পাতা:বিশ্বকোষ ঊনবিংশ খণ্ড.djvu/২৬০

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


লিঙ্গ [ २७० j श्लिष्यः পদ্ধতি প্রাপ্ত হইয়া থাকিবেন। তাহার ফলের আকারে লিঙ্গমূৰ্ত্তি স্থাপন অথবা কখন কখন সেই ফলকেই দেবতারূপে পুঞ্জ করিতেন । ইহাতে স্পষ্টই উপলব্ধি হয় যে, সংস্কৃত সফল ফলেশ ( ফল +ঈশ) হইতে গ্ৰীক Phallus শব্দ গৃহীত হইয়াছে । ফাল্গুনে নবপল্লব, পুষ্প ও ফলভারে অবনত বৃক্ষরাজি যখন ধরিত্রীকে নবাম্বরে ভূষিত করিয়া শোভা দান করে, তখন জগদবাসী আপনাপন ইষ্টদেবতাকে অভীষ্ট ফলপুষ্পদানে তুষ্ট করিতেন। আবহমান কাল হইতে ফাল্গুনমাসে এই পুজোৎসব বিহিত হইয়া আসিতেছে । Rosárúð ( Goddess of the Spring Satnrmalia ) এই ফাত্ত্বন মহোৎসব, গ্রীকৃদিগের ডাইওনিসেয়াসের ফাগোসিয়া উৎসব, মিসরের ফাল্লিকা ( Phalles ) এবং হিন্দুস্থানের ফল্গুৎসব বা হোলিকার সহিত যথেষ্ট সাদৃশ্ব আছে। বসন্তোৎসবের পর ফাল্গুন মাসে শিবরাত্রিতে পর্কে এবং চড়ক সংক্রাস্তিতে শিবকে বিশ্বফল, নারিকেল প্রভৃতি ফলদানের বিধি আছে । [ মদনমহোৎসব ও বসন্তোৎসব দেখ । ] আর্য্যজাতির ও ভারতীয় আৰ্য্যসমাজের প্রথমারব্ধ লিঙ্গপুজার চিরন্তন পদ্ধতি, উৎপত্ত্বি ও বিস্তারের সম্যক ইতিবৃত্ত বিলুপ্ত হইয়া মিশরবাসীর দ্যয় ক্রমশ: কিংবদন্তীমূল হইয়া পড়িতেছে। পরবর্তিকালে লিঙ্গাদি মহাপুরাণে এবং তন্ত্রাদি শাস্ত্রে লিঙ্গার্চন বিধি স্বতন্ত্রভাব ও তৎসাময়িক রীতি অনুসারে লিপিবদ্ধ হইয়াছে বলিয়া অনুমিত হয় । সেই আদিম উপাসনাপদ্ধতির কতকাংশ অর্থাৎ লৌকিক ও কৌলিক আচারাদি যে উহাতে গৃহীত হয় নাই, এরূপ সিদ্ধান্ত করা কোন ক্রমেই যুক্তিসিদ্ধ নহে । রাজ কাম্বিশ, পৌত্তলিক ধৰ্ম্মের বিরোধী হইয় পুরোহিতদিগকে দণ্ড দেন এবং পবিত্র এসিস্ ধ্বংস করেন।

  • “I have derived Phallus from Phalisa the Chief fruit, The Greek, who either borrowed it from the Egyptions or had it from the same source, typified the fructifier by a Pine apple the form of which resembles Sitaphala, * *. 1n like manner Gouri the itajp6ot Ceres is typified uuder the coco-nut or sriphal, the Chief of fruit or fruit sacred to Sri or Isa (Isis), whose other elegant emblem of abundange the Camacumpa is drawn with branches of palmyra, or coco-tree gracefully pendent from the vase (eumbha).

The stiphaia is accordingly presented to all the votaries of Iswara and Isa on the conclusion of the spring festival of Phalguna, the Phagasia of the Greeks, tlue Phament»th of the Egyptian8 and the Saturnalia of antiquity, a rejoicing at the renovation of the powers of nature, the oupine of heat over cold-of light our darkues." Tod's Rajasthan, Vol. 1, p, 608. সেরূপ কঠোরাচার অবলম্বন করিয়াও তিনি লিঙ্গোপাসনা উচ্ছেদ করিতে পারেন নাই। পরবর্ত্তিকালে গ্ৰীকৃ ও রোমকজাতি নীলনদের অববাহিক প্রদেশ জয় করিয়া মিশরীয় দেবমণ্ডলী রক্ষা করিয়াছিলেন । র্তাহারা ভক্তিচিত্তে সেই সেই দেবতার মন্দির সংস্কার করিয়া তাহা স্থাপত্যশিল্পে পরিশোভিত করেন • । খৃষ্টানধৰ্ম্মের অভু্যদয়ে এবং প্রভাববিস্তারে ক্রমশঃ পাশ্চাত্য জনপদবাসিগণ পৌত্তলিক উৎসব ও আড়ম্বর পরিত্যাগ করিতে অভ্যাস করিল। নীলনদের দেবসত্য, রোমের দেবলোক এবং আথেন্স নগরীর দেবসমাজ কিছুতেই খুঃধৰ্ম্মের গৌরব অতিক্রম করিতে পারিল না । পারিপাট্যহীন ও আড়ম্বরশুন্ত উপাসনায় লিপ্ত হইয়া তত্তদেশবাসিগণ পৌত্তলিক উপাসনার হতাদর করিল। দেবত ও মন্দিরাদি অনাদাg ভূমিসাৎ হইয়া গেল। থিয়োফিলাস কর্তৃক আলেকসাঞ্জিয়ার সিরাপিসের মন্দিরসমূহ ধ্বংস হয়। কালে মেম্ফিসের ওসিরিস মন্দিরও লিঙ্গভ্রষ্ট হইয়া খৃষ্ট ধৰ্ম্মমন্দিরে পর্য্যবসিত হইয়াছিল। এই সকল আলোচনা করিলে নিঃসন্দেহে বলা যাইতে পারে যে, জগতের আদিকারণস্বরূপ প্রকৃতিপুরুষাত্মক লিঙ্গ ও যোনিই জীবোৎপত্তির অবান্তর কারণ জানিয়া জগদ্বাসী জাতিমাত্রই পরমপিতা মহান ঈশ্বরের সেই মুখ্য শক্তির উপাসনা করিতে থাকে। প্রাচীন আৰ্যসমাজে সমাদৃত ও পূজিত সেই মহেশ্বরের লিঙ্গমুৰ্ত্তি আৰ্য্য জাতির প্রতীচ্য ও প্রাচ্য উপনিবেশে ক্রমশঃ বিস্তার লাভ করিয়াছিল । সম্ভবতঃ এই কারণেই ভারতীয় ও রোমীয় লিঙ্গমূৰ্ত্তির এত অধিক সোসাদৃশু পরিলক্ষিত হইয় থাকে। প্রাচীন হিব্রুগণ যে “বাল” দেবতার উপাসক ছিলেন, তাহা ভারতীয় বালেশ্বরের অভিন্ন লিঙ্গ ভিন্ন আর কিছুই নহে। বাইবেলগ্রন্থেও এই লিঙ্গমূৰ্ত্তি Chiun বা শিউন নামেই উক্ত হইয়াছে। ভারতবাসী হিন্দুমাত্রই এই মূৰ্ত্তিকে শিব, শিউ, প্রভৃতি শব্দে উল্লেখ করিয়া থাকেন। এতদ্বারা স্পষ্টই প্রতীয়মান হয় যে, খৃষ্টধৰ্ম্মের বহুপূৰ্ব্বে জম্ব, ও শাকদ্বীপের আর্য্যসমাজে শিবলিঙ্গের উপাসনা প্রচলিত ছিল। প্রাচীন . ভারতীয় আর্য্যজাতি যে সময়ে শিবলিঙ্গের উপাসনাপদ্ধতি অব • “Isis nnd Osiris, Sorapis and Canopus, Apis and Ibis adopted by the Romans, whose temples and images yet preserved, will allow full scope to the Hindu antiquary for analysis of both systems. The temple of Serapis at Pazzouli is quite Hindu in its ground plan.” Tod's Rajasthan vol 1, 606 n.

  • Ezekiel xvi. 17. Amos. v. 25-27. otid stal win co, ৯৫৪ খৃষ্ট পূৰ্ব্বাদেও বর্তমান শিবলিঙ্গ মূৰ্ত্তিতে গিঙ্গোপাসনা ও কপালে তিলকধারণ প্রচলিত ছিল ।