পাতা:প্রাচীন বাঙ্গলা সাহিত্যে মুসলমানের অবদান.djvu/৪৪

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


প্রাচীন বাঙ্গলা সাহিত্যে মুসলমানের অবদান ·ළුA এই কাব্য মুসলমান সমাজে প্রচলিত ; ‘জেবল মুলুক শামারোখ’ কাব্যে দৃষ্ট হয় যে, হিন্দু দেবতাদিগকে মুসলমানের পীর সাজাইবার চেষ্ট্র মুসলমান কবি করিয়াছেন । ১৬৫৭ খৃঃ অঃ ) । এই পুস্তকের রচয়িতা মোহাম্মদ আকবর ( জন্ম তিনি লিখিয়াছেন – “বিনয় করিয়া বন্দি ফিরিস্তার পদ । ছুক্ষ্মীকুলে ফিরিস্তা যে হিন্দুর নারদ । ভক্ত সিংহাসনে বন্দি আল্লার দরবারে। হিন্দুকুলে ঈশ্বর যেন জগতে প্রচারে । পয়গম্বর সকল বন্দি করিয়া ভকতি । হিন্দুকুলে দেবতা যেন হৈল প্রকৃতি | হজরত আদম বন্দি জগতের বাপ ॥ হিন্দুকুলে অনাদি নর প্রচার-প্রতাপ ॥ মা হাওয়া বন্দুম জগত-জননী। হিন্দুকুলে কালী নাম প্রচারে মোহিণী ॥ হজরত রসুল বন্দি প্রভুর নিজ সখা । হিন্দুকুলে অবতারি চৈতন্যরূপে দেখা ৷ খোয়াজ খিজির বন্দুম জলেত বসতি। হিন্দুকুলে বাসুদেব, শূন্যে যে প্রকৃতি। আছকবা সকল বন্দি নবীর সভায় । হিন্দুকুলে দোয়াদশ গোপাল ধেয়ায় ॥ আওলিয়া, আম্বিয়া বন্দি রববানি কোরাল । হিন্দুকুলে মুনিভাব আছয়ে পুরাণ। পীর, মুর্শিদ বন্দুম ওস্তাদ-চরণ। হিন্দুকুলে গুরু যেন করয়ে পূজন।”