পাতা:বিভূতি রচনাবলী (তৃতীয় খণ্ড).djvu/২৫৬

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


কেদার রাজা રહઠ এখানে থাকতে আর ভাল লাগছে, না গ্রামে ফিরতে ইচ্ছে হচ্ছে ? —এখন দুদিন এখানে থেকে দেখতে ইচ্ছে হয় বৈকি বাবা । আমার কথা যদি বলোআমার ইচ্ছে এখানে এখন কিছুদিন থেকে সব দেখি শনি—গ তো আছেই, সে আর কে নিচ্ছে বলো । পরদিন সকালে চাটুজে মশায় কেদারকে ডেকে পাঠালেন । সেখানে গানের মজলিশ হবে সন্ধ্যায়। কেদারকে আসবার জন্যে যথেষ্ট অনুরোধ করলেন তিনি। মজলিশে শুধ শ্রোতা হিসাবে উপস্হিত থাকলে চলবে না, কেদারকে গান গাইতে হবে । কেদার বললেন, আজ্ঞে, আমি বাজাতে পারি কিছু কিছল বটে—কিস্ত মজলিশে গাইতে সাহস করি নে । —খব ভাল কথা । কি বাজান বলনে ? —বেহালা যোগাড় করতে পারেন বাব ? —বেহালা ওবেলা পাবেন । আনিয়ে রাখবো । সেদিন তো বলেন নি আপনি বেহালা বাজাতে পারেন । আপনি দেখছি সত্যিই গুণী লোক । ওবেলা এখানে আহার করতে হবে কিন্ত। বাড়িতে মাকে বলে আসবেন। * —আমার মেয়ে যেখানে সেখানে আমায় খেতে দেয় না, তবে আপনার বাড়িতে সে নিশ্চয়ই কোনো আপত্তি করবে না । তাই হবে । - —আপত্তি ওঠালেও শনবো না তো কেদারবাব ? মার সঙ্গে নিজে গিয়ে ঝগড়া করে আসবো । আচ্ছা তাঁকে— —সে কোথাও খায় না। তাকে আর বলার দরকার নেই। —বিকেলে চাও এখানে খাবেন— বৈকালে কেদার সবে চাটুজে মশায়ের বাগানবাড়িতে যাবার জন্যে বার হয়েছেন, এমন সময় প্রভাসের গাড়ি এসে ঢুকলো ফটকে। প্রভাস গাড়ি থেকে নেমে বললে, কাকাবাব: কোথায় যাচ্ছেন ? কেদারের উত্তর শনে প্রভাস হতাশের সরে বললে, তাই তো, তা হলে আর দেখছি হ’ল नषा —কি হ’ল না হে ? . —শরৎ দিদিকে আজ একবার অরণের বাড়ি আর আমার বাড়ি নিয়ে যাবার জন্যে এসেছিলাম, ওখান থেকে একেবারে নিউমাকেট দেখিয়ে— —চলো একটু কিছয় মুখে দিয়ে যাবে—এসো— শরৎ ছটে বাইরে এসে বললে, প্রভাসদা আসন, আসন—অর্ণবাব এসেছেন নাকি? বসন প্রভাসদা, চা খাবেন । কেদার বললেন, বড় মশকিল হয়েছে মা, প্রভাস নিতে এসেছিল, এদিকে আমি যাচ্ছি চাটুজেবাবদের গানের আসরে । না গেলে ভদ্রতা থাকে না—ওবেলা বার বার বলে দিয়েছেন— , সভাসও দুঃখ প্রকাশ করলে। শরৎ দিদিকে সে নিজের বাড়ি ও অরণের বাড়ি নিয়ে যাবার জন্যে এসেছিল—কিন্ত কাকাবাব বেরিয়ে যাচ্ছেন— শরৎ বললে, বাবা আমি যাই নে কেন প্রভাসদার সঙ্গে ? যাবো বাবা ? কেদার খুশির বরে বললে, তা বরং ভালো বাবা । তাই যাও প্রভাস—তুমি শরৎকে নিয়ে যাও—তবে একটু সকাল সকাল পৌঁছে দিয়ে ষেও— প্রভাস বললে, আজ্ঞে, তবে তাই। আমি খুব শীগগির দিয়ে যাবো। সে বিষয়ে