পাতা:প্রভাতকুমার মুখোপাধ্যায়ের গল্পসমগ্র.djvu/২৯৭

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


কি তাকে বাঁচান যায় ? অদষ্টলিখন খণ্ডন করা কি মানুষের সাধ্য ?” বড়বধরে মন এ উত্তরে সন্তোষ মানিল না। তিনি আজিও নিজনে রগিণীকে চিন্তা করিতে করিতে নানা কথা ভাবেন। [ অগ্রহায়ণ, ১৩o৬ ] l S, চটীমারে খলনা যাইতেছিলাম—সঙ্গে সী ছিলেন। ক্যাবিন রিজাভ করা ছিল। সারা বিপ্রহর দইজনে বসিয়া গলপ করিয়া কটাইলাম। সন্ধ্যার কিয়ং পর্বে স্থিনি ঘমাইয়া পড়িলেন। আমি ভাবিলাম এই অবকাশে ছাদে গিয়া একটা সন্ধ্যাবায় সেৰন করিয়া আসি। সেইমাত্র টীমার মাণিকদহঘাট ছাড়িয়াছে। ক্যাবিনের ভিতর লসিয়া মনে হইয়াছিল, আর বেলা নাই; বাহির হইয়া দেখিলাম সৰ্য্যোত হইতে তখনও বিলম্ব রহিয়াছে। সুতরাং ছাদে যাওয়া হইল না। অলসভাবে ইতস্ততঃ পদচারণা করিয়া বেড়াইতেছি, ইঠাৎ একটি অপরিচিত যবো আমার কাছে আসিয়া আমাকে ভূমিষ্ঠ হইয়া প্রণাম করিল। দরের দশ্য দেখিবার জন্য চশমা বদলাইয়া ক্যাবিন হইতে বাহির হইয়াছিলাম। চশমা খালিয়া যুবকটির মুখের পানে চাহিয়া রহিলাম। পবে তাহকে কখনও দেখিয়াছি বলিয়া সমরণ হইল না। লোকটির বয়স পঁচিশ বৎসর হইবে। একহারা চেহারা, চক্ষ, বসা, মাথায় বড় বড় চল। পরিচ্ছদ অতি সামান্য অবস্থার পরিচায়ক। ভ্ৰকুঞ্চিত করিয়া তাহকে জিজ্ঞাসা করিলাম, “আপনি কে ?” “আজ্ঞে আমার নাম শ্ৰীসারদাপ্রসন্ন চট্টোপাধ্যায়। নিবাস কুমারখালি।” “আমাকে চিনলেন কি করে ?” যুবক একটু বিনীত হাস্য করিয়া বলিল, “মশায়কে বাঙ্গলা দেশে কে আর না চেনে ? আপনার তুল্য সবদেশহিতৈষী বাগমী—” আমি তাহাকে বাধা দিয়া বলিলাম, “কি চান আপনি ?” “আমি যা চাই, তা ক্ৰমে নিবেদন করছি। সে অনেক কথা। যদি দয়া করে শোনেন, তবে কৃতাৰ্থ হই ।”—বলিয়া লোকটা ডেকের তক্তার পানে চাহিয়া রহিল। ব্যাপারটা কি আমি কিছু অনুমান করিতে পারিলাম না। ভাবিলাম হয়ত কিছু অর্থসাহায্য চাহে। অন্যদিকে চাহিয়া ধীরে ধীরে বলিলাম, “তা বলন শনছি।” “মশায়, একটা নিজন পথান আবশ্যক। একট ওদিকটেয় যাবেন কি ?” “চলন”—বলিয়া আমি অগ্রসর হইলাম। সে আমার পশ্চাৎ পশ্চাৎ আসিল। রেলিং-ধরিয়া দাঁড়াইলাম। আমার পাশে দাঁড়াইয়া আমার মুখের পানে কিয়ৎক্ষণ চাহিয়া রহিল! তাহার ভাব দেখিয়া মনে করিলাম, পাবে হয়ত এ অবস্থাপন্ন ছিল, এখন এরপ দশা হইয়াছে। যাদ্ধার ভাষা বুঝি’মখে আসিয়া বাধিয়া যাইতেছে। “আপনাকে আমি প্রণাম করলাম কেন বুঝতে পেরেছেন ?” “না, কেন বলন দেখি ?" - “আপনি আমার পিতা।” শুনিয়া হাহা করিয়া হাসিয়া ফেলিলাম। বলিলাম, “কি রকম ?” লোকটা একটু অপ্রস্তুত হইয়া বলিল, “আপনি আমার পিতা কিনা ঠিক বলতে পারিনে, কিন্তু আপনার সন্ত্রী আমার TTIT আকাশের পানে চাহিয়া কৃতাঞ্জলিপটে