পাতা:বঙ্কিমচন্দ্রের উপন্যাস গ্রন্থাবলী (তৃতীয় ভাগ).djvu/৯৩

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


চন্দ্রশেখর - సి মহে, সে মীর কাসেমের হুইয়াছে । ভ্রাত বলিয়। তাহাকে স্নেহ করিলে করিতে পারে, কিন্তু সে মীর কাসেমের প্রতি অধিকতর স্নেহবতী ! ভ্রাতাকে স্বামীর অমঙ্গলার্থী বলিয়। যখন বুঝিয়াছে ব৷ বুঝিবে, তখন স্বামীর মঙ্গলার্থ ভ্রাভার অমঙ্গল করিতে পারে । অতএব আর উহাকে দুর্গমধ্যে প্রবেশ করিতে দেওয়া কৰ্ত্তব্য নহে। গুবৃগনু খ। ভূত্যকে ডাকিলেন । এক জন শস্ত্রবাহক উপস্থিত হইল। গুরুগন খ। তাহার দ্বার। আজ্ঞ পাঠাইলেন, দলনাকে প্রহরীর যেন দুর্গে প্রবেশ কবিতে না দেয় । অশ্বারোহণে দূত আগে শুর্গদ্বারে পৌছিল । দলনী যথাকলে দুর্গদ্বারে উপস্থিত হইয়! শুনিলেন, তাহার প্রবেশ নিষিদ্ধ ইষ্টপ্পাছে । শুনিয়া দলনী ক্রমে ক্রমে ছিন্নবপরীলং ভূতলে বসিয়া পড়িলেন । চক্ষু দিম! ধার সহিতে লাগিল । বলিলেন, “ভাই, আমার দ{ড়াইবার স্থান রাখিলে ন। ?” কুল্সম্বলিল, “ফিরিয়া সেনাপতির গৃহে চল " দলনী বলিল, “তুমি যাও । গঙ্গার তরঙ্গমপে আমার স্থান হইবে ।" সেই অন্ধকার রাত্রে রাজপথে দাড়াই: দলনা কাদিতে লাগিল ! মাথার উপর নক্ষণ মলিতেছিল— বৃক্ষ হইতে প্রস্ফুট কুসুমের গন্ধ আসিতেছিল –ঈষৎ পবনহিল্লোলে অন্ধকােরর ৩ বৃক্ষপ ণ সকল মায়রি ত হইতেছিল। দলন কাদির বলিল, “কুলুসমৃ !" তৃতার পরিচ্ছেদ দলনীর কি হইল ? একমাত্র পরিচারিক সঙ্গে, নিশ কালে রাজমহিষী রাজপথে দাড়াইয়। কাদিতে লাগিল । কুলুসম্ জিজ্ঞাসা করিল, “এখন কি করিবেন ?" দলনী চক্ষু মুছিয়া বলিল, “আইস, এই বৃক্ষতলে দাড়াই, প্রভাত হউক।" কু। এখানে প্রভাত হইলে আমরা ধরা পড়িব । -দ। তাঁহাতে ভয় কি ? আমি কোন দুষ্কৰ্ম্ম করিয়াছি যে, আমি ভয় করিব ? কু। আমরা চোরের মত পুরাত্যাগ করিয়া আসিয়াছি । কেন আসিয়াছি, তা তুমিই জান । কিন্তু লোকে কি মনে করিবে, নবাবই ব| কি মনে করিবেন, তাহা ভাবিয়া দেখ । দ যাহাই মনে করুন, ঈশ্বর আমার বিচারকওঁ—আমি অস্ত্য বিচার মানি ন| ন হয় মরিব । ক্ষতি কি ? কু । কিন্তু এখানে দাড়াইয়। কোন কাৰ্য্য সিদ্ধ হুইবে ? পড়িব--সেই দ। এখানে দাড়াইল্প ধরা উদ্দেশেই এখানে দাড়াইব । পুত হওয়াই আমার কামল । ষে ধু গু করিবে, সে আমাকে কোথায় লক্টয়া যাইবে ? কু দরপারে । দ। প্রভুর কাছে ? আমি সেইখানেই যাইতে ঢাই । অত্যত্র আমার যাইবার স্থান নাই । তিনি যদি আমার বলের আজ্ঞা দেন তথাপি মরণকালে তাহাকে বলিতে পাইব যে, আমি নিরপরাধিনী । বরং চল, আমরা দুৰ্গদ্বারে গিয়া বসিয়া থাকি—সেইখানেই শীঘ্র ধরা পড়িব । এই সময়ে উভয়ে সভয়ে দেখিল, অন্ধকারে এক দীর্ঘাকার পুরুষমূৰ্ত্তি গঙ্গাতীরাভিমুখে যাইতেছে তাঙ্গর বৃক্ষতলস্ত অন্ধকারমধ্যে গিয়া লুকাইল । পুনশ্চ সভয়ে দেখিল, দীঘাকার পুরুষ গঙ্গার পথ পরিত্যাগ করিয়া সেই আশ্রধবৃক্ষের অভিমুখে ত্যাসিতে লাগিল, দেখিয়৷ স্ত্রীলোক দুইটি আরও অন্ধকার মধ্যে লুকাইল । দীর্ঘাকার পুরুষ সেইখানে আসিল । বলিল, “এখানে তোমর! কে ?” এই কথা বলিয়, সে যেন আপন আপনি মুতুম্বরে বলিল, “আমার মত পথে পথে নিশ জাগরণ করে- এমন হতভাগা কে আছে ? ' দীর্ঘাকার পুরুষ দেখিয়। স্ত্রীলোকদিগের ভয় । জন্মিয়াছিল, কণ্ঠস্বর শুনির সে ভয় দূর হইল। কণ্ঠ অতি মধুর—তঃখ এবং দয়ায় পরিপূর্ণ। কুলসম্ কহিল, “আমরা স্ত্রীলোক, আপনি কে ?” পুরুষ কহিলেন, “আমরা ? তোমরা কয় জন ?”কু । আমরা জুই জন মাত্র । পু। এত রাত্রে এখানে কি করিতেছ? তখন দলনী বলিল, “আমরা হতভাগিনী— আমাদের ছুঃখের কথা শুনিয়া আপনার কি হইবে ?” তখন আগন্তুক বলিলেন, “আমি সামান্ত ব্যক্তি ; সামান্য ব্যক্তি কর্তৃকও লোকের উপকার হইয়া থাকে। তোমরা যদি বিপদগ্ৰস্ত হইয়া থাক-- সাধ্যানুসারে আমি তোমাদের উপকার করিব । দ। আমাদের উপকার প্রায় অসাধ্য-আপনি কে ? -