলেন, ভগবানকে প্রভুরূপে আপনাকে ভূতারূপে দেখিয়া ভগবানে শ্বে ঐতি স্ত সাধন। কিন্তু প্রেমের আর একটি লক্ষণ এই যে সে নিজ ছেন, আরো গভীর স্থানের কথা বল : প্রভু কহে, এছো হয়, জাগে কহ জাষ্ট্র রায় কহে, মথ্যপ্রেৰ সৰ্ব্বস্থাস্থ্যস্নার। সখ্যে প্রেমের আরও একটি লক্ষণ পাওয়া গেল, তাই নিজ সঙ্গ। কিন্তু ভক্ত শুধু ভগবানের সঙ্গই চাছে না, তিনি তদগন্তপ্রাণ, তদপিতজীবন হইতে চাহেন। ভগবান ভিন্ন। তাহার জীবনের লক্ষাদুপ্ত স্থা কিছু নাই। এই ভাটিয়ু ।