পাতা:বর্ত্তমান বাঙ্গালা সাহিত্যের প্রকৃতি.pdf/১০

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে চলুন অনুসন্ধানে চলুন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


[ ч } সাহায্যে বড় বৃহৎ, বড় মহৎ, বড় হুঁন্দব, বড় డై কাৰ্য্য করিতে পাবা যায় । সাহিত্য বড় সামান্য সামগ্ৰী নহে, বড় সহজ সামগ্ৰীও নহে । • সুপ্রণালীতে বচিত হইলে, উহা জাতি গড়িবাব কর্য্যে যেমন সহাযত। কবে, কুপ্রণালীতে বচিত, হইলে, জাতি ভাঙ্গিবীর পক্ষে তেমনই কার্য্যকব হয, জাতি গঠনেব তেমনই প্রতিবন্ধকতা কবে । গঠনের গুণে সাহিত্য যেমন সুন্দব, যেমন অমৃতময ফল প্রসব কবে, গঠনেব দোষে তেমনই কদৰ্য্য, তেমনই বিষময় ফল প্রদান কবে । যে সাহিত্যের ফল কদৰ্য্য ও বিষময, যে সাহিত্য জাতি ভাঙ্গে বা জাতি গড়িতে দেয না, তাহ জাতীয সাহিত্যও নহে, প্রকৃত সাহিত্যও নহে । এইবাব বর্তমান বাঙ্গালা সাহিত্যেব প্রকৃতিব কিঞ্চিৎ আলোচনা করিব । যখন ৮ গোবমোহন আঢ্য মহাশযেব স্কলের দ্বিতীয় অথবা তৃতীয় শেণীতে পডিতাম, তখন বিদ্যাসাগর মহাশযের বেতাল পঞ্চবিংশতি আমাদের পাঠ্য ' ছিলo তখন বিদ্যাসাগব মহাশষের বাঙ্গালা লেখাব বড়ই প্রশংসা শুনিতাম। এখনও যে না শুনি তাহ