পাতা:প্রভাতকুমার মুখোপাধ্যায়ের গল্পসমগ্র.djvu/২৭০

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


অবিনাশবাব ক্ষণকাল নীরব থাকিয়া বলিলেন, “আর বলেছি, গিরীশ ঘোষের প্রফুল্ল নাটকের পর, এ রকম ভাল গাহসিথ্য নাটক বাঙ্গালা সাহিত্যে আর জন্মায়নি। তা সতি্যু কথা ষা, তাই বলেছি। তাতে দোষটাই বা কি হয়েছে, আর রাগে তুমি ভুরকুই বা কোঁচকাচ্ছ কেন ?" সষমা বলিল, ”আচ্ছা, সত্যি হোক মিথ্যে হোক তুমি ঘরের কথা বাইরে প্রকাশ কর কেন বল দেখি ? এটা কিন্তু তোমার একটা রোগ-তা তুমি যাই বল। আমি গোপনে একটা ছেলেমানুষী করলাম,—শুধু তুমি জানলে আর আমি জানলাম। তাই নিয়ে কি বাইরে ঢাক পিটোতে হয় ?” “ঢাক আমি না পিটোলে ঢাক যে আপনি পিটে যাবে বউ ! তার উপায় কি বল ?” “ঢাক আপনি পিটবে কেন ?” “বই ছাপাতে হবে না ?” "কেন, আবার কিছু লোকসান দেবার ইচ্ছা হয়েছে ? বিয়ের অলপদিন পরেই কত খরচপত্র করে আমার কবিতার বই ছাপিয়ে ছিলে। বিক্ৰী হল ? তারপর আমায় অনরাপা নিরুপমা বানাবার চেষ্টায় দিলে আমায় উপন্যাস-কলেজে ভত্তি করে। কলেজ থেকে বেরিয়ে ক্ৰমাগত বলতে লাগলে, একখানা উপন্যাস লেখ উপন্যাস লেখা কি করি, তোমার পীড়াপীড়িতে উপন্যাস লিখলাম। তাও ছাপালে গ্রন্থ হল নগদ মুল্য এক টাকা। কোনও রকমে খরচটা উঠে গিয়েছিল—আর বিক্ৰী হয়? যে প্রথম সংস্করণ সেই প্রথম সংস্করণেই মা আমার বিরাজ করছেন ত!” ঝি অবিনাশবাবর গড়গড়ি প্রস্তুত করিয়া আনিয়া দিল। অবিনাশবাব ধমপান করতে করিতে বলিলেন, “প্রেমের ইন্দ্রজাল বেরলে হয়ত প্রথমটা তেমন বিক্ৰী নাও হতে পারে, কিন্তু থিয়েটারে যখন প্লে হতে আরম্ভ হবে—তখন হরহ করে বিক্ৰী হতে থাকবে - যে, এডিশনের পর এডিশন উড়ে যাবে—তা জান ?” সষমা বলিল, “থিয়েটারে প্লে হলে ত?” “ষত সব রাবিশ নাটক প্লে হচ্চে, আর তোমার নাটক প্লে হবে না ?” “আমার নাটক ষে রাবিশ-তরো নয়, তা কে বললে ?” অবিনাশবাব বলিলেন, “আমি বলছি। রবিবার দিন ওঁরা সব আসছেন ত ? সেই সব মহা-মহা পণ্ডিত লোক যখন শনবেন, তখন তাঁরাও বলবেন। - তুমি এক রাবিশ বললে ত চলবে না গো ! পম্পে সম অন্ধ তুমি অন্ধ বালিকা দেখনি নিজে মোহন কি যে তোমার মালিকা ! ছড়িগাছটা দাও, হরিশ পাকে একটা বেড়িয়ে আসি। ফিরে এসে রবিবার সম্বন্ধে দু'জনে পরামশ করা যাবে।” জনই এ কয়দিন ধরিয়া অবসর সময়টুকু স্বামী-স্মী মিলিয়া নাটকখানি বারংবার পাঠ করিয়া, মন্ত্রণা করিয়া, কথা বদলাইয়া, দশ্য বদলাইয়া, মজিয়া-ঘষিয়া শনিবার রাত্রে উহার প্রসাধনক্ৰিয়া সমাপন করিল। কাল রবিবার। অবিনাশবাবার সহকমী সাতজন অধ্যাপক —এবং অবিনাশবাবর ক্লাসের একজন মেধাবী ছাত্র পঞ্চানন বস-বি-এ পরীক্ষায় ইংরাজিসাহিত্যে সে বর্ণপদক প্রাপ্ত হইয়াছিল—এই আটজনকে নিমন্ত্রণ করা হইয়াছে। বেলা ৫টার সময় তাঁহারা আসিয়া অবিনাশবাবর গহে সমবেত হইবেন। চা-পানের পর নাটক পড়া আরম্ভ হইবে। পড়িতে তিন ঘণ্টার কম লাগিবে না। তারপর রাত্রি-ভোজন। এইরুপ পরামর্শ-ই হইয়াছে। রবিবার প্রতে চা-পান সমাধা করিয়া অবিনাশবাব বাজার করিতে গেলেন। ফন্দী অনসারে কাঁচা ও পাকা বাজার করিয়া সে সব বাড়ীতে আনিয়া ফেলিয়া, ট্রামযোগে ձԳֆ . . . * - - -- ~.