পাতা:বিটকেলের দপ্তর - বিপিনবিহারী বসু.pdf/৪৪

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


8 R বিটকেলের দপ্তর । ন হইলে ও পত্তিযt “পলক" হাড়গুলি ভাঙ্গিযা ফেলিবাৰ ভয় বিলক্ষণ আছে । অপরের দ্বারা বিল। কারণে অপমানত হইলে তাহার গায় হাত তুলিবার অধিকাৰ নাই, চাইকি বাবু নিজে ছুঘ খাইয়াও চুপ করিয়া থাকেন। অনেকে বলেন যে যোগাড় পাইলে বাবুর হাত প। খুব পেলে, কিন্তু তাহা না হইলে তিনি সভ্যতার দোহাই দিয়া বাচিধা যান । তবে লোককে “বাগে” পাইলে বাবুৰ অন্ত প্রকাৰ ভাব দtডায় ( ক্ষীণ জনা নিষ্করুণা ইত্যাদি ) ইংরাজেব রাজত্বে বাবুর বাসায়নিক বিভাগ কবণ”{chemu cal aualysis) বাহিব হইয়াছে । ইহার পূৰ্ব্বে বাৰু বোধ ক্ষম বেশ ছিলেন অন্তঃত তাহাকে কেহ চিনিতে পারিত না । এক্ষণে বাৰু বিলক্ষণ দেখিতেছেন যে খাটি বাৰুঘন 'বর্তমান সমাজে ‘ কল্কে পায় না । তাল তুলি দিইলেও কিছু হইবার জোটি নাই । আগাগোড়। বদল দবকবি উনিশ শতাব্দীব সভ্যতা এবং বাবুয়ানার সভ্যতা ক"সা পাত্র ও মৃন্ময পাত্রের ন্তায় পাশাপাশি ভাসিতেছে। খুব বড বাবুব শবীবে কোন গুণ থাক আব না থাক, থান কতক গাজী গোটাকতক ঘোডা ও পোষাক পর চাকব আৰু কিঞ্চিৎ পৈতৃক বিষয় থাকিলেই চুকিযা গেল। তিনি মনে করিলেই বড় বড় সাহেবের কাছে যা ভাষাত করিয়া থাকেন । কিন্তু যাহার কাছে তিনি যান তিনি কি ধরণেব লোক ? তিনি হয়ত স্বার্থের জন্ত প্রতিদিন ১২ ঘণ্টা পরিশ্রম করিতে পারেন আর বাবুর হয়ত “তুলোভবা” তাকিয়াতে “খোচ খোচ” ঠেকে। তিনি হয়ত অশ্বগৃষ্ঠে বিশ মাইল অনাযাসে