পাতা:বিশ্বকোষ চতুর্দশ খণ্ড.djvu/১৫৯

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


মন্ত্রণা [ ১৫৯ ] es মন্ত্রণা তাহা জানিতে পারে না । অনুরাগবিহীন মন্ত্রী কখনই বিশ্বাসের পাত্র হয় না। অতএব তাহার নিকট মন্ত্রণা প্রকাশ করা রাজার অকৰ্ত্তব্য। অগ্নি যেমন সমীরণেরসহায়তায় মহাপাদপ ভস্মসাৎ করে, তন্দ্রপ অনুরক্ত মন্ত্রী ও অন্তান্ত মন্ত্রীদিগের সহিত ষড়যন্ত্র করিয়া রাজাকে উৎপন্ন করিতে পারে। প্রভু ক্রুদ্ধ হইয়া কখন অমুগতকে পদচু্যত এবং কখন বা তিরস্কৃত করিয়া পুনরায় তাহার প্রতি প্রসন্ন হন। অনুগত ব্যক্তিরাই প্রভূর ঈদৃশ ব্যবহার সহ করিতে পারেন। মন্ত্রিগণও অনেক সময় ভূপতির উপর সাতিশয় কোপাম্বিত হন, কিন্তু যে মন্ত্রী রাজার প্রিয়কাৰ্য্য করিতে অভিলাষী হইয়৷ সেই ক্রোধ সম্বরণ করিতে পারেন, বুদ্ধিমান ভূপতি মুখ দুঃখ, লাভালাভ, জয়াজয় সমজ্ঞান করিয়া তাহারই সহিত সকল বিষয়ের মন্ত্রণা করিবেন। কুটিল ব্যক্তি বিবিধগুণসম্পন্ন ও অমুরক্ত হইলেও তাহার নিকট মন্ত্রণ প্রকাশ করা কৰ্ত্তব্য নহে। যে ব্যক্তি শত্রুদিগের সহিত মিলিত হয় এবং পুরবাসীদিগের সন্মান না করে, সে শক্রতুল্য, তাহার নিকট মন্ত্র প্রকাশ করা নিতান্ত দুৰ্ব্বোধের কার্য্য । অশুচি, অহঙ্কারী, আত্মশ্লাঘাপরায়ণ, অমুহৃদ, ক্রোধপরতন্ত্র ও লুব্ধ ব্যক্তিরা মন্ত্রণাশ্রবণের উপযুক্ত নহে। * আগন্তুক ব্যক্তি যদি জ্ঞানসম্পন্ন ও প্রভূভক্ত হন, পূৰ্ব্বে যাহার পিতা অ্যtয়রূপে পরিত্যক্ত হইয়াছে, সেই ব্যক্তি যদি তাহার পিতৃপদে সংস্থাপিত হইয়া বিধিপূৰ্ব্বক সংস্কৃতও হয় এবং কোন কারণবশতঃ কোন ব্যক্তিকে যদি নিধন করা হয়, তবে সেই ব্যক্তি অসাধারণ গুণসম্পন্ন হইলেও, বুদ্ধিমান ব্যক্তি তাহার নিকট বা পূৰ্ব্বোক্ত ব্যক্তিগণের নিকট মন্ত্রণ প্রকাশ করিবেন না । যিনি প্রজ্ঞাবান, মেধাবী, বিশুদ্ধস্বভাব, শাস্ত্রজ্ঞ, জ্ঞানসম্পন্ন, আত্মতুল্য, প্রিয়মুহৃদ, সত্যবাদী, সচ্চরিত্র, গম্ভীরস্বভাব, লজ্জাশাল, যুদ্ধ, পাপদ্বেষা,প্ৰগলভ, সন্তোষপরায়ণ, মন্ত্ৰজ্ঞ, কালদশী, শৌর্য্যসম্পন্ন, যুদ্ধনিপুণ ও নীতিবিশারদ এবং যিনি সাম্বলাবাক্য দ্বারা লোক সকলকে বশীভূত করিতে পারেন, পুরগ্রামবাসী ধাৰ্ম্মিক লোকের র্যাহাকে বিশ্বাস করেন এবং আপনার ও শক্র প্রভৃতির বিষয় যিনি বিলক্ষণ বিদিত, তিনিই মন্ত্রণা-শ্রবণের উপযুক্ত । মন্ত্রী ইরূপ গুণসম্পন্ন ও সৎকৃত হইলে নিশ্চয়ই রাজার মঙ্গলবিধানে যত্নবান হন । স্বীয় প্রভু, প্রজাগণ ও শত্রুপক্ষের ছিদ্রান্বেষণে সচেষ্ট হ ওয়া মন্ত্রীর অবশ্যকৰ্ত্তব্য । মন্ত্রীদিগের মন্ত্ৰণাৰলেই রাজার রাজ্য পরিবর্দ্ধিত হইয় থাকে। বিজ্ঞতম মন্ত্রিগণ আরতির দোষ দর্শন কল্পিবামাত্র তাহাকে আক্রমণ করিবেন এবং এইরূপ সাবধান হইয়। চলিবেন যে, যেন শত্রুপক্ষ তাহার কোন ছিদ্র নিরীক্ষণ করিতে সমর্থ না হয়। কুৰ্ম্ম স্বেরূপ আপনার অঙ্গপ্রত্যঙ্গ সমুদয় গোপন করিয়া রাখে, তস্কপ মন্ত্রীরাও মন্ত্রণা সকল গোপন করিয়া রাখিবেন। মন্ত্রণ ও চর রাজ্যরক্ষার মুল কারণ। মন্ত্রী সকল বৃত্তিলাভার্থ রাজার অনুসরণ করিয়া থাকেন। রাজ্য ও মন্ত্রী উভয়ে অহঙ্কার, ক্রোধ, অভিমান ও ঈর্ষ। পরিত্যাগ করিবেন। স্নাজ অকপট মন্ত্ৰিগণের সহিত মন্ত্রণা করিবেন । অস্তুত: তিন জন মন্ত্রী নিযুক্ত করা রাজার অবস্থ্যকৰ্ত্তব্য। রাজ। তিন জন মন্ত্রীর মত গ্ৰহণ করিয়া এবং উহা সবিশেষ অক্ষুধাবনপুৰ্ব্বক ধৰ্ম্মাৰ্থকামজ্ঞ গুরুর সমীপে যাইবেন এবং তাঙ্কার নিকট আপনার অভিপ্রায় ব্যক্ত করিবেন । গুরু ঐ চারি জনের মত আদ্যোপাস্ত শ্রবণ করিয়া তদ্বিষয়ে একটা সিদ্ধাস্তু করিয়া দিলে যদি সেই সিদ্ধান্ত সাধারণের মতানুযায়ী হয়, তাহা হইলে তদনুসারে কার্য্য করাই ভূপতির কৰ্ত্তব্য। মন্ত্রনির্ণয়কুশল মহাত্মার মন্ত্রণা করিবার এইরূপ রীতি নির্দেশ করিয়া গিয়াছেন। উত্তমরূপে মন্ত্রণা করিতে পারিলে প্রজাগণকে অনায়াসে বশীভূত করা যায়। মহীপাল যেস্থানে মন্ত্রণা করিবেন, তখায় যেন বামন, কুন্ড, কৃশ, খঞ্জ, অন্ধ, জড়, নপুংসক বা তিৰ্য্যকৃযোনি, অবস্থান না করে। নৌকায় বা কুশকাশবিহীন, অনাবৃত জনপুপ্তপ্রদেশে অৰস্থান কারয়। বাক্যদোষ ও অন্নদোষ সকল পরিহারপূৰ্ব্বক মন্ত্রণ করবেন। আরও লিখিত আছে, চারিজন পবিত্র ব্রাহ্মণ, আটজন অস্ত্রধারী মহাবলপরাক্রান্ত ক্ষত্রিয়, অতুল ঐশ্বৰ্য্যসম্পন্ন এক বিংশতি বৈপ্ত, বিনীতস্বভাব অতিপবিত্র তিন জন শূদ্র এবং এক জন শুশ্রুষাদি অষ্টগুণসম্পন্ন পুরাণবেত্ত। সুতকে অমাত্যপদে নিযুক্ত করা রাজার কৰ্ত্তব্য । অমাত্যগণ সকলেই যেন পঞ্চাশৎ বর্ষ বয়স্ক, বিনীত, বুদ্ধিবানু, অপক্ষপাতী, ৰিচারক্ষম, লোভবিহীন ও মৃগয়াদি সপ্তবিধ দোষবিবৰ্জ্জিত হন । এই সকল অমাত্যের মধ্যে চারি জন ব্রাহ্মণ, তিন জন ক্ষত্রিয় ও এক জন স্থত এই আট জনকে মন্ত্রিপদে নিযুক্ত করিবেন। রাজ। এই ৮ জনের সহিত মন্ত্রণ করবেন। ( ভারত শান্তিপৰ্ব্ব, রাজধৰ্ম্মামুশাসনপৰ্ব্ব, ৮৪, ৮৫ অd ) যুক্তিকল্পতরুতে লিখিত আছে, রাজ্যের মূল মন্ত্রণ, এই জন্ত রাজা যতক্ষণ নিঃসন্দেহে ফলপ্রাপ্ত না হন, ততক্ষণ মন্ত্রণা কfরবেন । অর্থ ও অনর্থ এই দুয়ের সংশয় যাহাতে পরীক্ষিত হয়, তাছাকে মন্ত্র কহে । অতিগোপনে এই মন্ত্রণ করিতে হয়। মন্ত্রণাকালে জড়, মূক, বধির, তিৰ্য্যকৃযোনি, স্ত্রী, ম্লেচ্ছ, ব্যাধিগ্রস্ত, বিকৃতাঙ্গ প্রভৃতিকে বর্জন ক্ষয় বিধেয় । বিষ অথবা শস্ত্রে এক জনই প্রাপ ত্যাগ করে, কিন্তু মন্ত্রবিপ্লবে