পাতা:বঙ্গদর্শন-প্রথম খন্ড.djvu/১৭৫

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


ኴፃፀ বুদ্ধি টুকু গিয়াছে তার একটু বুদ্ধি চাই। বুদ্ধি দেয় এমন লোক আর কৈ আছে— বুদ্ধি যা কিছু আছে তা সতীশ বাবুর। তাই সতীশ বাবুকে একবার গোবিন্দপুর যেতে তার মামী লিখে পাঠিয়েছে।” সতীশবাবু ততক্ষণ একটা ফুলদানি ফুল সমেত উলটাইয়া ফেলিয়াছিলেন এবং তৎপরে দোয়াতের উপর নজর করিতেছিলেন । দেখিয়া শ্রীশচন্দ্র কহিলেন। “উপযুক্ত বুদ্ধিদাতা বটে ! তু যা হোক এতক্ষণে বুঝিলাম—ভাজের বাড়ী মশাইয়ের নিমন্ত্রণ । সতীশকে যেতে হলেই সুতরাং কমলমণিও যাবে। তা সূৰ্যমুখীর কাণ কড়িটি না হারালে আর এমন কথা লিখবে কেন ? - ক। শুধু কি তাই ? সতীশের নিম विशेषतः । (षशार्थं, ंश***• । তেছিলেন, তাহ ছিড়িয়া ফেলিলেন । ঐশ হাসিয়া বলিলেন “তা লাগতে এসে কেন ?" *•• ● কমলমণি কৃত্রিম কোপসহকারে কছিলেন “আমার খুসি লাগবে।" শ্ৰীশচন্দ্রও কৃত্রিম কোপ সহকারে কহিলেন “আমার খুলী আমি বলবো ”ি তখন কোপযুক্ত কমলমণি ঐশকে একটা কিল দেখাইলেন । কুন্দদস্তে অধর টপিয়া ছোট হাতে • একটি ছোট কিল দেখাইলেন । কিল দেখিয়া শ্রীশচন্দ্র কমলমণির খোপা ধুলিয়া দিলেন। তখন বদ্ধিতরোষা কমলমণি শ্ৰীশচন্দ্রের দোয়াতে কালি পিকদানিতে ঢালিয়া ফেলিয়া দিলেন । রাগে শ্রীশচন্দ্র দ্রুতগতি ধাবমান হইয়া স্ত্রণ, আমার নিমন্ত্রণ, আর তোমার নিম কমলমণির মুখচুম্বন করিলেন। রাগে ፬ግ ! “ ঐ । আমার নিমন্ত্রণ কেন ? ক । “আমি বুঝি এক যাব ? আমদের সঙ্গে গাড় গামছা নিয়ে যায় কে ? ঐ । “এ সূর্যমুখীর বড় অন্তায় ! শুধু গাড় গামছা বহিবার জন্য যদি ঠাকুর জামাইকে দরকার হয়, তবে আমি দুদিনের জন্য একটা ঠাকুর জামাই দেথিয়া দিতে প্লারি।” কমলমণির বড় রাগ হইল। তিনি ভ্ৰকুটি করিলেন, শ্ৰীশকে ভেঙ্গাইলেন, এবং শ্রীশচন্দ্র যে কাগজ খানায় লিখি কমলমণিও অধীর হইয়া শ্ৰীশচন্দ্রের মুখচুম্বন করিলেন। দেখিয়া সতীশচন্দ্রের বড় প্রভি জন্মিল। তিনি জানিতেন যে মুখচুম্বন তাহারি इजाब्र भश्ल। अङअब झशब्र इज्रছড়ি দেখিয়া রাজভাগ আদায়ের অক্তিলাষে মার জামু ধরিয়া দাড়াইয়া উঠিলেন; এবং উভয়ের মুখ পানে চাছিয়া উচ্চৈঃস্বরে হাসির লহর তুলিলেন। সে হাসি কমলমণির কর্ণে কি মধুর বাজিল । ইয়া লইয়া তুরি২ মুখচম্বন করিলেন।