পাতা:প্রভাতকুমার মুখোপাধ্যায়ের গল্পসমগ্র.djvu/৪৩২

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


বেড়াইতে বঙ্কিমবাবর ধর্মমতত্ত্ব পড়িতেছিল, ঝি আসিয়া তাহার হাতে একখানি চিঠি দিল। শিরোনামা দেখিয়া সরেনের বক কাঁপিয়া উঠিল—নলিনীর হসন্তাক্ষর । চিঠির ছাপ দেখিল—ভবানীপুর। চিঠি খলিল। তাহা এইরুপ। ৪৪/১নং নীলমণি বসর গলি, ভবানীপুর প্রিয়তম, * আজ একমাস তোমায় দেখি নাই, কিন্তু বাঁচিয়া আছি। বড় কষ্ট্ৰে আছি। বেশী লিখিবার সময় নাই। এখানে আমি অত্যন্ত কড়া পাহারায় আছি । যে বন্ধ আমার রক্ষয়িত্রী তাহার কন্যা আসিয়াছে। আমি তাহার সহিত ভাব করিয়া তাহারই সাহায্যে এ পর ডাকে দিবার আয়োজন করিয়াছি। যেদিন তোমার সঙ্গে শেষ দেখা, সেদিন সন্ধ্যাবেলা মা আমার প্রতি ভারি অত্যাচার করে. আমি অনেক কাঁদি। মা আসিয়া তোমার কথা জিজ্ঞাসা করে—আমি স্বীকার করি যে আমি তোমায় ভালবাসি। মা বলিল-তুমি ভিক্ষক নিজে খাইতে পাও না ইত্যাদি । যদিও বা আমায় বিবাহ কর, লোকগঞ্জনায় অপমানে অস্থির হইয়া দুইদিন বাদেই আমাকে পরিত্যাগ করবে। আরও বলিল, আমি আর তোমায় দেখিতে পাইব না, তোমায় ভুলিতে হইবে। পরদিন প্রাতে আমায় এইখানে আনিয়া রাখিয়া গেল। আমি এ একমাস অনেক ভাবিয়ছি। তোমার সঙ্গে যে আমার চিরবিচ্ছেদ হইল এ কথা এক মহত্তের জন্যও আমার মনে পথান পায় নাই। একদিন আমাদের মিলন হইবে এ আশা এক মহত্তের তরেও আমি পরিত্যাগ করিতে পাবি নাই। আমাদের মিলন হইলে তোমার অবস্থা কি হইবে তাহাও আমি ভাবিয়াছি। লোকে BBB BB BBBB BBB BB BBBB BB BB BBB BBS BBB BBB BBBB জন্য হইলে আমি তোমার জীবনের পথ হইতে সরিয়া যাইতাম; কিন্তু হে আমার স্বামী, আমায় না পাইলে তুমিও সখী হইবে না এ বিশ্বাস তুমি আমার মনে জন্মাইয়াহু । তোমার সখের ও আমার সখের জন্য আমাদের মিলনই আমি আকাংক্ষা করি। আমার এ পত্রের উত্তর তুমি ডাকে দিও না। কাল সন্ধ্যাবেলা চিঠি হাতে করিয়া আসিও। ভবানীপুরে যে পদ্মপত্র আছে, তাহার উত্তর পশ্চিম কোণে দাঁড়াইয়া থাকিও ৷ একজন সন্ত্রীলোক তোমার নাম করিয়া ডাকিবে, তাহার হাতে গন্ন দিও, তাহা হইলে আমি পাইব । ঃে । ঠিক সাতটার সময় আসিও । পত্র পড়িয়া সরেন তাড়াতাড়ি নীচে নামিয়া গেল । ঝিকে ডাকিয়া দই আনার জল খাবার আনিতে দিল। নিজের জিনিসপত্র গছেইতে আরম্ভ করিল। বাসার লোককে বলিল, “বাড়ী হতে এইমাত্র চিঠি পেলাম, মার ভারি ব্যারাম, এখনি আমায় রওনা হতে হবে।” জলখানার আসিলে চাকরবে বলিল, “সরমন একখানা গাড়ী ডাক, জলদি - গাড়ী আসিলে জিনিসপত্র লইয়া হাওড়ায় গেল। রাগ্রি এগারটার সময় বাড়ী পৌছিল । মাকে বলিল, “কলকাতায় হুয়ানক কলের হচ্ছিল তাই পালিয়ে এলাম । { ফালগন, ১৩o৮ ] yసి