পাতা:বিশ্বকোষ একাদশ খণ্ড.djvu/৭৬৭

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


•পুলক [ १७७ ] পুলমায়ি অষ্ট্রেলিয় প্রভৃতি স্থলে ১ম শ্রেণীর পুলক পাওয়া ধায়। এই মণি দেখিতে রক্তমিশ্রিত নীলবর্ণ। ২য় শ্রেণী দেখিতে ঘোর গোলাপী হইতে বেগুনিয়া। ভারতে চেরদেশে এই মণি যথেষ্ট পাওয়া ধাইত বলিয়া ইছ সিরীয়’ নামে পাশ্চাত্য জগতে প্রসিদ্ধ, ব্ৰহ্ম ও সিংহলেও এই মণি পাওয়া যায়। ৩য় শ্রেণী উজ্জ্বল অথচ ঘোর সিন্দুর বর্ণ। এই জন্ত যুরোপে এই মণি ffiti : r ( Vermilion Garnet) atras sută বোছিমিয়া ও জার্মণীর নান স্থানে এই মণি পাওয়া যায়। ৪র্থ শ্রেণী রক্তপীতমিশ্রিত অর্থাৎ বাদামী রঙের মত, সিংহলে প্রধানতঃ এই মণি পাওয়া যায় । উক্ত চারিশ্রেণী ব্যতীত সাইবেরিয়া হইতে আর এক শ্রেণী জামদানী হইতেছে, ইহা অতি উজ্জল সবুজ বর্ণ। এতদ্ভিন্ন খনিজতত্ত্ববিদগণ আরও ৬.৭ প্রকার পুলক বাহির করিয়াছেন, এগুলি কিন্তু জুহুরীদিগের নিকট তেমন অদৃত হয় নাই। ভারতবাসী ও রোমকের অতি পূৰ্ব্বকাল হইতেই এই মণির বিষয় অবগত ছিলেন। থিওফ্রেষ্টাস্ ও প্লিনি Carbunculus নামে এই মণির উল্লেখ করিয়াছেন । প্লিনির মতে এই মণি স্ত্রী ও পুরুষ এই দুই শ্রেণীতে বিভক্ত । তাহার লিখিত পুরুষ শ্রেণীকে পদ্মরাগ ও স্ত্রী শ্রেণীকে এই পুলক বলিয়া মনে হয় । এক সময়ে মূল্যবান বলিয়া এই পুলকের যথেষ্ট আদর ছিল । এই পাথর নরম বলিয়া ইহাতে বেশ থোদাই কাজ হইত। যুরোপের প্রধান প্রধান রাজবংশের ঘরে ঐরূপ পুলকের উপর সক্রেটিস প্লেটে প্রভৃতির মূৰ্ত্তি পোদিত আছে। এখন এই পাথরের যথেষ্ট আমদানী হওয়ায় পূর্বের মত তার অাদর নাই। এখন ডিম্বীকার বৃহৎ পুলকমণি বড় জোর ২০০ টাকা মূল্যে বিক্রীত হয়। অনেক ব্যবসাদার এই পুলকের পিছনে কালরঙ লাগাইয়া ও পশ্চাদ্ভাগ বন্ধ করিয়া পদ্মরাগ বলিয়া অন্য লোককে ঠকাইয়া থাকে। মধ্যযুগেও যুরোপে পুলক মূল্যবান প্রস্তর বলির আদৃত হইত। পদ্মরাগের মত ইহাও শরীরের পক্ষে উপকারী বলিয়া সকলে জানিত । 象 এক্ষণে সভাজগতে যত পুলক আছে, তন্মধ্যে মাকু ইদিfaz ( Marquies de Dree) cztrtstato išttori ছুইখানি বৃহৎ পুলক আছে, ইহার একখানি আটকোণী, দৈর্ঘ্যে ৭০০ ইঞ্চ ও প্রস্থে ৬ঃ ইঞ্চ । ইহার মূল্য প্রায় ৩৫৫ ফ্রাঙ্ক । অপর খানি দৈর্ঘ্যে ? : ও প্রস্থে ৬: ইঞ্চ । ইহার মূল্য ১ • c • ফ্রাঙ্ক | ৪ দেহবহির্ভব কীটভেদ । ৫ মণিদোযভেদ। ৬ গজার পিণ্ড। ৭ হরিতাল । ৮ গল্পর্ক, মদ্যপাত্রভেদ । ‘পুলকঃ কৃমিভেদে স্তাগয়ৰ্কশিল্পেবরোঃ | গঙ্গারপিণ্ডে রোমাঞ্চে হরিতালে শিলাস্তরে । ( বিশ্ব ) ৯ অস্থরাজী, সর্ষপভেদ। ১০ গন্ধৰ্ব্বভেদ । ১১ সর্ষপ। ক্লী) পুলতীতি পুল-ৰ ততঃ সংজ্ঞায়াং কন্‌। ১২ কন্তুষ্ট, গিরিমাটি । (ত্রি ) ১৩ লোমহর্ষণ । পুলকাঙ্গ (ত্রি) ১ রোমাঞ্চ অঙ্গবিশিষ্ট। ২ বক্ষণের পাশাস্ত্র 6छ । পুলকালয় ( পুং ) কুবেরের নামান্তয় । পুলকিত (ত্রি ) পুলক-ইতচ। ১ রোমাঞ্চিত । ২ হর্ষযুক্ত । পুলকিন (ত্রি) পুলকমন্ত্যৰ্থে ইনি। ১ রোমাঞ্চযুক্ত। ২ ধারাকদম্ব, কেলিকদম্। পুলকীকৃত (ত্রি) পুলক ছি। ছর্ষে রোমাঞ্চিত। পুলকোদগম (পুং) হর্ষ। পুলগাও, মধ্যপ্রদেশের বদ্ধ জেলার অন্তর্গত একটা রেলওয়ে ষ্টেসন। অক্ষা” ২•° ৪৪' উঃ ও দ্রাঘি’ ৭৯° ২০' পূঃ, বৰ্দ্ধা নদীর নিকট একটা সুনীয় জলপ্রপাতের ধীরে অবস্থিত । পুৰ্ব্বে এখানে লোকালয় ছিল না। এখানে ষ্টেসন হইলে সেই সঙ্গে লোকের বাসের সহিত গ্রামে পরিণত হইল । দেউলি ও হিঙ্গমঘাটের প্রসিদ্ধ তুলার হাটে যাইবার পথ এগানে মিলিয়াছে। ছিন্দুর নিকট এই গ্রাম একট তীর্থস্থান বলিয়। গণ্য। এখানে একটা দবালয় আছে । পুলময়ি ( পুড় মায়ি) অঞ্চ ভূত্যবংশীয় দক্ষিণাতোর একজন প্রবল পরাক্রান্ত নৃপতি । এই নৃপতির নাম সম্বন্ধে নানারূপ দৃষ্ট হয়, ব্রগাণ্ডপুরাণে গুলমায়ী বা পুলমালি, মাংস্তে পুলোমাবি, বিষ্ণুপুরাণে পটুমান, ভাগবতে অটমান, নাসিকের শিলালিপিতে পুড় মায়ি, পুলুমারি বা পটুনাবি ইত্যাদি । প্রসিদ্ধ গ্ৰীক-ভৌগোলিক টলেমি লিখিয়াছেন, তাহার সময়ে দক্ষিণাপথ দুইট প্রধান রাজ্যে বিভক্ত ছিল-ইহার উত্তরাংশে Scro Poenios (= প্রাকৃত ‘গিরি পুলুয়াবি' ) রাজত্ব করিতেন, পৈঠনে তাহার রাজধানী ছিল এবং দক্ষিণাংশে Baleocurus নামে এক রাজা Hippocurn নামক স্থানে রাজত্ব করিতেন । টলেমি-বর্ণিত দুই নৃপতি শিলালিপি ও প্রাচীন মুদ্রায় পুলুমায়ি’ ও ‘বিলিবায়কুর’ নামে বর্ণিত হইয়াছে। টলেমি ১৬৩ খৃষ্টাব্দে কালগ্রাসে পতিত হন, এবং কাহারও মতে তিনি ১৫১ খৃষ্টাবে গ্রন্থ রচনা করেন, এরূপ স্থলে টলেমির গ্রন্থ রচিত হইবার পূর্কে টলেমি প্রাচুভূত হইয়াছিলেন, তাহাতে সন্দেহ নাই । নাসিকগুহা হইতে আবিষ্কৃত পুলুমারি ১৯শ বর্ষে উৎকীর্ণ সুবিস্তৃত শিলালিপি হইতে জানা যায়—