পাতা:বঙ্গ-সাহিত্য-পরিচয় (দ্বিতীয় খণ্ড).djvu/৬৩৫

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


প্রাচীন সঙ্গীত–গোবিন্দ অধিকারী—জন্ম ১৭৯৭ খৃঃ । Y(:ፃቖ রামচন্দ্র ছিল কাল, স্থপণখা বেসে ভাল, সঙ্গি-আশে পাশে গেল তারে কল্লে কদাকার ॥ ছিল সীতা মহাসতী, নির্দোষে কল্পে অসতী, পঞ্চমাসের গর্ভবতী বনে কল্পে পরিহার ॥ ( 8 ) মঙ্গল-বিভাস—তিওট। বড় বিপদ হয় হে মধুস্তদন নাম নিলে। দেখ তার সাক্ষী প্ৰহলাদ ভ’জে কত দুঃখ পেলে। সেই সত্যযুগে ভক্ত বলি, বলে সে মহাবলী কল্পতরু হয়,—তারে ছলিবার কারণ,— শ্ৰীমধুস্তদন তুমি হোলে বামন, বামন হয়ে নাগপাশে বেঁধে পাতালে পাঠালে, ও সে রাবণ রাজা মরণকালে, ডাকে মধুস্তদন ব’লে,—দয়া কর রাম, ওহে নিষ্ঠুর তাম, সেই রাবণে হ’লে বাম, সহায় ক’রে হনুমান, শেষে ব্ৰহ্ম-অস্ত্র ধরে তারে বধিলে ॥ ( & ) পাহাড়ী—একতালা । দীনবন্ধু হে, সেই দিন দেখব তোমায়, কেমন পরম বন্ধু তুমি। যে দিন শমন রাজা মোরে, শমন জারি করে, কোন ফেরে ঘোরে, দ্বারে বন্দী হই আমি ॥ হরি তুমি অকপট, আমি হে কপট, কপট প্রেমে তুমি নও হে প্রেমী। যদি অকপট প্রেমে, ডাকৃতেম তোমায় ভ্রমে, তবে এমন প্রেমে ভ্ৰমে কি ভ্ৰমে, হরি তুমি অতি সৎ, আমি হে অসৎ, অসৎ সঙ্গে বসত, অসৎগামী । এখন যেমন নিরন্তর, হতেছে অন্তর, জান সৰ্ব্বাস্তর, অন্তর্যামী ৷