পাতা:বিটকেলের দপ্তর - বিপিনবিহারী বসু.pdf/৪৭

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


হংস সভা | ত রবিবার মধ্যাহ্নে হংসসভাব একটি অধিবেশনা হয় । প্রথমেই শুক্ল গ্ৰীৰ নামক সভাপতি মহাশষ “পাক পাক” মা ওয়াজ কবিয়া উঠিয়া দাডাইলেন । সভাস্ট সমস্ত হংস সেই দণ্ডে মহা কোলাহবেব সহিত “পাক পাক” শব্দ কবিয়া ও ডানা ঝাড়িয়া মনের অাহলদি প্রকাশ কবিতে লাগিলেন । সে গোলযোগ থামিতে প্রায় দশ মিনিট কাটিয়া গেল । তাহাব পরে শুক্ল গ্রীপ একটি সুদৃশু রাজহংসকে সম্বোধন করিয়া বলিলেন “সম্পাদক মহাশয় । অনুগ্রহ কবিয সভাব কাৰ্য্য বিবরণ পাঠ করুন, আমি ততক্ষণ গুগলী শীকাৰ করি।” এই বলিয়, শুক্লগ্রীব ডুব মারিলেন। আবাব গগন মার্গ “পাক পাক” আওয়াrজ পবিপূর্ণ হইয় গেল। সম্পাদক মহাশয় লঘু স্বৰে দুইবাব “পাক পাক’ কবিঘা এইরূপ বলিতে মুক করিলেন । “অদ্য হংসসভাব কি শুভদিন । বীজত্ব -স পাতিহংস, চীনহংস, বামচক্র, চক্রবাক প্রভৃতি নানা বকম इश्न नभएवड झड़ेग्रारङ्म । श्राभायनव उँटकथा कि'? হংসজাতিব উন্নতি সাধন কব' ( পাক পাক ) । তুর্ভাগ্যের মধ্যে আমাদের সমাজের নায়কেব৷ সকলে অদ্য উপস্থি ত হইতে পাবেন নাই । গুগলীঘাটাব বাজহংস পবিবাবে ভযানক মকৰ্দমা বাধিয়াছে সুতরাং তাহাব উভযেই আসিতে পাবেন নাই । শামুক বাজারেব রাজহংসেব। ব্যায়রামে ভুগিতেছেন, আর তা ছাড়া তাহারা সকলেষ্ট