পাতা:প্রাচীন বাঙ্গলা সাহিত্যে মুসলমানের অবদান.djvu/১৪

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


প্রাচীন বাঙ্গল সাহিত্যে মুসলমানের অবদান © حیده م.م. --میده-.... আকাশের পরিবেষ্টনীর মধ্যে পরিবদ্ধিত হইয়া—এই সমৃদ্ধ প্রকৃতির বিচিত্র পুষ্প ও বল্লরীর সংস্পশে কোমল ভাবুকতা ও উদার সৌন্দৰ্য্য মৰ্ম্মে মৰ্ম্মে উপলব্ধি করিয়া বাঙ্গালী হইয়া গিয়াছে। বর্তমান বাঙ্গালী জনসাধারণ তাহাদের বংশধর—যাহাঁদের দুর্দান্ত সাহসিকতা ও রণ-নৈপুণ্য দেখিয়া ইতিহাস-পূৰ্ব্ব যুগে প্রসিদ্ধ রোমক কবি ভাজ্জিল লিখিয়াছিলেন— ‘গঙ্গারাঢ়ীদের আশ্চৰ্য্য রণনৈপুণ্যের কথা বিজয়-স্তস্তে গজদন্তের উপর স্বর্ণক্ষরে লিখিয়া রাখা উচিত।”— যাহাদের প্রভুভক্তি ও অসম সাহস দেখিয়া দ্বাদশ শতাব্দীতে কাশ্মীরের কহুলণ কবি বিস্ময়সহকারে বলিয়াছিলেন—“স্বাষ্টকৰ্ত্ত ব্ৰহ্মাও বুঝি এরূপ যোদ্ধা স্বষ্টি করিতে পারেন না ।”—যাহাদের দেহের গঠন, অঙ্গের নিরুপম লাবণ্য ও মুখশ্ৰী দেখিয়া ভারতের বড়লাট মিণ্টো বলিয়াছিলেন—“বাঙ্গালীদের মত সুশ্ৰী মূৰ্ত্তি তিনি জগতে আর কোথাও দেখেন নাই ।”— যাহাদের বাশের লাঠি ও বাশা জগতে অপরাজিত এবং অলাকুনিৰ্ম্মিত একতারা ও কাঠের সারঙ্গের মহিমা শত কাব্যে, শত পল্লীগাথায় প্রশংসিত,—যাহারা ছিলেন শিল্পগুরু, শিক্ষাগুরু, কোমলতায় ব্রততী-সম, দৃঢ়তায় শাল ও বিহুকল্প ; জগতের সেই অন্ততম শ্রেষ্ঠ জাতি বাঙ্গালী কেন মাথা হেঁট করিয়া অপর দেশের দোহাই দিবে ? ইহাদের অক্ষর পরিচয় না থাকিলেও ইহারা জ্ঞানগুরু। ই, বি, হ্যাভেল সাহেব লিখয়াছেন—“এ দেশের চিত্রকরেরা যদিও পাশ্চাত্য মতে নিরক্ষর, তথাপি জগতে চিত্রকরদের মধ্যে ইহাদের স্থান সকলের উপরে।” (“Though illiterate in the western sense, the painters AASAASAASAASA SAASAASAAAS are the most cultured of their class in the world"— E. B. Havell ) * । ভারতবর্ষের বহু অভিজ্ঞতাসম্পন্ন ডক্টর লিফ্রয় লিখিয়াছেন যে—“এদেশের দরিদ্রতম কৃষকেরাও যেরূপ সৰ্ব্বোচ্চ দার্শনিক

  • Introductian, XIX—ldeals of the Indian Art-E B. Havell.