পাতা:প্রেমিক গুরু.djvu/৩০৭

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে চলুন অনুসন্ধানে চলুন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।

জীবন্মুক্তি २b*59 অবলম্বন করা কর্তব্য । অন্যমত শ্রেষ্ঠ ও নিজমত নিকৃষ্ট মিথ্যা ও কুসংস্কারপূর্ণ শুনিয়াও বিচলিত হইওনা। নিজমত দৃঢ় করিয়া ধারণপূৰ্ব্বক, তাহার পরিণতি ও পরিপুষ্টির জন্য চেষ্টা করিবে । কেননা কোন মতই,—কোন সম্প্রদায়ই নিরর্থক নহে। অজ্ঞতাপ্রযুক্ত লোক সকল সাম্প্রদায়িক মতগুলির সমালোচনা করিয়া দুৰ্ব্বলাধিকারীর মন বিগড়াইয়৷ দেয় ; কিন্তু কোন মতই মিথ্যা নহে, সকল মতেরই আশ্রিতগণ পূর্ণসত্যে কিম্বা সত্যের একদেশে উপনীত হইবে । যখন মানবসমাজের জনগণ পরম্পর বিভিন্ন প্রকৃতির, তখন তাহাদিগের মতে বৈষম্য থাকা অবশুম্ভাবী ; সুতরাং মতগুলিকে পথ মাত্র জানিয়া,—কোন মতের নিন্দ না করিয়া, কিম্বা সকল মতের করিম, কালী, কুষ্ণ, খৃষ্ট্রের খিচুড়ী না পাকাইয়া সতী নারীর দ্যায় স্বধৰ্ম্মনিষ্ঠ হইয়া থাকিবে । জন্মান্তরের সংস্কার এবং শিক্ষা ও রুচিভেদে অধিকারানুরূপ যে কোন একটা মত অবলম্বন করিবে । অনন্তর বিশ্বাস দৃঢ় হইয়া, ভাব পুণ্ঠ হইয়া লক্ষ্য স্থির হইলে তদনুরূপ সাধনপ্রণালী অবলম্বন করিবে । সাধনায় লক্ষ্য বস্তু উপলব্ধি হইলেই তৎপ্রতি ভক্তির সঞ্চার হক্টবে-- তাহাকে পাইবার জন্য প্রাণ ব্যাকুল তইবে । তখন সংসারের যাবতীয় বস্তুতে বিরাগ জন্মিয়া অ ণীষ্ট বস্তুতে চিত্তের অবিচ্ছিন্না একমুখী গতি হইবে। কাজেই চিত্তবৃত্তি নিরোধ হইয়। তত্ত্বজ্ঞান প্রকাশ হইবে। তখন আত্মস্বরূপ লাভে কৃতাৰ্থ হইয়া মুক্তিপদে অবস্থিতি করিবে । কিন্তু মুক্তিলাভ করিতে হইলে একজন মুক্ত ব্যক্তির সাহায্য বিশেষ আবখ্যক । হিন্দু শাস্ত্রে তিনিই গুরু নামে অভিহিত হন । গুরুর কৃপা না হইলে মুক্তিপথে অগ্রসর হইবার উপায় নাই। গুরু শিষ্যে আধ্যাত্মিক শক্তি সঞ্চার না করিলে, আধ্যাত্ম-জ্ঞানলাভে কৃতাৰ্থ হওয়া যায়না । সুতরাং গুরুর অবিশুকতা বিশেষ ভাবে উপলব্ধি বন্ধরিবে । যিনি আত্মস্বরূপ লাভ حساس-چ چ