পাতা:বিভূতি রচনাবলী (অষ্টম খণ্ড).djvu/৬১

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


দেবযান 80 BS BBBB BBBS BB BB BBB BBB BBB DD S BB BBBB BBB তাদের চোখে দেখতে পাবেন না । পৃথিবীতে এলে তারা আমাদের চেয়েও অসহায় হয়ে পড়েন । পৃথিবীর স্থললোকের স্থল মনের ওপর তাদের প্রভাব আদৌ কার্যকর হয় না । তারা উৎসাহ ও প্রেরণা দেন আমাদের –আমরা কাজ করি । 彎 মেয়েটি বল্লেণ–এর মধ্যে আরও কথা আছে। বড় বড় দুর্ভিক্ষ, মড়ক, বন্যা, ভূমিকম্প প্রভৃতি যাতে দেশকে দেশ বা জাতিকে জাতি কষ্ট পায় –এ সবের মূলে অতি উচ্চ দেবতা— র্যারা গ্রহদেল প্ল্যানেটরি স্পিরিট—র্তাদের হাত বুয়েচে । তাদের উদেশ্য বা কর্মপ্রণালী আমরা বুঝিনে। কিন্তু ঐ সব উচ্চস্তরের বড় বড় লোকে তা বুঝতে পারেন। এর হয়তো কোথাও বড় একটা উদেশ্ব রয়েচে । আমাদের দৃষ্টি তত দূর পৌছোয় না- তারা সেটা দেখতে পান, কাজেই গ্রহদেবদের কাজে হস্তক্ষেপ করতে যান না । আপনি কিছুদিন আমাদের সঙ্গে থাকুন, ঘোরাফেরা করুন, অনেক কিছু দেখতে বা জানতে পারবেন । এ লোকের কাণ্ডকারখানা এত বিরাট ও জটিল যে নতুন পৃথিবী থেকে এসে মানুষে হতভম্ব হয়ে পডে-কিছুই ধারণা করতে পারে না । যতীন বল্লে –কিন্তু জানবার আগ্রহ আমার অত্যন্ত বেশী, দেবী । আমি জানতে চাই কি করে এই বিরাট আত্মিকমণ্ডলী কাজকর্ম চালাচ্চেন –এর কি করেন, এদেরই বা কে চালাচ্চে, গ্রহদেব র্যাদের বলচেন, তারাই বা কে, কোথায় থাকেন, কত উচ্চস্তরের আত্ম তাদের দেখতে পাওয়া যায় না কেন,—কোথা থেকে তারা এলেন-এ সব না জানলে আমার মনে শান্তি নেই। মেয়েটি বল্লেন --জনিবার ইচ্ছে থাকলেই ক্রমে ক্রমে সব জানতে পারবেন। এই আগ্রহই আসল । বেশীর ভাগ মানুষ পৃথিবী থেকে এখানে এসে কিছুই জানে না, বোঝে না, বোঝবার চেষ্টাও করে না। জানবেন, জ্ঞান ভিন্ন উন্নতি,নেই। এ লোকে আরও শক্ত নিয়ম। সেবা বলুন, ধর্ম বলুন, প্রেম বলুন—ততদিন উধ্বলোকে আপনার ঠাই হবে না, যতদিন জ্ঞানের আলো আপনার মনের অন্ধতা দূর না করচে । ডাক্তার আমেণ্ডে বল্লেন পৃথিবীতে কি জানেন, নানা মুনির নানা মতে সেখানে সত্যের সমাধিলাভ ঘটেচে। এখনও পৃথিবীর মন আপনার যায় নি। এ জীবনের বিরাট প্রসারত এখনও আপনি দেখতে পান নি। আপনি অঙ্গর, অমর, আপনার জীবন শাশ্বত অফুরন্ত । আপনার জন্মগত অধিকার এই জীবনের অমৃতপানে। আপনি তৃতীয় স্তরের মানুষ, আপনি কি ছোট ? আপনিও মুক্তাত্মা, আপনার সঙ্গে এই মহীয়সী মহিলা তো সাক্ষাৎ দেবী। এই সব পৃথিবীর হতভাগ্যদের ভরসার স্থল আপনারা । এরা যখন ভগবানের কাছে প্রার্থনা করে, সে প্রার্থনাযার কাছে পৌঁছো, তিনি আপনাদের মত পবিত্র মুক্তাত্মাদের মধ্যে দিয়ে নিজেকে প্রকাশ করে এদের সাহায্য করেন। তিনি শক্তি বিকীর্ণ করচেন, আপনার যন্ত্ররূপে সেই শক্তিকে ধরচেন, ধরে কাজে লাগাচ্চেন। বেতারের ঢেউএর আপনার রিসিভার । যন্ত্র যত উচুদরের, যত নিখুৎ—র্তার বাণীর প্রকাশ সেখানে তত স্থম্পষ্ট, সুন্দর। • যতীন অদ্ভুত প্রেরণা পেলে, ডাক্তার আমেণ্ডোর মত এত বড় আত্মার প্রশংসাতে । কিছু