পাতা:বিশ্বকোষ চতুর্দশ খণ্ড.djvu/৪২৭

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


यहांब्रांड़े [ 8२१ ] गशांब्रांड़े হইলেন। শিবাজীর মরাঠা-সৈন্য অসাধারণ শৌর্য্যপ্রকাশ করিয়াও এই ঘোর সঙ্কটে বিজয়গ্ৰী লাভ করিতে পারিলেন না। তখন তিনি মোগলদিগকে বিজাপুর অধিকারে সহায়তা করিতে প্রতিশ্রত হইয়া তাহাদের সহিত মিত্রত স্থাপন করিলেন । মোগলসম্রাটু শিবাজীর সহায়তায় বিজাপুর রাজ্য বিলুপ্ত করিবার আদেশ দিলেন। মোগলদৈন্ত বিজাপুররাজ্য উৎসাদন করিতে লাগিল। আলী আদিল শাহ যথাসম্ভব যুদ্ধসজ্জা করিলেন। সর্জা খাঁ ও খাবাস খ’ নামক র্তাহার দুই প্রধান সেনাপতি প্রাণপণে যুদ্ধ করিতে লাগিলেন । এই বিপৎকালে কুতবশাহ বিজাপুরপতির সহায়তায় অগ্রসর হইয়া জয়সিংহকে পুনঃ পুনঃ পরাস্ত ও মোগল-সৈপ্তদিগকে নিতাস্ত জর্জরিত হইতে হইল। একটা যুদ্ধে সঙ্গ খ নিহত হইলেও বিজাপুরীসৈন্ত মোগলদিগের পরাজয় সাধন করিল। জয়সিংহ পরবর্তী একটা ग्रूप्रु श्रृङ्ग्राभूष श्हेप्ड वहकप्टे ब्रणी भाहेब्र निल्लो अडिग्रुत्थ পলায়ন করিলেন । এইরূপে আলী আদিল শাহ তাহার আমলে প্রাণপণ চেষ্টায় রাজ্য রক্ষা করিয়া ১৬৭২ খৃষ্টাব্দে প্রাণত্যাগ করিলেন। তিনি ভোগবিলাসপরায়ণ হইয়াও প্রজাপালনে অমনোযোগী ছিলেন না। তিনি স্বয়ং কবি ও বিদ্বানদিগের আশ্রয়দাতা ছিলেন। বিজাপুর-দরবারে সচিবদিগের মধ্যে পরস্পরের প্রতি ঘোর ঈর্ষ্য ছিল । কিন্তু আলীর গুণে সে সমস্ত তাহার জীবদ্দশায় প্রকটিত হইবার অবসর পায় নাই। শিবাজীর বিদ্ৰোছসত্ত্বেও অনেক মরাঠা-সন্দার ও বুদ্ধিমান ব্রাহ্মণগণ তাছার আশ্রয়ে বঞ্চিত হন নাই । গিকনায় আলী আদিল শাহ এই বংশের শেষ নরপতি । পিতার স্বত্যুকালে ইনি ৫ম ববীয় ছিলেন। কাজেই দরবারা কৰ্ম্মচারীদিগের অস্তৰ্ব্বিপ্লব অতীব বুদ্ধি পাইয়। সৰ্ব্বত্র গোলৰোগ উপস্থিত হইল। সচিবদিগের আত্মকলহে শত্রুপক্ষের বিশেষ সুবিধা হইল। শিবাজী পাহাল দুর্গ পুনরধিকার করিলেন। বহু লোল খাঁ তাহার বিরুদ্ধে যুদ্ধযাত্রা করিয়া ডাছাকে কিয়ৎ পরিমাণে ব্যতিব্যস্ত করিয়া তুলিলেন। খাবাস ৰ। মোগলমুবেদার বাহাদুর খায় সহিত কৌশলে সন্ধিস্থাপন कब्रिटणन । किरु नब्रवाब्रौ गछिंदनिcशब्र थाश्रवि6८झ्ब्र करण ७ जयन्ही अथिकबिन झांद्रौ श्हेण न । *f*ाम-४गनिटकब्रा ८र्दछन ना नाsञ्चाङ्ग वाणाशंत्रामा च्याब्रस कब्रिण। cबाश्रजग*ाञ्च बिाणब्र दी जबब्र बुकिब्र दिखइन्द्रब्र चांजवन कब्रिह्णन । किरू कथम७ आश्णिषाशै-ब्रोरखाब्र कि९ि °ब्रमाङ्ग अबनिडे ছিল। এই কারণে শিবাজী মোগলদ্বিপেক্ষ কাৰ্য্যকলাপে বাধা দেওয়া,আবগুক বোধে বিজয়পুর-জয়ৰায়কে দিলের খণর বিরুদ্ধে যথেষ্ট সাহায্য করিতে লাগিলেন । ফলে মোগলসর্দারকে অপযশের ভাগী হইয়া পলায়ন করিতে হইল । s७७० ंiःस्रं गवां मब्रप्लःखब भि१-विखप्छन्न शश्छ সসৈন্তে আগমন করিলেন। শিবাজীর পুত্র সাম্ভাজী তখন পৈতৃক নীতির অমুসরণ করিয়া বিজয়পুরকে সহায়তা করিতে ছিলেন। সিকম্বরের বয়স তখন ১৬ বৎসর। দরবারে বুদ্ধিমান কৰ্ম্মচারী তখন কেহই ছিলেন না। নগরবাসীরাও বিলাসী হইয়া পড়িয়াছিলেন । সুতরাং যখন অরঙ্গজেব নগর অবরোধ করিলেন, তখন চারিদিকে হাহাকার পড়িয়া গেল । স্বলতান সিকলার নিরুপায় হইয়৷ মোগল-সম্রাটের শরণাপন্ন হইলেন । আরঙ্গজেব তাহাকে বাধিক এক লক্ষ টাকার বৃত্তিদান করিয়া অরঙ্গাবাদের দুর্গে অবরুদ্ধ করিয়া রাখিলেন। বিজাপুর রাজ্য ১৯৭ বৎসর আত্মগৌরব রক্ষা করিয়া ১৬৮৬ খৃষ্টাব্দের ১৫ই অক্টোবর মোগলরাজ্যভুক্ত হইল । অরঙ্গজেৰ হতভাগ্য সিকদারকে ১৭০১ খৃষ্টাব্দে বিষপ্রদান করিয়া ইহজগৎ হইতে আদিলশাহী বংশের অস্তিত্ব পর্য্যস্ত বিলুপ্ত করিলেন। কুতবশাহী-বংশ । কুতৰশাহী-বংশ গোলকোও প্রদেশে ১৫১২ হইতে ১৬৮৭ খৃষ্টাকা পৰ্য্যস্ত রাজত্ব করিয়াছিলেন । এই প্রদেশ মহারাষ্ট্রের অন্তর্গত না হইলেও এখানকার সুলতানগণের অধীন থাকিয়া অনেক মহারাষ্ট্রীয় পরিবার বিশেষ উন্নতি লাভ করিয়াছিলেন। খৃষ্টীয় ১৭শ শতাব্দীতে মহারাষ্ট্রীয় জাতির যে অভু্যদয় হয়, তাহার সহিত এই সকল মরাঠা-পরিবারের বহুপরিমাণে সম্বন্ধ ছিল। একারণে সংক্ষেপে এই রাজবংশ সম্বন্ধে কয়েকট কথা এস্তলে বলা আবশুক । কুলী কুতৰশাহ এই বংশের জাদি পুরুষ। তিনি ৰাহ্মণী স্বলতানের সর্দার ও স্ববেদার ছিলেন, পরিশেষে উক্ত সুপতানের ভীরুতা অনুভব করিয়া স্বাতন্ত্র্য ঘোষণাপূৰ্ব্বক গোলকোওtয় ,একটী পৃথক্ রাজবংশের প্রতিষ্ঠা করেন। তৈলঙ্গের হিন্দু-রাজাদিগের সহিত যুদ্ধ করিয়া তাহাদিগের वांछब्लाइब्रt५ हैशंग्न अशिकांश्* नमग्न अश्छिदाहिङ झङ्ग । ইহার কনিষ্ঠ পুত্র জমশীদ কুতবশাহের আমলে মহারাষ্ট্ৰীয়গণ দরবারে প্রতিপত্তি লাভ করেন। জমশীদের সহায়তাকারী সেনাপতিজিগের মধ্যে জগদেব রাও নামক এক মরাঠাসর্দার বিশেষ প্রসিদ্ধি লাপ্ত করিয়াছিলেন । পরবর্তী স্কুলভান ইত্ৰাছিম কুম্ভৰশাছের সিংহাসনে আরোহণ উপলক্ষে ৰে cञांजरबीन के°क्ठि इब्र, अञtनर ब्रf७ wiशtरड डेद्धfहिभएक