পাতা:বিক্রমশিলা.djvu/১২

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে চলুন অনুসন্ধানে চলুন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।

“কেন ?” “ঐ যে প্ৰকাণ্ড অজগর সাপের মত পড়ে আছে হিমালয় পাহাড়টা, সেইটা পার হওয়াইত মহা সমস্যা । কারও এমন ভরসা হয় না যে বরফের সঙ্গে একলা লড়াই করতে যাবে। আর পথটা তো সোজা নয়, কতদিন কত মাস যে লেগে যাবে এটা পার হতে তার কি ঠিক আছে। তাই এ অজানা অচেনা পথে কেউ যেতে চায় না ।” “তবে কি বলতে চাও, এ দেশ থেকে কেউ ভারতে যায় নি, বা ভারত থেকে কেউ এ দেশে আসে নি ?” “তা যাবে না কেন, এখান থেকে অনেক দূত গেছে ভারতে, আবার ভারত থেকে পণ্ডিত পদ্মসম্ভব ও অন্য লোকেরাও এসেছেন। আর আমাদেরই রাজ্যে একজন আছেন, যিনি কিছু দিন আগে ভারতে গিয়েছিলেন।” (৩) “তবে তাকেই ডেকে পাঠাও না এখনি।” “যে আজ্ঞা মহারাজ ।” অমনি রাজার লোক লস্কর ছুটিল-সেই যাত্রীকে ডেকে আনতে। সে বেচারী নিজের ছোট কুটীরে বসে খাচ্ছিল, হঠাৎ তার বাড়ীর সামনে পাগড়াবাধা বড় বড় সিপাই শাস্ত্রীকে দেখে চমকে উঠল। সে বেচারী ত ভাবলে-না জানি কি ব্যাপার হয়েছে, সে জোড় হাতে জিজ্ঞাসা করলে-“কি হুকুম।” (e) at f(sfe ata-Nag-Tcho