পাতা:প্রভাতকুমার মুখোপাধ্যায়ের গল্পসমগ্র.djvu/৮৫৪

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


কুমাদের বন্ধ “গিরো ময়রা গগনে পয়োদা লক্ষান্তরেহকিশ্চ জলেষু পক্ষম। ইন্দবিলক্ষং কুমদস্য বন্ধ যে যস্য মিত্ৰং নহি তস্য দরম ॥” - প্রথম পরিচ্ছেদ কলিকতার বিখ্যাত ঔষধবিক্ৰেতা রজনীকান্ত সোম মহাশয়ের পত্র কুমন্দনাথ অক্তি লন্ডনে মহা বিপন্ন । পিতার জীবিতকালেই ভেষক্ত-রসায়ন অধ্যয়ন করিবার জন্য সে বিলাতে আসিয়াছিল : ধনী পিতার একমার পর কুমড়, যখন যত টাকা চাহিত, পিতা তাহাই পাঠাইয়া দিতেন মাসিক বরান্দও অন্যান্য ছাত্রের অপেক্ষ কুমাদের অনেক অধিক ছিল । সুতরাং তাহার চাল অত্যন্ত লম্বা হইয়া পড়িয়ছে। দই বৎসর পিতার মৃত্যু হইয়াছে—তাহার পিসেমহাশয় এবং দোকানের ম্যানেজার ব্যবসায় চালাইতেছেন। মদনেজারের আমল হইতে কুমাদের টাকার যোগান কিঞ্চিৎ কম পড়িয়া গিয়াছে বটে—কিন্তু মাসে মাসে নিয়মিত ভাবেই টাকা আসিত। এদিকে দই আড়াই মাস আর টাকা আসে নাই। কুমুদ প্রতি সপ্তাহে চিঠি লিখিয়া তাগিদ করিয়াছে—ইদানীং দুইখানা টেলিগ্রামও করিষাছে। কিন্তু এ পর্য্যন্ত কোনও উত্তর পায় নাই। আজ সোমবার—ভারতবষীয় ডাক আসিবে চিঠির মধ্যে টাকার ড্রাফট আসে কি না আসে, এই চিন্তায় গত রাত্রি কুমাদের ভাল করিয়া নিদ্রা হয় নাই। সাতটা না বাজিতেই আজ সে শষ্যাত্যাগ করিল—অন্যদিন আটটার পড়বে তাহার নিদ্রাভংগ হয় না। লণ্ডনের বেজওয়াটার নামক অংশে রমস লইয়া সে বাস করে। প্রতি সপ্তাহে ল্যান্ডলেডিকে টাকা দিবার কথা—আজি দুইমাস কাল কুমদ তাহাকে একটি পরসাও দিতে পারে নাই। উপরন্তু বন্ধুবান্ধবগণের নিকট-কাহারও কাছে দই পাউণ্ড, কাহারও কাছে চারি পাউণ্ড—এইরুপ করিয়া অনেক টাকা ধার করিয়া ফেলিয়াছে। আজ ডাকে তিন মাসের টাকাটা যদি আসিয়া পড়ে, তবেই মঙ্গল, নচেৎ কুমদকে মহাকষ্টে পড়িতে হইবে। শয়নকক্ষটির আসবাবগুলি সন্দর ও মহার্ঘ। চারিদিকের দেওয়াল ধসের ও সবর্ণবর্ণ চিত্রিত কাগজে আবৃত। মেঝের উপর পর গালিচা পাতা। দেওয়ালের একপথানে একটি মোটা রেশমের ফিতা বুলিতেছে-কুমন্দ উঠিয়া তাহার হাতলটি টানিয়া ধরল। একমিনিট পরে গহদাসী বারের বাহিরে দাঁড়াইয়া জিজ্ঞাসা করিল—“কি মহাশয় ?” “ড়াক আসিয়াছে ?” “না—এখনও আসে নাই।” । “গরম জল লইয়া আইস।” গরম জল আসিলে, মাখ ধাইয়া কুমদ পোষাক পরিতে আরম্ভ করিল। পরিধানশেষে সোণার সিগারেট-কেসটি খলিয়া দেখিল একটিও সিগারেট নাই। গতকল্য তাহার সিগারেট ফরাইয়াছিল; অথৰ্ণভাবে নতন বাক্স কিনিতে পারে নাই। সে তখন লানমথে প্যাটালনের দুই পকেটে দই হস্ত প্রবেশ করাইয়া দিয়া, খোলা জানালার কাছে দাঁড়াইল । মে মাস। বাহিরে রৌদ্র ঝাঁ ঝাঁ করিতেছে। বড় বড় শব্দ করিয়া দগধবিক্লেতার গাড়ী, রুটিওয়ালার গাড়ী, বাড়ী বাড়ী ষোগন দিয়া ফিরিতেছে । , ক্লমে দরে ডাকওয়ালার মাত্তি দেখা গেল। ক্ৰমে সে এই বাড়ীর নিকটবত্তীও হইল । কুমদ তখন ক্ষিপ্রপদে নীচে নামিয়া ಈು \ తి