পাতা:বাংলার পাখি - জগদানন্দ রায়.djvu/১৭৯

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


অন্য কুলেচর পাখী :- একে একে তোমাদিগকে অনেক কুলেচর পাখীর কথা रनिशाश्। किङ् (नश्वनि छाङ्जा आंद्रा थानरु १iशैक ' সময়ে সময়ে জলের ধারে চরিয়া বেড়াইতে দেখা যায়।. গগনাভেরী পাখী তোমরা দেখিয়াছ কি? ইহাদের ঠোঁটুগুলা ভয়ানক লম্বা এবং তাহারি নীচে আবার একটা প্ৰকাণ্ড থলি লাগানো থাকে। গগনাভেরীরা জলাশয়ের ধারে বসিয়া সেই লম্বা ঠোঁটু দিয়া মাছ ধরে এবং ঠোঁটের তলাকার থলিতে সেগুলিকে জমা করিয়া রাখে। এই রকমে থলি পরিপূর্ণ হইলে, বাসায় গিয়া বোধ করি সেই মাছগুলি উগরাইয়া খায়। গগনভেীরা খুব নিরিবিলি জায়গায় মাটির উপরেই ঘাসপাতা দিয়া বাসা বাঁধে। শুনিয়াছি, যখন স্ত্রী-পাখী। বাসায় বসিয়া ডিমে তা দিতে থাকে তখন পুরুষ-পাখী মাছ ধরিয়া আনিয়া স্ত্রীকে খাওয়ায়। গগনভেষ্ট্রীদের পায়ের আঙুলগুলি হাঁসের আঙুলের মতো জোড়া। গায়ের পালকের রঙ ধূসর এবং সাদা। ইহারা নিতান্ত ছোটো পাখী নয়। লম্বায় ইহাদিগকে প্রায়ই