পাতা:প্রমোদকামিনী কাব্য.pdf/৫০

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা হয়েছে, কিন্তু বৈধকরণ করা হয়নি।
৪১
প্রমোদকামিনী কাব্য।


আর কি থাকিতে পারে নীরবে তাপস?
ধরিয়া প্রেয়সীকরে,
বিনয়ে মধুর স্বরে,
কহিতে লাগিল, যেন ক্ষরে সুধারস!—

“প্রাণ দিয়ে?’ কি বলিলে প্রাণের প্রমোদ?
তা কভু দিব না আমি,
এই যে তোমার স্বামী,
পূরিল আশার নদী, সুখের ক্ষীরোদ!”

অনন্তর যোগিবর উঠিয়া যতনে,
অনুপ সুখের আশে,
বান্ধিল রে ভুজ পাশে,
ধরিতে হৃদয়-শশী হৃদয় গগনে।

ফুটিল আনন্দ-ফুল মানস-কাননে।
মোহিত হয়েছে সুখে,
বচন না সরে মুখে,
বরষে হরষ-নীর যুগল-নয়নে।