পাতা:বিশ্বকোষ চতুর্দশ খণ্ড.djvu/৭৬২

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


মিল করিয়৷ কাব্যভাবের তন্ময়ত লাভ করিতে পারিলেন না, তিনি বিজ্ঞান ও রসায়ন-শাস্ত্রের পরীক্ষিত বিষয় সকল পাঠ করিতে ও তৎসমুদায়ের পরীগণ দেখিতে ভাল বাধিতেন। দ্বাদশ বর্ষ বয়সের মধ্যে মিল বাল্যশিক্ষা সমাপ্ত করিয়া চিন্তা রাজ্যের পথ অনুসন্ধান করিতে লাগিলেন। তিনি এই সময়ে তর্কশাস্ত্রের আলোচনায় প্রবৃত্ত হইলেন। অর্গানন্‌ (Organon)-প্রণীত তর্কশাস্ত্র তাহার এ বিষয়ে প্রথম পাঠ্য । তর্কবিদ্যার যুক্তিপরম্পরা তাহার চিস্তাপ্রবণ-চিত্তে অত্যন্ত আনন্দ প্রদান করিতে লাগিল । এ সম্বন্ধে তিনি স্বীয় জীবন বৃত্তান্তে লিথিয়াছেন যে,--তৰ্কশাস্ত্রের স্থায় কোন শাস্ত্রই বুদ্ধি পরিমার্জিত করিতে পারে না । এই সময়ে তিনি বিখ্যাত গ্ৰীকবক্তা ডিমসথিনিসের “ফিলিপিকস" নামক বক্তৃতাগুলি পাঠ করেন এবং গ্রীস দেশের রীতি নীতি ও সমাজপদ্ধতি অবগত হন। তৎপরে তাপিতাস, জুভিনাল ও কুইন্টিলিওন প্রভৃতি বিখ্যাত গ্রন্থকারগণের পুস্তক সকল পাঠ করিয়া প্লেটোর “জর্জিয়ান্‌” “প্রোটে। গোরস,” এবং রিপাবলিক্‌” বা সাধারণ-তন্ত্র নামক ভুবনবিখ্যাত গ্ৰন্থ সকল পড়িতে আরম্ভ করেন। মিল স্বয়ং বলিয়। গিয়াছেন যে, আস্মোৎকৰ্ষ লাভ করিতে হইলে প্লেটোর গ্রন্থ অধ্যয়ন না করিলে কখনই শিক্ষা সম্পূর্ণ হয় না । এই সময়ে ১৮১৮খুঃ অব্দে তাহার পিত। জেমস ভারতবর্ষের ইতিহাস গ্রন্থ সমাপন করেন। উহা মিলের শিক্ষার প্রধান উপাদান স্বরূপ হইয়াছিল। ঐ গ্রন্থ পাঠ করিয়া তিনি হিন্দুদিগের প্রাচীন সভ্যতা ও সমাজ পদ্ধতি প্রভূতি জানিতে পারেন এবং ভারতবাসিগণের আস্তরিক হিতৈষী হইয় উঠেন । ইহার অল্পকাল পরে রিকার্ডে। অর্থনীতি ও রাজনীতি সম্বন্ধুে একখানি পুস্তক প্রণয়ন করেন। জেমস পুত্রের চিন্তাশক্তি উত্তরে গুর মাজ্জিত করিবার জন্ত মিলকে মুথে মুখে ঐ পুস্তকসম্বন্ধীয় স্থল স্থল বিষয়ের উপদেশ দিতেন। পরে পুত্রকেরিকার্ডোর পুস্তকের সহিত আডাম স্মিথ-প্রণীত অর্থনীতিশাস্ত্র মিলাই ৷ উৎকর্ষ(পকর্ষের সমালোচনা করিতে বলিতেন । জেমসের স্থায় শিক্ষণ গুর পৃথিবীতে অল্প লোকে স্ন ভাগ্যেই ঘটিয়া থাকে এবং মিলের স্তায় ছাত্র ও সংসারে অতি বিরল। বিধাতার বিচিত্র বিধানে পিতাপুত্র গুরু-শিষ্যরূপে জ্ঞানরাজ্যের কুৰ্গম দুর্গে প্রবেশ কfরতে লাগিলেন । এইরূপে চতুৰ্দ্দশ বংসর বয়সে মিলের বিদ্যাশিক্ষ। সমাপ্ত হইল । এক্ষণে ভিনি আর পিতার ছাত্র নহেন - নিজেই শিক্ষক হইলেন। ธรูหฯ বৎসর বয়সের মধ্যে তিনি গ্ৰীক, লাটিন ও ইংরাজী ভাষার ব্যাকরণ, সাহিত্য, কাব্য, অলঙ্কার, ইতিহাস, বিজ্ঞান ও [ १७२ ] | মিল 象 দর্শন প্রভৃতি শাস্ত্র পাঠ করিয়া জ্ঞানবৃক্ষের উচ্চশাখায় আরোহণ করিলেন । তিনি কখনও বিস্তালয়ে ধান নাই এবং পিতা ভিন্ন অন্ত শিক্ষকের নিকটেe পড়েন নাই । 蠍 শিক্ষা সম্পূর্ণ করিয়া মিল দেশভ্রমণে বহির্গত হইলেন । পিত্ত। পুরকে উপদেশ দিলেন—তুমি নানাদেশ ভ্রমণ করিয়া দেখিবে, তোমার সমবয়স্ক যুবকেরা তোমার অপেক্ষ শিক্ষায় সহস্ৰগুণে পশ্চাৎপদ--তাহা দেখিয়া তোমার উৎকর্ষের বিষয় চিন্তা করিয়া আত্মাভিমানী হই ও না এবং বিদ্যালোচনায় বিরত হইও না, কারণ শাস্ত্র অনন্ত ও বেদিতব্য-বিষয়ের সীমা নাই । & ভ্রমণ ও বিদ্বজনসন্মিলন । মিল পুৰ্ব্ব হইতেই ভ্রমণপ্রিয় ছিলেন। লণ্ডনে জন্মগ্রহণ করিলে ও তিনি মধ্যে মধ্যে পল্লীপ্রকৃতির শস্তণ্ডামল৷ শোভা সমৃদ্ধি দেখিবার জন্ত পল্লীগ্রামে ভ্রমণ করতে যাইতেন । এই সময়ে ১৮১৩ খৃঃ অব্দে পিতৃ বন্ধু স্ব গ্রসিদ্ধ বেস্থামের সহিত মিল অক্সফোর্ড, বাথ, ব্ৰিষ্টল, প্লাইমাউথ প্রভৃতি জনপদ ভ্রমণ করিয়া নানা উপদেশ লাভ করেন। নৈসর্গিক নিরূপম সৌন্দর্য্য তাহার চিত্তকে বিশেষভাবে আকর্ষণ করিয়াছিল। এই সময় হইতে মিল বেস্থামের সহিত প্রতিবৎসর ৬ মাস করিয়া একত্র অবস্থান করিতেন। ইংলণ্ডের নানাস্থান ভ্রমণ করিয়া মিল বেস্থামের সহিত ফ্রান্সে গমন করেন এবং পিরিনিস পৰ্ব্বতের উপত্যকক্ষেত্রে বাস করিয়া জড়-প্রকৃতির মনোমোছন সৌন্দর্য্য অবলোকন করেন । এই স্থানে তিনি ফরাসী ভাষা শিক্ষা করিয়। উক্ত ভাষার বিজ্ঞান, দর্শন ও সাহিত্যশাস্ত্র অধ্যয়ন করিতে লাগিলেন এবং ফুন্সের বিদ্বজ্জনমণ্ডলীর সহিত পরিচিত হইয়৷ নানা বিষয়ে জ্ঞানলাভ করিলেন । এক বৎসরের অধিক কাল ফ্রান্সে অবস্থান করিষা প্রসিদ্ধ দার্শনিক সেন্ট সাইমনের সহিত র্তাহার আত্মীয়তা জন্মে । এই সময় হইতেই তাহার হৃদয় স্বাধীন চিস্তার উদ্দীপনামস্ত্রে দীক্ষিত হয় । বেস্থাম, হিউম, রিকার্ডে প্রভূত মহামহোপাধ্যায় পণ্ডিতগণ জেম্স মিলের বন্ধু ছিলেন। মিল পিতৃবন্ধুগণের পুস্তকপাঠে ও কথোপকথনে শৈশবজীবনেই তাহাদিগের প্রদশিত পথে বিচরণ করিতে শিখিয়াছিলেন। তন্মধ্যে বেস্থামের নীতিই তাহার চিন্তাকে স্থাপিত করিয়াছিল। পরে গোট, চালস অষ্টিন প্রভৃতি পণ্ডিতমণ্ডলীর সহিত মিলের ঘনিষ্ঠভ। . জন্মিল । মিল এতদিন গৃহাভ্যস্তরেই অধ্যয়ন করতেন । এই সময় ছহঁজে তিনি সমাজের বিদ্বদ্বর্গের সহিত সম্মিলিত হইয়৷ নুতন জীবনে প্রবেশ করিলেন। কিন্তু সকল অবস্থাতেই বিস্তামুণীলন তাহর স্থিত্বলক্ষ্য থাকিল ।