পাতা:বঙ্গের জাতীয় ইতিহাস (কায়স্থ কাণ্ড, প্রথমাংশ, রাজন্য কাণ্ড).djvu/২৫

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে চলুন অনুসন্ধানে চলুন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।

সুচনা b' বিরাজ করিতেন, আজ তাছাদের সে সম্মান, সে প্রতিপত্তি, সেরূপ গতিবিধি দেখা যায় মা ; এখন সকল সমাজেই যেন তাহারা অতি মহার্ঘ্য হইয়া পড়িয়াছেন। পূৰ্ব্বে বংশপরম্পরায় যাহারা কুলপরিচয় ও কুলশাস্ত্র রক্ষা করিয়া আসিতেন, তাঁহাদের বংশধরগণ সকলেই প্রায় একে একে সমান্ধুে সেই গরীয়সী ও মহীয়সী বৃত্তি পরিত্যাগ করিয়াছেন । তাহাদের বৃত্তিলোপ ও তাহাদের বংশলোপের সহিত আমাদের জাতীয়-গৌরবদ্যোতক সহস্ৰ সহস্ৰ । কুলগ্রন্থ বিলুপ্ত হইয়াছে—প্রত্যেক সমাজে এখনও দুই এক জন কুলঙ্ক বংশধর সেই অতীতের মহাশ্মশানে যেন নিৰ্ব্বাণোন্মুখ বস্থির ন্যায় বিরা জ করিতেছেন! কেৰল যে কুলাচার্যাদিগের দোষে আজ আমাদের জাতীয় গৌরবন্থতি বিস্মৃতিসলিঙ্গে g বিলুপ্ত হইবার উপক্রম হইয়াছে, তাহা নহে। কায়স্থসমাজের ঔদাসীন্যই এই বিরাট বাংগ: কাণ্ডের মূল কারণ। যদি কায়স্থ সমাজ মনে করিতেন, তাহা হইলে অনায়াসেই কুলাচাৰ্য । ও কুলশাস্ত্ররক্ষার ব্যবস্থা করিতে পারিতেন। কায়স্থসমাজের অধঃপতন ও আত্মবিশ্বতিই কুলপরিচয় বিলোপের অন্যতম কারণ। কায়স্থসমাজের ইতিহাস-প্রসঙ্গে সেই বিরাটু আত্মবিস্তৃতির কাহিনী বিবৃত করিবার চেষ্টা পাইয়াছি। - যাহা হউক, এই অপূৰ্ব্ব আত্মবিস্কৃতির দিনেও আমি বহু চেষ্টার প্রায় তিন শত কুলগ্রন্থ সংগ্ৰহ করিতে সমর্থ হইয়াছি। আমাদের সমাজপূজ্য চির-আরাধ্য ব্যাসকর ব্রাহ্মণ ও কায়স্থকুলাচাৰ্য্যগণ কিরূপ অসাধারণ স্বল্পবুদ্ধি দ্বারা সমাজের আন্তর্জাতিক ইতিহাস লিপিবদ্ধ করিয়া গিয়াছেন, কিরূপ সুকৌশলে আমাদের আর্য্যজাতীয়ত্বের নিদর্শন আঁতীতের কালগ্রাস হইতে রক্ষা করিয়া আসিয়াছেন, ঐ সকল কুলগ্রন্থ তাহার প্রকৃষ্ট প্রমাণ। আশা করি, কায়স্থসমাজ সমবেতভাবে চেষ্টা করিলে ঐরুপ অতীতগৌরবের নিদর্শন আরও শত শত আবিষ্কার করিতে পারেন। ঐ সকল কুলশাস্ত্রগুলি প্রধানতঃ তিন শ্রেণিতে বিভক্ত করা যাইতে পারে— ১ম—আদি কুলকারিকা ও ডাক নামক গাথাসমূহ। ২য়—কুলপঞ্জিকা, ঢাকুরী, সমীকরণকারিকা ও কুলাকুলবিচার। ৩য়—কক্ষানির্ণয়, ভাবনির্ণয়, ঢাকুর ও আধুনিক কুলপঞ্জিক। বহার বলিয়া থাকেন যে, ভারতবাসী ইতিহাসের উপযোগিতা বুঝেন নাই, ইতিহাসের সমাদর করেন নাই, তাহারা সম্পূর্ণ ভ্রান্ত । বিশাল ভারতের কথা ছাড়িয়া দিন—একমাত্র এই বঙ্গদেশের উক্ত তিন শ্রেণির কুলগ্রন্থ আলোচনা করিলে আমরা বেশ বুঝিতে পারি যে, ফ্লার্ক-কায়স্কসমাজ ইতিহাসের কতদূর আদর করিতেন—ইতিহাসের উপযোগিতা কতটা বুনিয়াছিলেন। ঐ সকল গতস্থতির নিদর্শন কীটদষ্ট পুথি হইতে আমরা প্রত্যেক সমাজের অভু্যখান, প্রত্যেক সমাজের গঠন, প্রত্যেক সমাজের বিস্তৃতি, প্রত্যেক সমাজের বংশসম্বন্ধ, প্রত্যেক সমাজের আদান-প্রদান, প্রত্যেক সমাজের কুলাচার, প্রত্যেক সমাজের—এমন কি প্রত্যেক পরিবারের ধারাবাহিক বংশেতিহাস এবং প্রত্যেক সমাজ ও পরিবারের অধঃপতনের কারণতৰ সন্ধান পাইতেছি। ঐ সকল কুলগ্রন্থে কত শত ধৰ্ম্মবীর, কৰ্ম্মবীর ও দাধৰীরের ३