পাতা:প্রভাতকুমার মুখোপাধ্যায়ের গল্পসমগ্র.djvu/১১৯৯

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


যদি ও মারবে তা হলে স্মী হয়ে জন্মাবার কি দরকার ছিল ? অন্য যে কেউ ত—” বাবাজী বলিলেন, “এ ত সে কুকুর বলেনি, বলেছেন বাবা বটকেভৈরব, দেবতার লীলা কি সহজে বোধগম্য হয় ? বোধ হয়, এর মীমাংসা এই—ও সব কাজে সীর যেমন সুযোগ হবে, তেমন আর কার ?” নরহরি বলিল, “হ্যাঁ, তা বটে!” বাবাজী প্রসন্ন হইয় বলিলেন, "এ বিষয়ে প্রমাণ যদি পাও তা হলে বিশ্বাস হবে ত?” নরহার বলিল, “আপনার দয়া ।” বাবাজী তাহাকে এক টুকরা কাগজ দিয়া বলিলেন, “তোমার স্ত্রীর নামটি এতে লেখ ।” - - বাবাজী লিখিত কাগজখানি ফেরত লইয়া কুসুমকুমারী নামের ২য়, ৩য় ও ৫ম অক্ষর কাটিয়া, সেটি নরহরির হাতে দিয়া বলিলেন, “পড়।” নরহরি পড়িল—‘কুকুরী । তাহার গা শিহরিয়া উঠিল। নিবাক বিস্ময়ে সে সতবধ হইয়া রহিল। বাবাজী বলিলেন, “আরও প্রমাণ আছে। রোজ রাত্রে তুমি ঘমেলে, কুকুরের যা স্বধৰ্ম্মম –তোমার সত্ৰী তোমার পিঠ চাটে । কোনও দিন জানতে পারনি কি ?” “আজ্ঞে না। আমার ঘুমটা খুব গভীর হয় ।” “আচ্ছা, একদিন ঘুমের ভাণ করে পিছন ফিরে শয়ে থেক। তা হলেই দেখতে পাবে।” নরহরি বিদায় গ্রহণ করিল। মেলার কোনও তামাসা দেখা আর তাহার ভাল লাগিল না। তারকেশ্বরে থাকিতেই আর ভাল লাগিল না। পরদিন ঠানদি, খড়ীমা ও জোঠাইমার বিস্তর প্রতিবাদ সত্ত্বেও সকলকে লইয়া নরহরি বাড়ী ফিরিল। সেইদিন সন্ধ্যার পর সীতানাথ দত্তের তারকেশ্বরের বাসায় শিবনাথ তাস খেলিতে আসিল । সীতানাথ জিজ্ঞাসা করিলেন, “কি হল হে, শিব ?” শিবনাথ হাসিয়া বলিল, “পরামশ যেমন যেমন হয়েছিল, ঠিক সেই রকমই বলেছি। কিন্তু দাদা, যাই বল, ছড়িটাকে যখন বললাম তোমার হাজবাণ্ড আর জন্মে বাগদী ছিল, তখন তার মুখখনি এমন সরোফল হয়ে গেল যে দেখে আমার ভারী দুঃখ হতে লাগলো। ভাবলাম, দর হোক, গে, কথাটা পালেট নিই ;–অনেক কটে নিজেকে সামলেছিলাম।” সীতানাথ জিজ্ঞাসা করিলেন, “আর মিনষেটা ?” মিনষেটার প্রাণে বড় ফিয়ার হয়েছে। সত্ৰী বিষ খাওয়াবে, সোজা কথা ?” বেণী বসু বলিলেন, “কিন্তু বন্ধিটে খুব বের করেছিলে ভায়া। হাঃ হাঃ–একজন ছিল কুকুরী, একজন নদন বওয়া মটে! বাসতবিক তোমার বৃদ্ধির তারিফ করতে হয়।” শিব বলিল, “আমরা হলাম ক্যালকাটাস সন--আমাদের হাড়ে ভেকেী খেলে!” সকলে হাঃ হাঃ করিয়া হাসিতে লাগিলেন। সীতানাথ বলিলেন, “সাজগোজটিও তোমার চমৎকার হচ্ছে। আচ্ছা ঐ দিনে কত টাকা রোজগার হ’ল ?” শিব বলিল, “ও দিকে ডেলি ২৫।৩o৪০ টাকা পযর্ণন্ত হচ্ছিল। এখন রুমেই - কিন্তু কমছে। মেলা ত প্রায় ফিনিশ হয়ে এল কি না। লোক আর তেমন কই?" তাহার পর তাসখেলা আরম্ভ হইল। সাত সেদিন নরহরির বাড়ী পেপছিতে সন্ধ্যা হইল। সমস্ত দিন আহার হয় নাই-- কুসম তাড়াতাড়ি গ্য ধইয়া আসিয়া আলভাতে ভাত চড়াইয়া দিল। আহারের সময় নরহরির মনে হইতে লাগিল, সে যেন কুকুরের ছোঁয়া ভাত খাইতেছে। খাইয়া তৃপ্তি হইল না ; “ཨརྱ་ཝཱ་ཙ༦ পারিল না ; অন্ধেক পতে ফেলিয়া উঠিয়া পড়িল। - -- سرارنا