পাতা:বিভূতি রচনাবলী (সপ্তম খণ্ড).djvu/১৪১

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


অনুবর্তন ১২৭ -ছিঃ, মার সম্বন্ধে কোন কথা বলতে নেই ছেলের । মায়ের বিচার কি ছেলে করবে ? আমারই দেরি হয়ে গিয়েছে আজ, উঠি বরং— —না স্তার, বন্ধন না আপনি । চুনির মার কণ্ঠস্বর পুনরায় দ্বারপথে শ্রত হইল ; খাবি নে পোড়ারমুখে ছেলে ? বামনী কি এত রাত পৰ্য্যন্ত তোমাদের ভাত নিয়ে বসে থাকবে নাকি ? নারাণবাৰু লজ্জিত কৈফিয়তের স্বরে অন্তরালবৰ্ত্তিনীকে উদ্দেশ করিয়া বলিলেন, হ্যা, বউমা, আমি এই যে ধাই—যাচ্ছি—একটু দেরি হয়ে গেল আজ— ঈষৎ নম্রহরে উদ্দেশে উত্তর আসিল, ভাত নিয়ে থাকতে হয় ঠাকুরঝি, তাই বলি। নইলে মাস্টার পড়াচ্ছে, পড়াক না—আমি কি বারণ করি ? নারাণবাবু গলির ভিতর দিয়া চলিয়া আসিলেন, মনে অভূতপূৰ্ব্ব আনন্দ। চুনি তাহার দিকে হইয়া মাকে মারিতে গিয়াছিল, তাহাকেই চুনি তবে শ্রদ্ধা করে, ভালবাসে, ভক্তি করে! কেন এ আনন্দ রাখিবার জায়গা নাই, বুদ্ধ নারায়ণবাবু তা বুঝিতে পারেন। র্তাহার কেহ আপনার জন নাই এ বিশাল দুনিয়ায়, তবু চুনি আছে, বড় হইলে তাহাকে দেখিবে। স্কুল-বাড়ীর বড় ছাণে রাত্রে আহারাদির পর নারাণবাবু পায়চারি করেন—বহুকালের অভ্যাস। আকাশে নক্ষত্ররাজি এই তেতলার ছাদ হইতে বেশ দেখা যায় বলিয়াই নারাণবাবু এই সময়ে উন্মুক্ত আকাশতলে বেড়াইতে ভালবাসেন। ডাকিলেন, ও জগদীশ ভায়া, খাওয়াদাওয়া হল ? টীচারদের ঘরের পাশে ক্ষুদ্র টিনের একখানি চালায় জ্যোতির্বিবনোদ মাছ ভাজিতেছিলেন, উত্তর দিলেন, ন দাদা, এই ছেলে পড়িয়ে এসে রান্না চড়িয়েছি। ও দাদা, আজ কী হয়েছিল জানেন ?—বলিতে বলিতে জ্যোতিবিনোদ বাহিরে আসিলেন :–আজ এই লাল বাড়ীর সেই যে ছেলেট ছাদে উঠে ডন কষত, সে আজ নতুন বউ নিয়ে বাড়ী এসেছে—পাড়াগায়ের বাড়ীতে বিয়ে হয়েছিল, আজ বউ নিয়ে এল। নারাণবাবু আগ্রহের সঙ্গে জিজ্ঞাসা করিলেন, কেমন বউ হল ? —খালা বউ হয়েছে—ওরই মত ফরসা, দুজনে ছাদে বেড়াচ্ছিল, খুব হাসিখুশি– —আহা, তা হোক, তা হোক— , —ম্বাই দাদা, মাছ পুড়ে গেল কড়ায়। কী জানি কেন, নারাণবাবুর হঠাৎ মনে পড়িল একট। ছবি। চুনি বিবাহ করিয়া বউ আনিয়াছে, যেমন চমৎকার রূপবান ছেলে, তেমনি লক্ষ্মী-প্রতিমার মত বন্ধু। পুত্রবধূ সাধ উাহার মিটিয়াছে। চুনি বলিতেছে, আমার বউ স্তার আপনার সেবা করবে না তো কার সেবা করবে ? চুনি পুরীতে বউ লইয়া বেড়াইতে গিয়াছে, সঙ্গে তাহাকে লইয়া গিয়াছে, কারণ উাহার শরীর খারাপ। পুত্রের কৰ্ত্তব্য করিয়াছে সে। চুনির বউ বলিতেছে, বাবা, আপনার পায়ে কি এ বেলা তেল মালিশ করতে হবে ? স্বপ্নাচ্ছন্ন অতীত দিবসগুলির কুয়াশা ভেম্ব করিয়া কত অস্পষ্ট মুখ উকি মারে। দুপুরের