পাতা:বাংলাদেশের স্বাধীনতা যুদ্ধ দলিলপত্র (দশম খণ্ড).pdf/১৯৭

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে চলুন অনুসন্ধানে চলুন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।

o প্রশ্ন : o o

172 বাংলাদেশের স্বাধীনতা যুদ্ধ দলিলপত্র : দশম খন্ড আচ্ছা আপনি তো মেলাঘরে ট্রেনিংটা সেন্টারে গিয়েছিলেন, কোন বিশেষ অস্ত্রে উপর দেয়া হতো নাকি সাধারনভাবে নানা অস্ত্রের উপর দেয়া হতো?

প্রথমে সময় কম থাকায় তাড়াতাড়ি ১৫/১৬ দিনের মধ্যে একটা রাইফেল ট্রেনিং দেয়া হতো।

তারপর কিভাবে গ্রেনেড ছুড়তে হয়, কিভাবে প্রিকশন নিতে হয়, এবং যারা ব্রীজ ধ্বংস করবে অর্থাৎ কিভাবে ব্রীজ ডিমোলিশন করতে হবে- এসব ট্রেনিং দেয়া হতো। প্রথম দিকে খুব তাড়াতাড়ি ট্রেনিং ভিতরে পাঠানো হতো। আপনি এখানে কয় মাস ছিলেন?

আমি ২/৩ মাস ছিলাম। এরপর আমাকে সেক্টর থেকে আগরতলায় ব্রিগেড হেডকোয়ার্টারে পাঠানো

হয়। হেডকোয়ার্টারের কাজ কি ছিল?

যেহেতু বাংলাদেশ ফোর্সের হেডকোয়ার্টার ছিল কলকাতায় সেহেতু ইন সাইডে অর্থাৎ ইষ্টার্ন সাইডে

হেডকোয়ার্টার ধরলে। এদিকের অর্থাৎ ইষ্টার্ন সাইডের কো-অর্ডিনেশন করার জন্য যে সাব হেডকোয়ার্টার ছিল সেটার অবস্থান ছিল আগরতলায়। সেখানে ছিল অবসরপ্রাপ্ত লেঃ কর্নেল রব সাহেব। তিনি তখন সিলেটের এমপি ছিলেন। তিনি ছিলেন, মেজর আফতাব চৌধুরী ছিলেন, স্কোয়াড্রন লিডার শামসুল হক ছিলেন যিনি এখন ডাইরেক্টর জেনারেল, মিলিটারি সার্ভিস। তারপর একজন সিভিলিয়ান ডাক্তার ডাঃ আলী। ২নং সেক্টর থেকে আমাকে বলা হলো সেখানে যেতে হবে, তাই যেতে হয়েছিল। সেখানে জুলাই-এর শেষের দিকে কিংবা আগষ্টের প্রথম দিকে গিয়েছিলাম। ওখানে আপনার দায়িত্ব কি ছিল? گئی۔ ...تا ۔ت যেহেতু বিডিএফ (বাংলাদেশ ফোর্সেস)-এর প্রধান কার্যালয় ছিল কলকাতাতে এবং ইষ্টার্ন সাব হেডকোয়ার্টার ছিল আগরতলায় এই দুটোর মধ্যে কো-অর্ডিনেশনের জন্য। যেমন কোন অপারেশন প্ল্যান পাঠানো হলো সেটা কার্যকরী করা, বিভিন্ন সাব সেক্টরে প্ল্যান মেসেস ফরমে পৌছে দেয়া, যে অপারেশন তারা করেছে, পরবর্তীতে কি অপারেশন করবে সেগুলোর প্ল্যান তৈরি এবং সেটার প্রসেসিং ইত্যাদি করা হতো আমাদের ইষ্টার্ন সাব-হেডকোয়ার্টারে।সাব-হেডকোয়ার্টার আবার পরবর্তীতে এ সমস্ত মেসেস, প্ল্যান প্রোগ্রাম পৌঁছে দিতো বাংলাদেশ ফোর্সের প্রধান কার্যালয় কলকাতাতে। আপনারা কি ধরনের যুদ্ধ করেছিলেন? সম্মুখযুদ্ধ হয়েছিল। আপনি ওখানে কতদিন ছিলেন?

ওখানে বেশ কিছুদিন ছিলাম। ডিসেম্বরের প্রথম সপ্তাহে আমি আবার মেলাঘরে চলে আসি।

মেলাঘরে কিসের জন্য পাঠানো হয় আপনাকে?

তখন অলরেডী যুদ্ধ শুরু হয়ে গেছে। ট্রেনিং-এর কাজ প্রায় শেষ হয়তো তখন হেডকোয়ার্টার থেকে

সেক্টরে বেশি প্রয়োজন ছিল সেজন্য সেক্টরে পাঠানো হয় আমাকে যুদ্ধের প্রস্তুতির জন্য। কেননা, তখন পুরোপুরি যুদ্ধ শুরু হয়ে গিয়েছি, যাকে বলে কনভেশনাল ওয়ার।