পাতা:বঙ্গ-সাহিত্য-পরিচয় (দ্বিতীয় খণ্ড).djvu/২৯৫

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


বৈষ্ণব-চরিত্যখ্যান—নরোত্তম-বিলাস—১৬১৪-১৬২৫ খ্ৰীঃ । వజీd বিনা যানে রাজা অধ্যাপকাদি সনে । গেলেন খেতরি শীঘ্ৰ গৌরাঙ্গ-প্রাঙ্গণে ॥ গৌরাঙ্গ দর্শনে অতি দীন-প্রায় হৈয়া । করএ প্রণাম মহীতলে লোটাইয়া ॥ মহাবিজ্ঞ রামচন্দ্র গোবিন্দাদি তথি । কৈলা সমাদর সবে হৈল হৃষ্ট অতি ॥ ঐঠাকুর মহাশয় আছেন নিভৃতে। সকলে ব্যাকুল তার দর্শন নিমিত্তে । হেনকালে নিবন্ধ সমাধি মহাশয়। আইসেন দূরে সবে শোভা নিরিখর । রাজা নরসিংহ আর রূপনারায়ণ । প্রাঙ্গণ হইতে আগে করিলা গমন ॥ রামচন্দ্র মহাশয়ে করি নিবেদন । রাজা নরসিংহ এই রূপনারায়ণ ॥ দোহে কহে প্রভু কিবা দিব পরিচয় । বিষয়ী অধম অপরাধী অতিশয় ॥ লইলু শরণ নিবেদিতে পাই ত্ৰাস । দীক্ষা-মন্ত্ৰ দিয়া পূর্ণ কর অভিলাষ ॥ ঐছে কত কহি দোহে পড়ি ভূমিতলে । প্ৰণময়ে বার বার ভাসে নেত্র-জলে । দোহে অতি ব্যাকুল দেখিয়া মহাশয়। করি কত প্রবোধ দোহারে আলিঙ্গয় ॥ ভূমে পড়ি নরসিংহ রূপনারায়ণ । লইলা মস্তকে মহাশয়ের চরণ ॥ দুরে গেল দুঃখ হৈল আনন্দ হৃদয়ে। অধ্যাপকে আনি নিবেদয়ে মহাশয়ে ॥ যত অধ্যাপক তাহে ঞিহ সে প্রধান। দুরে গেল দর্প এবে কর পরিত্রাণ ॥ মহাশয়-আগে অধ্যাপক দাণ্ডাইয়া। কহিলা দেবীর কথা কাতর হইয়া ॥ পুনঃ কহে অপরাধ ক্ষমই আমার । শরণ লইলু মুঞি অক্তি ছয়চার ॥