পাতা:বিশ্বকোষ চতুর্দশ খণ্ড.djvu/১০৩

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


মধবাচাযৰ্গ দুষিত হইবে । সেই বিধবাপুত্র পদ্মপাদুকের নিকট শিষ্যভাবে বেদান্ত অধ্যয়ন করিবে। তাহাঁর নিকট সম্পূর্ণ শাস্ত্র অধ্যয়ন করিয়৷ তাহার মনে কুতর্ক উপস্থিত হইবে। তাছাতে গুরু নিতাস্ত বিরক্ত হইয়। তাছার প্রকৃত পরিচয় জিজ্ঞাসা করিধেন। পরে যখন গুরু বুৰিৰেন যে, কপটতা অবলম্বন করিয়া সে শাস্ত্রশিক্ষা করিয়াছে, তখন মধুকে এই বলিবেন, “তোর কোন সিদ্ধান্তই মূৰ্ত্তি পাইৰে না। তখন মধু दशि८द, 'अ'मन्न क९। अङ्म९| हइँदोब्र नरङ् । चाभोग्न প্রার্থনা, পুৰ্ব্বপক্ষ ৰেল জামার হৃদয়ে দৃঢ় থাকে। গুরু বলিবেন, সিদ্ধাস্তে অন্ধত ও পূৰ্ব্বপক্ষে পটুতা তোর হইবে বটে, কিন্তু তোর শিষ্যগণ পাপিষ্ঠ হইৰে । তাছারা মোহবশে সিদ্ধা মুঙ্গানহীন, লোভৰশে রাজসেৰক, ক্রোধবশে পর্যভাষা, দস্তুপ্রভাৰে ধাত্মিকৰেশধারী ও ছেত্যুৰদৰশত: সৰ্ব্বশাস্ত্রতত্ত্ব বুঝিতে অক্ষম হইৰে ; স্বল্পকাল মধ্যেই তাহারা চিরদিনের জন্য ঘোর নরকে গমন করিবে। অভিশপ্ত হইবার পর মধু বেদান্তস্থত্রের ব্যাখ্যা করিবে, তজ্জন্য মধু দাক্ষিণাত্যে মধবাচায্য নামে খ্যাত হুইবে। কলিযুগে তাহার প্রভাবও যথেষ্ট থাকিৰে । আৰ্য্যাৰত্ত্ব, উৎকল, গোঁড়, গঙ্গাতীর, গোদাবরীতার ও অৰ্ব্ব দ্বারণ ব্যতীত অন্তস্থানে তাহার শিঘ্য প্রশিষ্যগণ বিস্তৃত হইৰে । মহারাষ্ট্রেই তাহাদের মত বিরল প্রচার হইবে। তাহারা হেতুবাদী হইবে,তাহার এই হেতুবাদ করিবে যে, এই জগৎপ্ৰপঞ্চ মিথ্যা এৰং মায়াকল্পিত এইরূপ মায়াবাদী যাহার। তাহারাই ৰত্বত: তত্ত্ববাদী। সেই মিথ্যাবদার কৰ্ম্মকাও প্ৰবৰ্ত্তক জৈমিনীর মীমাংসা, ঈশ্বরপ্রতিপাদক গোতমপ্রণীত দ্যfuদশন, পুরুষ-প্রকৃতির বিবেকবোধক কপিল প্রণীত সাংখ্য, ঈশ্বর প্রতিপাদক বৈশেষিকদশন ও যোগশাস্ত্র পাতঞ্জল এ সকলকেই শৈব শাস্ত্র বলিয়া থাকে। এমন কি, অদ্বৈতপোষক সব্বশ্রেষ্ঠ বেদাস্তশাস্ত্র, বড়ঙ্গসমম্বিত বেদ, পুরাণ, উপপুরাণ, ইতিহাস, স্থতি ও উপস্থতি তাহাদের মতে শৈবশাস্ত্র। সেই হেতুবাদার বলিবে, ‘লোক মহেশ্বরকে পরাৎপর মনে করে, কিন্তু বেদমাগবহিস্কৃত পাপিষ্ঠের মধবাচার্য্যকে মানে না। বস্তুতঃ তাহারা তাহাকে বিধবাপুত্র বলিয়া থাকে। মহাত্নঃ মধু প্রচ্ছন্নচাৰ্ব্বাক, কলিকালে এই মধু শিবনিন্দাপ্রবর্তন করিবে।’* • “তত: কলিযুগে প্রাস্তে সৰ্ব্বধৰ্ম্মবিবর্জিতে । মে:ছত্র ক্ষণধেনুনাং বিধ্বংসনকরে থরে । জম্বাধ্যায়ব্যটকারে জৈনবৌদ্ধার্সিস্কুলে। ৰাহ্মণে ম্লেচ্ছমাৰ্গথে পুত্রে ব্রাহ্মণঘাতিনি । اره ه لا ] মধবাচাষ্য সৌরপুরাণে মধ্বাচাৰ্য শৈবদ্বেষী বলিয়া বর্ণিত হইলেও এরূপ অযথাআক্রমণ স্থায়সঙ্গত বলিয়া বোধ হয় না। উহার আনস্তেশ্বর নামক শিবমন্দিরে দীক্ষা, শঙ্করাচাৰ্য্য-প্রবর্তিত তীর্থ উপাধিগ্রহণ, তাহার ও তন্মতাবলম্বিগণ-প্রতিষ্ঠিত মন্দিরাদিতে বিষ্ণুর সহিত একত্রে শিৰপাৰ্বতীর পূজা ইত্যাদি পর্ষ্যালোচনা করিলে তাছাকে কখনই শিৰদ্বেধী বলিতে পারা যায় না। বিশেষতঃ শাস্কর ও মাখৰ-গুরুদিগের শিষ্যের পরম্পর উভয়পক্ষীয় গুরুদিগকেই নমস্কার ও শ্রদ্ধা ভক্তি তদা বসন্ত: কর্ণাটতৈলঙ্গাদিকদূৰক । মধুনামা চ বিধৰাক্ষেত্রে ৰিগ্ৰাম্ভৰিৰাতি । গোলক: স তু পাপিষ্ঠঃ পত্নপাছুক্ষীশ্বয়ম্। বেদান্তুষ্যাখ্যানিয়তং শিষ্যত্বেনাৰ্কগ্নিৰ্যষ্ঠি৯ শাস্ত্ৰং পূর্ণং ততোছৰীত্য স্থিত জাংিকৰর্জিত । কিমপ্লিছোজং ক্ষে ৰাগে হেতুষেবং করিধ্যতি । গুরুরাকর্ণ তৰাক্যং ৰাহ্মণে ল ভবেদ্যমৃ •••••• গুরুত্বৰাচ—স্বৰ্ম্মাতা কেন দণ্ড রে কস্য পুত্ৰী ক্ষদা কথম্। কৰ্ম্মৈ দত্ত চ ৰিধিন কেন তম্জ্ঞছি মা চিরস্ । মধুফৰাচ—ৰিধৰ জননী নাথ ব্রাহ্মণেন তপস্থািনা। গড়িশ সমভূ২ তন্মাদয়ং দেহস্ততোছতবৎ । গুরুর বাচ-ৰুপটেন ষতঃ শাস্ত্ৰং মত্তোহধীতং দুরাক্সন । তেন সিদ্ধান্তমৰ্যাদা কদাচিন্না কম্বিয়ম্।. অন্ধত তৰ সিদ্ধাস্তুে পুৰ্ব্বপক্ষে চ পাটযম্। ভবত্ত্বেক পল্লত্ত্বেকং পাপী: শিষ্য ভবন্তু তে ॥ মোছাৎ সিদ্ধান্তরহিত লোভাং তে নৃপসেবক । ক্রোধাৎ কঠিনবক্তায়ে দণ্ডঘেষেণ সুন্দর: a হেতুৰাজেন শাস্ত্রাণি সৰ্ব্বণি ন বিদন্তি তে । নিরপ্ৰেৰঘোরেঘুগমিযাস্ত্যচিরচ্চিরম্ ॥ মধুনাম তত: প্রাপ্য শাপং তং দুষ্টবুদ্ধিমান। বাদ রায়ণপুত্ৰাণাং ৰ্যাখ্যানং স করিব্যতি ॥ মধবাচাৰ্যস্ততে ভাৰাদ্দাক্ষিণাত্যে মহান কলে । তচ্ছিব্যঃ প্রতিশিয্যাশ্চ নাৰ্য্যবৰ্ত্তে স্ন চোংকলে । ন গৌড়ে ন চ গঙ্গায়ান্ধীয়ে গোদাবরীতটে । নাদারণ্যমধ্যে চ তৎপ্রচারে ভবিষ্যত । ৰথ বধ কলেঘে tৱ: প্রচারে হি ভবিষ্যতি । তথা তথা মহারাষ্ট্ৰে হৈছুক্ষ; বিরলা; কচিৎ ৷ পঞ্চ বর্ষপ্ত সগ্ন্যাসী পঠিতে দুঃবুদ্ধিমান । শিষ্যোপশিষ্যসংযুক্তে হুেতুবাদং করিধ্যতি ॥. মম্যন্তে মহেশালং সৰ্ব্বাণোব পয়াৎপরম্ । পাপিষ্ঠ। সৈক মস্তম্ভে বেদমার্গবহিস্কৃতা: | জাচার্য্যং মধুনামানং যদস্তে ৰিধবাস্বতন্ত্ৰ । প্রচ্ছন্নোহসে মহাদুঃশ্চাঞ্চাকো মধুসংগ্রক: । ভবিষ্যঠি ৰল ৰিপ্ৰ:শিবলিঙ্গাপ্রবর্তন: " (সৌরপুরাণ • জ-)