পাতা:বঙ্গ-সাহিত্য-পরিচয় (দ্বিতীয় খণ্ড).djvu/৪৪৯

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


বিবিধ –সার দা-মঙ্গল—১৭শ শতাব্দী। లిసి 9 ধন কড়ি ধূলাকুট্যা তরণীতে তুলি। কথাএ জানিলে ধনী যাবে হেন বলি ৷ একে একে ইঙ্গিতে নৌকায় আনে তুল্য। সরস্বতী বলে বাছা যাবে এহা বলা ॥ জনাৰ্দ্দন দ্বিজ বল্য রাজার দুহিতা । কুমারকে জনাৰ্দ্দন-ভ্রমে প্রণাম করিল তারে নোঞাইয়া মাথা ॥ কাণ্ডারি-পদে বরণ । ধূলাকুটা হাসে তথা হেরিয়া যুৱতী । কামিনী কেমনে যাবে অন্ধকার রাতি ৷ কালিন্দী কিশোরী উমা রাজার কুমারী। পাত্রের বেটির নাম বিশাখাসুন্দরী। পঞ্চ কন্যা কুঙর পঞ্চাশ রাজার ধন। পক্ষরাজ-তরণীতে কৈল আরোহণ। সুবাহু-রাজার দেশ যাব এক রাতি। দয়ারাম দাসে ক্ষম (১) দেবী সরস্বতী ॥ গঙ্গাকে দিলেন পাণ দেবী সরস্বতী । সুরেশ্বর দেশে যাব সেবকের প্রতি । সুবাহু-রাজার বেটা নামে লক্ষধর। আজি রাত্রে লৈয়া যাব নৌকার উপর ॥ পবনে উড়িয়া যায় পক্ষরাজ তরী। কন্যারে সন্দেহ কিছু মনে চিন্তা করি ॥ যে আজ্ঞা বলিয়া গঙ্গা সারদারে কয়। ছমাসের পথ আর মুহূৰ্ত্তেকে লয় ॥ দেবতাকে অসাধ্য আছএ কোন কথা । মায়া-নদী তখনি করিল গঙ্গা মাত ॥ হাতে দণ্ড নিল দেবী হরি হরি বল্য । অঙ্গ বঙ্গ তখনি তরণী গেল চলা ॥ পঞ্চ কন্যা কুঙর পঞ্চাশ রাজার ধন। পক্ষরাজ তরণীতে চলিল পবন ॥ সৌড় (২) গায় ধূলাকুট্যা সারদা কাণ্ডারী। মুখে বস্ত্ৰ দিয়া হাসে ভুবন-ম্বন্দরী। (১) ক্ষমা কর । (২) সারি।