পাতা:বিভূতি রচনাবলী (সপ্তম খণ্ড).djvu/৩৭৩

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


* श्रीनांथांब्र* to পাণীর কাকলীর মধ্যে দিয়া সে পরিচয় দিনে দিনে ঘনিষ্ঠ হইয়া উঠিঙেছে। ঐ মুচুকুন্দ চাপার ফুল যেন কতকাল পূৰ্ব্বের কোন বিস্তৃত অতীত শৈশবদিনে তাহার অজ্ঞাতসারে একদা সৌরত বিতরণ করিয়াছিল—মায়ের মুখের সঙ্গে সে দিনটির ছন্দ একই তারে গাথা হইয়া আছে তার মনের বীণায় । পরদিম গ্রাম্য নদীর ধারে একটা বড় নিমগাছের তলায় সে দাড়াইল । কমপিটিশন শিবশঙ্কর সকালে উঠেই দু দফা ফোন করলেন । একবার য়্যাটর্নি রায় ও মিত্রের জীবনধন রায়কে ও আর একবার প্রসন্নদাস বড়ালের অংশীদার ও কর্তা হরিদাস বড়ালকে , কারণ ওদের আপিস এখনো খোলে নি । o —নমস্কার, কি খবর ? —আস্থন একবার। কতদূর করলেন ? —আসবো এখন ? —এখানেই চা খাবেন । একটু পরে বাড়ীর বাইরে মোটরের শব্দ শোনা গেল এবং জীবনধন রায় ঘরে ঢুকলেন। জীবনধন রায়ের পরনে সাহেবি পোশাক, চোখে স্টীলের ফ্রেমের চশমা, পায়ে পেটেণ্ট চামডার চকচকে বুট, বগলে ফোলিও ব্যাগ । —আস্বন, মিঃ রায়, বস্থন । নমস্কার । —নমস্কার । —ওরে, চা নিয়ে আয় । তারপর ? —তৈরি । সরেজমিন তদারক করবেন না ? —রেজেক্ট আপিস সার্চের রেজাল্ট কি ? —ভালো | দাগী মাল নয়, তবে দেড়—দেড়ের কমে হবে না । আমাদের তিন পার্সেণ্ট । শিবশঙ্করবাবু হরিশ মুখুয্যের স্ট্রটে তিনতলা বড় বাড়ী কিনচেন এদের দালালিতে। দেড় লক্ষ টাকা দাম, র্যাটর্নিরা তিন পার্সেন্ট কমিশন নেবেন—আসল কথা হচ্ছে এই ••• রূপোর ষ্ট্রে ভরে টােস্ট, ডিম সেদ্ধ, আলুসেদ্ধ ও লেটুস সেদ্ধ এল, তার সঙ্গে চায়ের লিকার, দুধ চিনি আলাদা । 鷗 শিবশঙ্করবাবু বললেন–মিষ্টি দিই নি—কারণ আমাদের এ বয়সে— —ন না। থাক। তারপর আমার গাড়ী রেডি, চলুন একবার সরেজমিনে। জিনিসটা দেখুন । i -ৰেড রুম কতগুলো ?