পাতা:প্রভাতকুমার মুখোপাধ্যায়ের গল্পসমগ্র.djvu/৪৮০

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


করিয়া রাখতে পারিব না। এইরুপ কিছুদিন চলিলে, গ্রামের লোকের মধ্যে কি প্রকার আলোচনা উত্থিত হইবে তাহা ভাবিয়া দেখ। স্বামি যাহাকে ভালবাসি, আমি কি ভার—” সন্দুরলাল আর বলিতে পারিল না,—কিন্তু আমি তাহার মনের ভাব বুঝিলাম । আমি এতক্ষণ ব্যাপারটিকে পরিহাসের বিষয়সবরপেই মনে থান দিয়াছিলাম। সুন্দরলালের এই কথায় সে ভাব আমার মন হইতে তিরোহিত হইল । পরিহাসের সবর পরিত্যাগ করিয়া জিজ্ঞাসা করিলাম, “মেয়েটি কে ?” SSBBBB BB BBB BBBBB BB BBBBBBB BBBS BBB BB BBB অযোধানাথ। পান্না তাঁহার পৌত্রী।” "তাহারা কি তোমাদের সবজাতি ?” ‘স্বজাতি বইকি !” “ভবে বাধা কি ? তোমায় পিতার নিকট তোমার বাসনা কখনও ব্যক্ত করিয়াছিলে ?” ‘কবিয়ছিলাম। নিজে করি মাই—অন্য লোক দিয়া বলাইয়াছিলাম। অযোধ্যানাথ আমাকে তাঁহার নাতজামাই করিতে প্রস্তুতও ছিলেন। কিন্তু তাঁহাদের কুলগত কোনও দোষ আছে বলিয়া, জাতিভয়ে পিতা কিছুতেই সম্মত হন নাই। সে মেয়ের আরও অনেক মথলে বিবাহের সম্বন্ধ হইয়াছিল, কিন্তু কেহই সন্মত হয় না। নাহলে আমাদের ঘরে অত বড় মেয়ে কখনও অবিবাহিত থাকে ?” শনিয়া আমার মন কিছু বিষন্ন হইল। এ যে উপন্যাসের মতই কাণ্ড-কারখানা দেখিতেছি। কিন্তু উপন্যাসে সখে-সম্মিলনটা প্রায়ই কোন না কোনও উপায়ে সংঘটিত হইয়া যায় । এ ক্ষেত্রেও কি তাহা হইবে না ? তাহার পর সন্দরলাল অনেক কথা বলিল। সকল কথাই তাহার প্রণয়িণীর সম্বন্ধে । সন্দেয়লাল সম্পন্ট বলিল—প্রণয়ের আবেগটা সমস্ত তাহার তরফ হইতে। বালিকা সম্ভবতঃ ভালমন্দ কিছুই জানে না। তাহার জানিবার বয়সও নহে, সুযোগ ঘটে নাই। বাড়ী ফিরিয়া আসিয়া, রাত্রে আমার স্ত্রীকে সকল কথা বলিলাম। ইহার পর আর দুই মাস কাটিল। আমার বেশ পসার হইয়া আসিতেছে। এখন প্রত্যেক বড় মোকদ্দমায় কোন না কোন পক্ষে আমি নিযুক্ত থাকি। সন্দরলাল পাটনায় ফিরিয়া গিয়াছে। ইতিমধ্যে কয়েকবার সন্দরলালের সহিত তাহদের গ্রামে গিয়াছিলাম। সুবেদার অযোধ্যানাথের সহিত সাক্ষাং করিয়া আসিয়াছি। দরি হইতে অত্যকতে আমার বন্ধর মনোহারিণীকেও দেখিয়া আসিয়াছি। মেয়েটি বেশ সন্দেবী বটে। তাহাকে ভালবাসিয়াছে বলিয়া সন্দেরলালকে দোষ দিতে পারা যায় না। প্রথম যেদিন পাটোলি হইতে যখন ফিরিয়া আসিলাম, আমার দী সৰবৰ্ণগ্রে জিজ্ঞাসা করিলেন, “পান্নাকে দেখলে ?” “দেখলাম বইকি।” “কেমন দেখতে গো ?” জ্ঞানীজনেরা বলিয়া থাকেন, নিজের সন্ত্রীর সমক্ষে কখনও অন্য কোন ত্রীলোকের রাপের প্রশংসা করিও না; করিলে বিপদের সম্ভাবনা আছে। তাই সাবধানতা অবলম্বন করিয়া বলিলাম, “দেখতে মন্দ কি ?” সত্ৰী বলিলেন, “তব কি রকম দেখতে, কি রকম রঙ, মুখ চোখ কি রকম ?” বলিলাম, “তা—ভালই।” আমার উত্তরে আমার স্ত্রী সন্তুস্ট হইলেন না। আবার জিজ্ঞাসা করলেন, “খব ੋ ?” ર૭૧